bangla news

হত্যায় অভিযুক্ত আ’লীগ নেতার বিরুদ্ধে তদন্ত কমিটি

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৮-৩১ ৫:০৩:৫০ এএম
হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় অভিযুক্ত মোশারফ হোসেন মুর্শেদ।

হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় অভিযুক্ত মোশারফ হোসেন মুর্শেদ।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া: অবশেষে ব্রাহ্মণবাড়িয়ার কসবা উপজেলার মেহারী ইউনিয়ন পরিষদের সদস্য শওকত হোসেন জসিম হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় অভিযুক্ত ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি মোশারফ হোসেন মুর্শেদের বিরুদ্ধে তদন্তে কমিটি গঠন করে দিয়েছেন আইনমন্ত্রী ও ব্রাহ্মণবাড়িয়া-৪ (কসবা ও আখাউড়া) আসনের সংসদ সদস্য আনিসুল হক।

মেহারী ইউনিয়নের বিভিন্ন ওয়ার্ড আওয়ামী লীগ নেতাদের লিখিত অভিযোগের প্রেক্ষিতে শুক্রবার (৩০ আগস্ট) দুপুরে কসবা উপজেলা আওয়ামী লীগের বর্ধিত সভায় উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান আনিসুল হক ভূঁইয়াকে প্রধান করে পাঁচ সদস্যের একটি তদন্ত কমিটি গঠন করেন মন্ত্রী।

কসবা উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম আহ্বায়ক ও তদন্ত কমিটির সদস্য জি.এম হাক্কানী বাংলানিউজকে জানান, বর্ধিত সভায় ইউপি সদস্য জসিম হত্যা মামলার আসামি মুর্শেদের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগের প্রেক্ষিতে মন্ত্রী মহোদয় তদন্ত কমিটি গঠন করে দিয়েছেন। তদন্ত কমিটি আগামী বর্ধিত সভার আগে এ বিষয়ে প্রতিবেদন দেবে।

প্রসঙ্গত, গত ৫ জুলাই দুপুরে ইউপি সদস্য শওকত হোসেন জসিমকে কে বা কারা বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে যায়। ওইদিন রাতে মেহারী ইউনিয়নের যমুনা গ্রামের যমুনা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের একটি কক্ষ থেকে জসিমকে রক্তাক্ত অবস্থায় উদ্ধার করা হয়। পরে তাকে আশঙ্কাজনক অবস্থায় প্রথমে কসবা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স ও পরবর্তীতে কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পর সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রাত আড়াইটার দিকে মারা যান জসিম।

মৃত্যুর আগে জসিম মেহারী ইউনিয়র আওয়ামী লীগের সভাপতি মোশারফ হোসেন মুর্শেদসহ কয়েকজনের নাম বলে যান। জসিমের সেই জবানবন্দিমূলক একটি ভিডিওচিত্র ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়ে। এ ঘটনায় কসবা থানায় নিহত জসিমের ছোট ভাই মো. আলাউদ্দিনের দায়ের করা হত্যা মামলার ২ নম্বর আসামি মোশারফ হোসেন মুর্শেদ। তবে মামলা দায়েরের পর থেকেই মুর্শেদ পালিয়ে আছেন। এখনও পর্যন্ত পুলিশ মুর্শেদসহ মামলার মূল আসামিদের গ্রেফতার করতে না পারায় আলোচিত এ হত্যাকাণ্ডের সুষ্ঠু বিচার পাওয়া নিয়ে শঙ্কিত নিহত জসিমের পরিবার।

বাংলাদেশ সময়: ০৫০৩, আগস্ট ৩১, ২০১৯
এমএমইউ

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   হত্যা ব্রাহ্মণবাড়িয়া
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
db 2019-08-31 05:03:50