bangla news

সন্তানের খোঁজে হাসপাতালে নবজাতক ফেলে যাওয়া সেই মা 

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৯-২২ ১:৫৮:৪৪ পিএম
ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নাহার। ছবি: বাংলানিউজ

ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নাহার। ছবি: বাংলানিউজ

ঢাকা: স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে দ্বন্দ্ব, সেখান থেকে কথা কাটাকাটি, সেই জেরেই এক পর্যায়ে নাড়ি ছেঁড়া ধন সন্তানকে হাসপাতালে রেখেই পালিয়ে যান মা।

মমতাময়ী মা বলে কথা! স্বামীর সঙ্গে রাগে-ক্ষোভে যে সন্তানকে ফেলে গিয়েছিলেন হাসপাতালের বেডে, এবার সেই নাড়ি ছেঁড়া ধনের খোঁজেই ফের এলেন হাসপাতালে। 
 
রোববার (২২ সেপ্টেম্বর) দুপুরে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে আসেন নাহার নামে ওই নারী। 

নাহার বলেন, আমার দ্বিতীয় স্বামীর নাম রাসেল। ফেলে যাওয়া নবজাতকটি তার সন্তান। আমি যখন চার মাসের অন্তঃসত্ত্বা তখন রাসেলের সঙ্গে আমার সম্পর্ক ছিন্ন হয়ে যায়। পরে পুনরায় আগের স্বামী আজাদের কাছে ফিরে যাই। আজাদও আমাকে স্বাচ্ছন্দে গ্রহণ করেন। কিন্তু এ সন্তান ভূমিষ্ঠ হওয়ার পর আজাদের সঙ্গে আমার এ বিষয়ে ঝগড়া হয়। কারণ ছিল এটা রাসেলের সন্তান।

শাহবাগ থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) শফিউল আলম বাংলানিউজকে বলেন, ঢামেক হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের কাছ থেকে খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে আসি। আসল ঘটনা কি ওই নারীর কাছ থেকে শোনা হচ্ছে।

এর আগে গত ১৩ সেপ্টেম্বর (শুক্রবার) ভোর সাড়ে ৫টার দিকে হাসপাতালে সন্তান ভূমিষ্ঠ হওয়ার পর ফেলে যান নাহার। পরে এই শিশুটির পরিচর্যা করেন হাসপাতালের নার্স ও স্টাফরা। শিশুটির নাম রাখা হয়– সারা। 

হাসপাতাল সূত্রে জানা যায়, সিজারের মাধ্যমে ভূমিষ্ঠ হয় এই মেয়ে নবজাতকটি। নথিতে দেখা যায়, নবজাতকটির মায়ের নাম নাহার ও বাবার নাম রাসেল। ঠিকানায় দেখা যায়, রাজধানীর মিরপুর-১ নম্বর এলাকা।

** ঢামেক হাসপাতালে ফেলে যাওয়া নবজাতকের নাম ‘সারা’  
** 
ঢামেকে ভূমিষ্ঠ নবজাতকের মা-বাবাকে খুঁজছে কর্তৃপক্ষ​

বাংলাদেশ সময়: ১৩৪৫ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ২২, ২০১৯
এজেডএস/আরবি/

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-09-22 13:58:44