bangla news

রিকশায় ফেলে যাওয়া অর্ধলাখ টাকা পাইয়ে দিলেন কনস্টেবল

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-১০-২০ ৮:১২:০০ পিএম
মালেকা বেওয়ার হাতে তার টাকা তুলে দেন বগুড়ার এসপি আলী আশরাফ ভূঞাসহ উর্ধ্বতন কর্মকর্তারা। ছবি: বাংলানিউজ

মালেকা বেওয়ার হাতে তার টাকা তুলে দেন বগুড়ার এসপি আলী আশরাফ ভূঞাসহ উর্ধ্বতন কর্মকর্তারা। ছবি: বাংলানিউজ

বগুড়া: ব্যাংক থেকে ৫০ হাজার টাকা উত্তোলন করে বাড়ি ফিরতে রিকশায় ওঠেন মালেকা বেওয়া (৬০)। রিকশা থেকে নামার সময় ভুলে ৫০ হাজার টাকার ব্যাগটি ফেলে চলে যান তিনি। এরপর হয়তো সেই টাকা ফেরত না-ও পেতে পারতেন তিনি। কিন্তু ট্রাফিক পুলিশের এক কনস্টেবলের বিচক্ষণতায় সেই টাকা ফেরত পেলেন মালেকা।

রোববার (২০ অক্টোবর) দুপুরে বগুড়া সদর উপজেলার চেলোপাড়া এলাকায় ঘটনাটি ঘটে। মালেকাকে তার টাকাগুলো পাইয়ে দিয়ে প্রশংসার জোয়ারে ভাসছেন অজিত কুমার নামে ওই কনস্টেবল।

মালেকা বেওয়া সোনাতলা উপজেলার চরপাড়া গ্রামের মৃত জসমতউল্লাহ স্ত্রী। প্রবাসী ছেলের পাঠানো টাকা বগুড়ার ইসলামী ব্যাংক শাখা থেকে উঠিয়ে নিজের বাড়ি সোনাতলার চরপাড়া গ্রামে যাওয়ার জন্য রিকশায় করে চেলোপাড়া যাচ্ছিলেন মালেকা। চেলোপাড়ায় পৌঁছালে ভুলে টাকার ব্যাগ রিকশায় ফেলে নেমে যান তিনি। রিকশাচালক ব্যাগ নিয়ে তখনই সটকে পড়ার চেষ্টা করলে তা চোখে পড়ে দায়িত্বরত ট্রাফিক কনস্টেবল অজিত কুমারের। তৎক্ষণাৎ তিনি রিকশাচালককে ধরে ব্যাগটি উদ্ধার করেন।

ব্যাগে থাকা জাতীয় পরিচয়পত্র দেখে মালেকার পরিচয় পাওয়া যায়। এরপর পুলিশ মালেকাকে খুঁজে বের করে এসপির কার্যালয়ে নিয়ে আসে। সেখানে এসপি আলী আশরাফ ভূঞা সেই টাকা মালেকা বেওয়ার হাতে হস্তান্তর করেন। হারানো টাকা ফিরে পেয়ে মালেকা বেওয়ার চোখে-মুখে দেখা দেয় হাসির ঝিলিক।

এসময় এসপির কার্যালয়ে উপস্থিত ছিলেন জেলা পুলিশের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা, জেলার সব উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও সুশীল সমাজের প্রতিনিধিরা।

বাংলাদেশ সময়: ২০০৭ ঘণ্টা, অক্টোবর ২০, ২০১৯
কেইউএ/এইচএ/

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-10-20 20:12:00