ঢাকা, শনিবার, ৫ শ্রাবণ ১৪২৬, ২০ জুলাই ২০১৯
bangla news

রাজশাহীর সঙ্গে ট্রেন চলাচল শুরু, শিডিউলে বিপর্যয়

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৭-১২ ১২:০১:৪৫ এএম
পশ্চিমাঞ্চল রেলে শিডিউল বিপর্যয়। ছবি: বাংলানিউজ

পশ্চিমাঞ্চল রেলে শিডিউল বিপর্যয়। ছবি: বাংলানিউজ

রাজশাহী: রাজশাহীর চারঘাট উপজেলার হলিদাগাছিতে লাইনচ্যুত হওয়ার ২৮ ঘণ্টা পর ফার্নেস অয়েলবাহী আটটি ট্যাংকার ওয়াগন তুলতে সক্ষম হয়েছে উদ্ধারকারী রিলিফ ট্রেন। 

বৃহস্পতিবার (১১ জুলাই) রাত পৌনে ১০টায় ওয়াগনগুলো রেল লাইনে ওঠানোর কাজ শেষ হয়। তবে এ ঘটনায় চরম শিডিউল বিপর্যয়ের মুখে পড়েছে পশ্চিমাঞ্চল রেলওয়ে। 

পশ্চিমাঞ্চল রেলওয়ের মহাব্যবস্থাপক খোন্দকার শহীদুল ইসলাম জানান, বুধবার (১০ জুলাই) রাত থেকে বৈরী আবহাওয়ার কারণে তেলভর্তি ট্যাংকার ওয়াগনগুলোকে লাইনে তুলতে ২৮ ঘণ্টা সময় লেগে গেছে। তবে ওয়াগনগুলো লাইনে তোলার এক ঘণ্টার মধ্যেই ঢাকাসহ সারাদেশের সঙ্গে পশ্চিম রেলওয়ের ট্রেন যোগাযোগ স্থাপন সম্ভব হয়েছে। খুলনা থেকে রাজশাহীর হরিয়ানের উদ্দেশে ছেড়ে আসা তেলবাহী ট্যাংকার ওয়াগন লাইনচ্যুতির ঘটনায় রেলওয়ের পরিষেবা বন্ধ হয়ে পড়ে। 

এর আগে দুর্ঘটনার কারণ সম্পর্কে কথা বলতে গিয়ে পশ্চিমাঞ্চল রেলওয়ের মহাব্যবস্থাপক খোন্দকার শহীদুল ইসলাম বলেন, এখনও কারণ সুনির্দিষ্ট হয়নি। এজন্য তদন্ত কমিটি কাজ করছে। তবে যে এলাকায় ট্রেনটি লাইনচ্যুত হয়েছিল সেখানকার রেললাইন সংস্কারের কাজ চলছিল। 

‘পুরোনো স্লিপার পরিবর্তন করে নতুন স্লিপার বসানো হচ্ছিলো। নতুনভাবে দেওয়া হচ্ছিলো পাথরও। কিন্তু যারা সংস্কার কাজ করেছেন তারা স্লিপারের সঙ্গে লাইন আটকানো কয়েকটি পিন (ডগস্পাইক) খুলে রেখেছিলেন। পাথর ফেলার কারণে সেটি ঢেকে যায়। এ কারণে সেটি কারও চোখে পড়েনি।’ 

সংস্কার কাজে নিয়োজিত রেলওয়ের সহকারী নির্বাহী প্রকৌশলী আবদুর রশিদও তা খেয়াল করেননি। ফলে ওই পথ দিয়ে ট্রেন যাওয়ার পথে বৃহস্পতিবার তেলবাহী ওই ট্রেনটির আটটি ট্যাংকার ওয়াগন লাইনচ্যুত হয়। তাই প্রকৌশলী আবদুর রশিদকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে।

পশ্চিমাঞ্চল রেলওয়ের সুপারিন্টেনডেন্ট আবদুল করিম বলেন, রাতে চারঘাটের হলিদাগাছিতে লাইনচ্যুত ওয়াগনগুলোর উদ্ধার কাজ শেষ হয়েছে। তবে এর কারণে রাজশাহী থেকে আজ সকালের আন্তঃনগর ট্রেন বনলতা, সাগরদাঁড়ি, সিল্কসিটি, কপোতাক্ষ ও বরেন্দ্র এক্সপ্রেস ট্রেনের যাত্রা বাতিল করা হয়েছে। 

‘টিকিট ফেরত নিয়ে যাত্রীদের টাকা ফেরত দিয়ে দেওয়া হয়েছে। গতকাল বুধবার রাত থেকে বৃহস্পতিবার সকাল পর্যন্ত তারা মোট টিকিট বাবদ ২৬ লাখ টাকা ফেরত দিয়েছেন।’

এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, রেলপথ সচল হলেও এখন রাজশাহী থেকে ট্রেন চলাচল স্বাভাবিক হয়নি। ঢাকা-রাজশাহী রুটে চলাচলকারী বৃহস্পতিবার বেলা ৩টা ২০মিনিটের  আন্তঃনগর ট্রেন পদ্মা এক্সপ্রেস রাত পৌনে ১১টার পর চারঘাটের হলিদাগাছির ওই দুর্ঘটনাস্থল ক্রস করে। ট্রেনটি রাত সোয়া ১১টার পর রাজশাহী রেলওয়ে স্টেশনে এসে পৌঁছায়। এই ট্রেনটি রাত সোয়া ১২টায় আবারও রাজশাহী থেকে ঢাকার উদ্দেশে ছেড়ে যাবে। আর রাত ১১টা ২০মিনিটের আন্তঃনগর ট্রেন ধূমকেতু এক্সপ্রেস বৃহস্পতিবার দিনগত রাত সোয়া ৩টায় রাজশাহী ছেড়ে যাবে।

চরম শিডিউল বিপর্যয়ের কারণে যাত্রীদের যারপরনাই দুর্ভোগের জন্য এ সময় গভীর  দুঃখ প্রকাশ করেন পশ্চিম রেলওয়ের এই কর্মকর্তা। 

এর আগে বুধবার সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে রাজশাহীর চারঘাট হলিদাগাছির দিঘলকান্দি ঢালানের কাছে তেলবাহী ট্রেনের আটটি ট্যাংকার ওয়াগন লাইনচ্যুত হয়। তবে এতে কোনো হতাহতের ঘটনা ঘটেনি। 

তেলবাহী ওই ট্রেনটি খুলনা থেকে রাজশাহীর হরিয়ানের উদ্দেশে আসছিল। ট্রেনটি ঈশ্বরদী হয়ে রাজশাহী অভিমুখে যাচ্ছিল। পথে চারঘাটের হলিদাগাছিতে লাইনচ্যুত হয়। 

ট্রেনটির মাঝখান থেকে ওয়াগনগুলো লাইনচ্যুত হয়। তাই পরে আটটি ওয়াগন রেখে সামনের অন্য ওয়াগনগুলো নিয়ে তেলবাহী ওই ট্রেনটি গত রাতেই রাজশাহীর হরিয়ান রেলওয়ে স্টেশনে পৌঁছায়। এর পর বুধবার রাত পৌনে ১০টার দিকে ইশ্বরদী থেকে রিলিফ ট্রেন সেখানে পৌঁছে। তবে বৃষ্টির কারণে উদ্ধার কাজ শুরু করতে বিলম্ব হয়।

ঘটনার পর পশ্চিমাঞ্চল রেলওয়ের প্রকৌশল বিভাগের সহকারী নির্বাহী প্রকৌশলী আব্দুর রশিদকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়। এছাড়া ঘটনা তদন্তে বিভাগীয় ট্রান্সপোর্ট অফিসার আব্দুল্লাহ আল মামুনকে প্রধান করে পাঁচ সদস্যের একটি তদন্ত কমিটি গঠন করেছে পশ্চিমাঞ্চল রেলওয়ে কর্তৃপক্ষ। এই কমিটিকে ৭২ ঘণ্টার মধ্যে তদন্ত প্রতিবেদন দাখিলের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

বাংলাদেশ সময়: ২৩৩০ ঘণ্টা, জুলাই ১১, ২০১৯
এসএস/এমএ

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   রাজশাহী
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-07-12 00:01:45