bangla news

শতবর্ষী বৃদ্ধা ধর্ষণ, ধর্ষক কিশোরের স্বীকারোক্তি 

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৫-২৩ ৯:৫১:০৭ পিএম
গ্রেফতারের পর কিশোর সোহেল/ফাইল ছবি

গ্রেফতারের পর কিশোর সোহেল/ফাইল ছবি

টাঙ্গাইল: টাঙ্গাইলের মধুপুরে শত বছরের এক বৃদ্ধাকে ধর্ষণের অভিযোগ স্বীকার করেছে গ্রেফতার কিশোর সোহেল (১৫)। এদিকে ধর্ষণের শিকার ওই বৃদ্ধার ডাক্তারি পরীক্ষার পর তিনিও বৃহস্পতিবার (২৩ মে) আদালতে জবানবন্দি দিয়েছেন।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, সোমবার (২০ মে) দুপুরে উপজেলার ফুলবাগচালা ইউনিয়নের আঙ্গারিয়া গ্রামের বাড়িতে ওই বৃদ্ধাকে একা পেয়ে সোহেল নামে এক কিশোর ধর্ষণ করে। সোহেল ওই গ্রামের তোতা খাঁ’র ছেলে। পরে ওই বৃদ্ধার ছেলে বাড়ি ফিরলে তিনি ছেলের কাছে ঘটনা বলেন।

বৃদ্ধার ছেলে জানান, প্রথমে লোকলজ্জার ভয়ে তিনি বিষয়টি নিয়ে মামলা-মোকদ্দমা না করে ওই কিশোরের বাবা-মায়ের কাছে বিচার দেন। এ ঘটনা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রচারিত হওয়ার পর মধুপুর থানার পুলিশ খোঁজ খবর নেওয়ার জন্য বুধবার বৃদ্ধার বাড়িতে যায়। এদিকে পুলিশ যাওয়ার পর ওই কিশোর আত্মগোপন করে। পরে বুধবার রাতে ওই বৃদ্ধার ছেলে বাদী হয়ে মধুপুর থানায় মামলা দায়ের করেন। পুলিশ রাতেই অভিযান চালিয়ে ধর্ষক সোহেলকে গ্রেফতার করে।

মধুপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) তারিক কামাল বাংলানিউজকে জানান, বৃহস্পতিবার সকালে ওই বৃদ্ধাকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়। সেখানে ডাক্তারি পরীক্ষা শেষে তার জবানবন্দি লিপিবদ্ধ করার জন্য টাঙ্গাইল বিচারিক হাকিম আদালতে নেওয়া হয়। জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম নওরিন মাহবুব বৃদ্ধার জবানবন্দি লিপিবদ্ধ করেন।

এদিকে গ্রেফতার হওয়া সোহেল প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে ধর্ষণের কথা পুলিশের কাছে স্বীকার করেছে। তাকেও দুপুরে টাঙ্গাইল বিচারিক হাকিম আদালতে হাজির করা হয়। পরে সে ধর্ষণের সঙ্গে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করে জবানবন্দি দেয়। জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম সুমন কুমার কর্মকার তার জবানবন্দি লিপিবদ্ধ করেন।

বাংলাদেশ সময়: ২১৪৬ ঘণ্টা, মে ২৩, ২০১৯
এসএইচ

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   ধর্ষণ টাঙ্গাইল
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-05-23 21:51:07