bangla news

ট্রেন দুর্ঘটনায় নাশকতার বিষয়টি খতিয়ে দেখা হচ্ছে

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-১১-১৫ ৭:১৬:২৬ পিএম
উল্লাপাড়ার ঘটনাস্থল পরিদর্শনে রেলমন্ত্রী

উল্লাপাড়ার ঘটনাস্থল পরিদর্শনে রেলমন্ত্রী

সিরাজগঞ্জ: রেলমন্ত্রী নূরুল ইসলাম সুজন বলেছেন, উল্লাপাড়ার ট্রেন দুর্ঘটনায় নাশকতার কোনো আলামত রয়েছে কী-না তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। 

তিনি বলেন, ২০১৩-১৪ সালে এ অঞ্চলে ট্রেন পুড়িয়ে দেওয়ার ঘটনা ঘটেছিল। তেমনই কোনো নাশকতামূলক কর্মকাণ্ড হয়েছে কী-না তা তদন্ত করা হচ্ছে। বিষয়টি আমাদের ভাবাচ্ছে। 

শুক্রবার (১৫ নভেম্বর) বিকেলে সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়ায় রেলওয়ে স্টেশন এলাকায় ট্রেন দুর্ঘটনার স্থান পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব কথা বলেন। 

মন্ত্রী বলেন, ব্রাহ্মণবাড়িয়ার কসবায় কুয়াশা বা অন্য কোনো কারণে দুর্ঘটনা হতে পারে। কিন্তু এখানে তো মিটারগেজের লাইন একটাই। এ লাইন দিয়ে মিটারগেজ ট্রেনই যাবে। এখানে স্টপেজ বা ক্রসিংয়েরও কোনো ব্যাপার ছিল না। এখানে ডিটেইলমেন্টটা হওয়ার কোনো কথা নয়। লাইন ক্লিয়ার দেওয়ার ব্যাপারে কারও কোনো গাফিলতি আছে কী-না সেটা খতিয়ে দেখা হচ্ছে। ইতোমধ্যে পয়েন্টম্যানের দায়িত্বে থাকা দু’জনকে আটক করা হয়েছে। আমরা প্রাথমিকভাবে জেনেছি, এরা অর্ধেক কাজ করে খাওয়ার জন্য গিয়েছিল। এ ধরনের একটা অভিযোগও রয়েছে। 

অগ্নিকাণ্ড প্রসঙ্গে মন্ত্রী বলেন, ইঞ্জিনের তেল থেকে আগুন  লাগতে পারে। কিন্তু অন্য বগির ভেতরে কীভাবে আগুন লাগলো, এর পেছনে কোনো ষড়যন্ত্র রয়েছে কী-না সেটাও তদন্ত করে দেখা হবে। 

উল্লাপাড়ার পর দুটি ঝুঁকিপূর্ণ রেলসেতুর ও রেল লাইনের ব্যাপারে তিনি বলেন, জয়দেবপুর থেকে ঈশ্বরদী পর্যন্ত এখানে ডাবললেন করা হবে। ইতোমধ্যে প্রকল্প অনুমোদন হয়েছে। তবে সেটা সময়সাপেক্ষ ব্যাপার। তবে দ্রুত সময়ে ঝূঁকিপূর্ণ রেলসড়ক সংস্কারের আশ্বাস দেন তিনি। 

এ সময় মন্ত্রীর সঙ্গে রেলসচিব মোফাজ্জল হোসেন, অতিরিক্ত সচিব মুহাম্মদ জিয়াউর রহমান, জেলা প্রশাসক ড. ফারুক আহম্মেদ, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) ফিরোজ মাহমুদ, উপজেলা চেয়ারম্যান শফিকুল ইসলাম শফি, নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো. আরিফুজ্জামান ও পৌর মেয়র এস এম নজরুল ইসলাম উপস্থিত ছিলেন। 

বাংলাদেশ সময়: ১৯১০ ঘণ্টা, নভেম্বর ১৫, ২০১৯
এসএইচ

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-11-15 19:16:26