bangla news

মেরিটাইম বিষয়ে ডিগ্রি অর্জনে চীন যাচ্ছে ২৫ প্রশিক্ষণার্থী

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-১০-০৯ ৬:৩৪:১৪ পিএম
অনুষ্ঠানে উপস্থিত অতিথি ও প্রশিক্ষণার্থীরা। ছবি: বাংলানিউজ

অনুষ্ঠানে উপস্থিত অতিথি ও প্রশিক্ষণার্থীরা। ছবি: বাংলানিউজ

ঢাকা: মেরিটাইম বিষয়ে ডিগ্রি অর্জনের লক্ষ্যে প্রথমবারের মতো বাংলাদেশ থেকে ২৫ প্রশিক্ষণার্থী চীন যাচ্ছে বলে জানিয়েছেন প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. সেলিম রেজা।

তিনি বলেন, সমঝোতা স্মারক অনুসারে চীন সরকারের বৃত্তি নিয়ে প্রশিক্ষণার্থীরা ৪ (চার) বছর মেয়াদী এ কোর্সের প্রথম বছর জনশক্তিত রফতানি উন্নয়ন ব্যুরো (বিএমইটি) পরিচালিত ৬টি বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অফ মেরিন টেকনোলজি (আইএমটি) থেকে সমাপন করে পরবর্তী তিন বছর চীনের জিয়াংসু মেরিটাইম ইনস্টিটিউটে সম্পন্ন করবে। কোর্স সম্পন্নকারী প্রশিক্ষণার্থীরা চায়নাশিপে কাজ করার সুযোগ পাবে। প্রথম ব্যাচ কোর্সটি সফলভাবে সম্পন্ন করতে পারলে পরবর্তীতে প্রতি বছর ৭৫ জন করে প্রশিক্ষরণার্থী চীনে এ ডিগ্রি অর্জনের সুযোগ পাবেন।

মেরিটাইম বিষয়ে ডিগ্রি অর্জনের লক্ষ্যে চীনে গমন উপলক্ষে বুধবার (৯ অক্টোবর)  মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষে আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে সেলিম রেজা এ কথা বলেন।

অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য রাখেন- প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক র্কমসংস্থান মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব ড. আহমেদ মুনিরুছ সালেহীন, জনশক্তি র্কমসংস্থান ও প্রশিক্ষন ব্যুরোর (বিএমইটি) মহাপরিচালক (ভারপ্রাপ্ত) শেখ রফিকুল ইসলাম, মন্ত্রণালয়ের যুগ্ম-সচিব মো. সারোয়ার আলম, বিএমইটির পরিচালক (প্রশিক্ষণ) ড. মো. নুরুল ইসলাম প্রমুখ।

সেলিম রেজা বলেন, বাংলাদেশের মানুষ অত্যন্ত মেধাবী। আর এ মেধা ও দক্ষতাকে কাজে লাগিয়ে দেশে-বিদেশে উন্নত প্রশিক্ষণ গ্রহণ করে বিদেশের মাটিতে দেশের ভাবমূর্তি উজ্জ্বল করতে হবে। সেইসঙ্গে একেকজন প্রশিক্ষর্ণাথীকে শুভেচ্ছা দূতের মতো কাজ করতে হবে।

প্রবাসী কল্যাণসচিব বলেন, ২০১৭ সালের জানুয়ারি থেকে বাংলাদেশ সরকারের ঐকান্তিক প্রচেষ্টায় মেরিটাইম বিষয়ে প্রশিক্ষণের জন্য বাংলাদেশ ও চীনের মধ্যে সম্প্রতি একটি সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষরিত হয়েছে। পরর্বতী ব্যাচের চীনে প্রশিক্ষণের সুযোগ র্নিভর করছে প্রথম ব্যাচের সফলতার ওপর উল্লেখ করে তিনি প্রশিক্ষর্ণাথীদের প্রশিক্ষণে অত্যন্ত মনোযোগী হওয়ার জন্য আহ্বান জানান।

বাংলাদেশ সময়: ১৭৩০ ঘণ্টা, অক্টোবর ০৯, ২০১৯ 
জিসিজি/ওএইচ/

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-10-09 18:34:14