bangla news

ছেলেপক্ষ না আসায় ঘটকের আত্মহত্যা!

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৯-২৭ ৮:২২:৩১ পিএম
প্রতীকী ছবি

প্রতীকী ছবি

মাগুরা: ছেলেপক্ষ না আসায় বিয়ে পণ্ড হওয়ার ঘটনায় অপমানিত হয়ে আত্মহত্যা করেছেন মাগুরার মহম্মদপুরের বাশো গ্রামে শাহিদুল ইসলাম (৩২) নামে এক ঘটক। 

নিহত শাহিদুল ইসলাম ওই গ্রামের ছুরমান শেখের ছেলে ও এই বিয়ের ঘটক ছিলেন।

স্থানীয় বাবুখালী ইউনিয়নের ৫ নম্বর ওয়ার্ডের সদস্য নাঈম হাসান বাবলু জানান, মাগুরার মহম্মদপুরের বাশো গ্রামের হাবি মোল্যার মেয়ে রুমির সঙ্গে ফরিদপুর জেলার কোমরপুর গ্রামের দলিল উদ্দিন মোল্যার ছেলে সাবু মোল্যার বিয়ে ঠিক হয়। যার মধ্যস্থতাকারী ঘটক ছিলেন শাহিদুল ইসলাম। রুমি ও সাবুর মধ্যে আগে থেকে সম্পর্ক আছে এবং তারা নোটারি পাবলিকের মাধ্যমে বিয়ে করেছেন এমন কাগজপত্র দেখিয়ে মেয়েপক্ষকে বিয়েতে রাজি করান শহিদুল। এমনকি বিয়ের জন্য মেয়েপক্ষ ঘটকের কথা মত ছেলেকে কিছু টাকাও অগ্রিম দেন। কিন্তু শুক্রবার বিয়ের নির্ধারিত দিনে ছেলের পরিবারের লোকজন এ বিয়েতে রাজি নয় মর্মে জানিয়ে দেন। এ খবর জানার পর মেয়েপক্ষ ঘটককে নানাভাবে কটূক্তি করেন। এছাড়া বিষয়টি নিয়ে ঘটকের নিজের বাড়ির লোকজনও তাকে গালমন্দ করেন। এতে ক্ষুব্ধ হয়ে শুক্রবার সকালে নিজ বাড়ির পাশে একটি আম গাছে গলায় গামছা পেঁচিয়ে আত্মহত্যা করেন শহিদুল।

মহম্মদপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) তারক বিশ্বাস জানান, পুলিশ মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য হাসপাতাল মর্গে পাঠিয়েছে। আত্মহত্যার কারণ জানার চেষ্টা করছে পুলিশ। 

বাংলাদেশ সময়: ২০১৯ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ২৭, ২০১৯
আরএ

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   মাগুরা
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-09-27 20:22:31