bangla news

দিল্লিতে শেখ হাসিনা-মোদীর বৈঠক শনিবার

ডিপ্লোম্যাটিক করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-১০-০৪ ২:০২:৩১ পিএম
‘বাংলাদেশ ভবন’ উদ্বোধনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও নরেন্দ্র মোদী, ছবি: সংগৃহীত

‘বাংলাদেশ ভবন’ উদ্বোধনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ও নরেন্দ্র মোদী, ছবি: সংগৃহীত

ঢাকা: প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা শনিবার (০৫ অক্টোবর) দিল্লিতে ভারতের  প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর সঙ্গে দ্বিপক্ষীয় বৈঠকে বসবেন। এতে দুই দেশের মধ্যে দ্বিপক্ষীয় সহযোগিতার ক্ষেত্রগুলো নিয়ে আলোচনা হবে। বৈঠক শেষে দুই দেশের মধ্যে প্রায় ১৫টি  চুক্তি ও সমঝোতা স্মারক সইও হতে পারে।

শুক্রবার (০৪ অক্টোবর) পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় সূত্র জানায়, ওয়ার্ল্ড ইকোনমিক ফোরামের সম্মেলনে যোগ দিতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ভারতে অবস্থান করছেন। এই সম্মেলন শেষে শনিবার দেশটির প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর সঙ্গে বৈঠক করবেন তিনি। বৈঠকে আলোচনা শেষে যুব ও ক্রীড়া, সংস্কৃতি, নৌপরিবহন, অর্থনীতি, সমুদ্র গবেষণা, পণ্যের মান নির্ধারণ, বাণিজ্য, শিক্ষা, তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি এবং অর্থনৈতিক অঞ্চল প্রতিষ্ঠা খাতের প্রায় ১৫টি চুক্তি ও সমঝোতা স্মারক সইয়ের প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে।

দিল্লির হায়দ্রাবাদ হাউসে শনিবার স্থানীয় সময় বেলা সাড়ে ১১টায় অনুষ্ঠেয় দুই প্রধানমন্ত্রীর এই বৈঠকে তিস্তাসহ অভিন্ন নদীর পানিবণ্টন, আসামের নাগরিকত্ব তালিকা, সীমান্ত হত্যা প্রতিরোধ, উন্নয়ন-জ্বালানি খাতে সহযোগিতা, রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন, বঙ্গবন্ধুর শততম জন্মবার্ষিকী ইত্যাদি নিয়েও আলোচনা হবে বলে আশা করা হচ্ছে।

দুই প্রধানমন্ত্রীর মধ্যে বৈঠকে বাংলাদেশের রপ্তানি পণ্যের ওপর আরোপিত অ্যান্টি ডাম্পিং ও অ্যান্টি সারকামভেনশন ডিউটি প্রত্যাহারের বিষয়েও আলোচনা হতে পারে। এছাড়া বিএসটিআই অনুমোদিত পণ্য ভারতের সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানের অনুমোদনের বিষয়ে উদ্যোগ ও উভয় দেশের স্থলবন্দরে আমদানি-রপ্তানি পণ্যের তালিকা বৃদ্ধির বিষয়ে আলোচনা হতে পারে বলে জানিয়েছে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়।

একাদশ জাতীয় নির্বাচনের পর নতুন মেয়াদে ক্ষমতায় আসার পর প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবারই প্রথম ভারত সফরে গেছেন। এদিকে, ভারতের জাতীয় নির্বাচনের পর পুনরায় ক্ষমতায় এসেছে বিজেপি। সেদিক থেকে বাংলাদেশ ও ভারতের দুই প্রধানমন্ত্রী নতুন মেয়াদে দায়িত্ব গ্রহণের পর প্রথমবারের মতো দিল্লিতে দ্বিপক্ষীয় বৈঠকে বসছেন। সে কারণে উভয় দেশের মধ্যে রাজনৈতিক সম্পর্ক বাড়ানোর বিষয়েও দুই প্রধানমন্ত্রী জোর দেবেন বলে আশা করা হচ্ছে।

এর আগে ২০১৭ সালের ৭ এপ্রিল সর্বশেষ দিল্লি সফরে গিয়েছিলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। অবশ্য ২০১৮ সালের ২৫ মে পশ্চিমবঙ্গের শান্তি নিকেতনে বিশ্বকবি রবীন্দ্রনাথ ঠাকুর প্রতিষ্ঠিত বিশ্বভারতী বিশ্ববিদ্যালয়ে ‘বাংলাদেশ ভবন’ উদ্বোধনে সেখানে গিয়েছিলেন শেখ হাসিনা।

সফর শেষে প্রধানমন্ত্রী রোববার (০৬ অক্টোবর) দেশে ফিরবেন।

বাংলাদেশ সময়: ১৬০০ ঘণ্টা, অক্টোবর ০৪, ২০১৯
টিআর/টিএ

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-10-04 14:02:31