ঢাকা, মঙ্গলবার, ৪ ভাদ্র ১৪২৬, ২০ আগস্ট ২০১৯
bangla news

সিরাজগঞ্জে ছেলেধরা সন্দেহে যুবককে গণপিটুনি

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৭-২৩ ১২:২৫:৩৫ পিএম
হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আহত আলম। ছবি: বাংলানিউজ

হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আহত আলম। ছবি: বাংলানিউজ

সিরাজগঞ্জ: সিরাজগঞ্জে ছেলেধরা সন্দেহে আলম (৩৫) নামে এক যুবককে গণপিটুনি দিয়ে পুলিশের কাছে সোপর্দ করেছে স্থানীয়রা। 

মঙ্গলবার (২৩ জুলাই) ভোরে জেলা সদর উপজেলার পাইকপাড়া দারুল কোরআন কওমী মাদ্রাসা এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।  আলম পৌর এলাকার গয়লা বটতলা এলাকায় আব্দুর রহিমের ছেলে। 

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, ভোরে আলম নামে ওই যুবক মাদ্রাসার জানালা দিয়ে ঢোকার চেষ্টা করছিলেন। এসময় শিক্ষার্থীরা তাকে দেখে ভয়ে চিৎকার করতে থাকে। চিৎকারে গ্রামবাসী ও সব ছাত্ররা ওই যুবককে আটক করে গণপিটুনি দেয়। খবর পেয়ে পুলিশ আহতাবস্থায় আলমকে উদ্ধার করে সিরাজগঞ্জ ২৫০-শয্যা বঙ্গমাতা শেখ ফজিলাতুন্নেছা মুজিব জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করে। এ ঘটনায় পুলিশ জিজ্ঞাসাবাদের জন্য ওই মাদ্রাসার অধ্যক্ষ হাফিজুর রহমান, পাইকপাড়া গ্রামের মো. আয়নাল, মোকলেছুর রহমান ও আব্দুল আওয়াল নামে চারজনকে আটক করে থানায় নিয়ে গেছে। 

সদর থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) এম হাসান মাহমুদ জুয়েল বাংলানিউজকে জানান, ছেলেধরা সন্দেহে গণপিটুনিতে আহত আলম আসলে একজন ছিঁচকে চোর ও মাদকাসক্ত। 

বাংলাদেশ সময়: ১২২৫ ঘণ্টা, জুলাই ২৩, ২০১৯
এসআরএস

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   সিরাজগঞ্জ
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-07-23 12:25:35