ঢাকা, শুক্রবার, ১১ আষাঢ় ১৪২৮, ২৫ জুন ২০২১, ১৪ জিলকদ ১৪৪২

জাতীয়

শিক্ষার্থীদের দিয়ে ইট তোলানো সেই প্রধানশিক্ষক বরখাস্ত

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৮৫১ ঘণ্টা, নভেম্বর ১৫, ২০১৯
শিক্ষার্থীদের দিয়ে ইট তোলানো সেই প্রধানশিক্ষক বরখাস্ত মো. নাছির উদ্দিন মুক্তা

বাগেরহাট: বাগেরহাটের শরণখোলায় শিক্ষার্থীদের দিয়ে ইট তোলানোয় বকুলতলা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধানশিক্ষক মো. নাছির উদ্দিন মুক্তাকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (১৪ নভেম্বর) দুপুরে বাগেরহাট জেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মো. কবির উদ্দিন ওই শিক্ষককে সাময়িক বরখাস্ত করেন।

তিনি বলেন, অভিযুক্ত প্রধানশিক্ষক নাছির উদ্দিন মুক্তা দায়িত্ব অবহেলা করে শিক্ষার্থীদের ভবনের তিনতলায় ইট তোলার নির্দেশ দেন।

ইট তুলতে গিয়ে পঞ্চম শ্রেণির শিক্ষার্থী মারুফের হাত ভেঙে যায়। এ ঘটনায় অভিভাবক ও এলাকাবাসীর মধ্যে ক্ষোভ ও অসন্তোষ ছড়িয়ে পড়ে। পরে উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তার তদন্ত প্রতিবেদনে ঘটনার সত্যতা পাওয়ায় ওই শিক্ষককে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। পরবর্তীতে তার বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

সোমবার (১১ নভেম্বর) সকাল ১১টায় প্রধানশিক্ষকের নির্দেশে শরণখোলা উপজেলার ৫২নং বকুলতলা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কাম আশ্রয়কেন্দ্রে ভবনের তিনতলার ছাদে ইট ওঠানোর সময় মারুফের হাত ভেঙে যায়। পরে বাগেরহাট জেলা প্রশাসক মো. মামুনুর রশীদের নির্দেশে সরেজমিন পরিদর্শন করে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) ওই শিক্ষার্থীর উন্নত চিকিৎসার ব্যবস্থা করেন। উপজেলা পরিষদ থেকে ওই শিক্ষার্থীর পরিবারকে ১০ হাজার টাকা আর্থিক সহায়তা দেওয়া হয়।

আহত মারুফ খুলনা মেডিক্যাল (খুমেক) কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

বিতর্কিত ওই শিক্ষককে সাময়িক বরখাস্ত করায় ও মারুফের উন্নত চিকিৎসার ব্যবস্থা করায় জেলা প্রশাসনকে সাধুবাদ জানিয়েছেন শিক্ষার্থীর মা মাসুরা বেগমসহ এলাকাবাসী।

বাংলাদেশ সময়: ০৩৪৩ ঘণ্টা, নভেম্বর ১৫, ২০১৯
এএটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa