bangla news

সারাদেশে ১৫ প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে বিএসটিআই’র মামলা

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৫-১৪ ২:৫৮:৫৯ এএম
বিএসটিআই লোগো

বিএসটিআই লোগো

ঢাকা: লাইসেন্স ও ওজন যন্ত্রের ভেরিফিকেশন গ্রহণ না করা এবং পরিমাপে কারচুপির অপরাধে সারাদেশে ১৫টি প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে মামলা করেছে জাতীয় মান নিয়ন্ত্রণকারী প্রতিষ্ঠান বাংলাদেশ স্ট্যান্ডার্ডস অ্যান্ড টেস্টিং ইন্সটিটিউশন (বিএসটিআই)। 

সোমবার (১৩ মে) রাজধানীসহ দেশের বিভিন্নস্থানে অভিযান চালিয়ে এসব মামলা করা হয়।

বিএসটিআই’র লাইসেন্স ব্যতীত পণ্য বিক্রি করায় রাজধানীর ভাটার এলাকার আল মদিনা বেকারি, পণ্যের মোড়কে ওজন, মূল্য, উৎপাদন ও মেয়াদোত্তীর্ণের তারিখ, পণ্যের পরিচিতি উল্লেখ না করায় ধানমণ্ডিতে মেসার্স ইয়ামি ইয়ামি, মেসার্স আগোরা সুপার স্টোর এবং মেসার্স ইউনিমার্স লিমিটেডের বিরুদ্ধে চারটি মামলা দায়ের করা হয়।

এছাড়া রাজধানীতে অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে খাদ্যদ্রব্য পরিবেশন করার অপরাধে ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইনে বনানী এলাকার আহীলি কাবা অ্যান্ড রেস্টুরেন্টকে ১০ হাজার, শালিমার গার্ডেন রোজকে ২০ হাজার এবং গুলশান এলাকার ধানসিঁড়ি রেস্টুরেন্টকে ২ লাখ টাকা জরিমানা করা হয়। 

এদিকে, বিএসটিআই’র লাইসেন্স গ্রহণ না করে পণ্য বিক্রির অপরাধে নীলফামারীর সৈয়দপুরের নিচা বাজার এলাকার মেসার্স শাহীন লাচ্চা সেমাই, দিনাজপুরের ফুলবাড়ি এলাকার মেসার্স জলসা অ্যাগ্রো ফুড ইন্ডাস্ট্রিজ এবং মেসার্স সান বেকারির বিরুদ্ধে মামলা করা হয়। 

অপরদিকে, সিলেটের সিটি সুপার মার্কেটের সান এন্টারপ্রাইজ লেবেলবিহীন পণ্য এবং বিএসটিআই সনদ গ্রহণ না করায় ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ আইনে ১ লাখ ৩০ হাজার টাকা জরিমানা এবং বিসিক শিল্প নগরীর মধুপুর ফুড প্রোডাক্টসের বিরুদ্ধে ওজন যন্ত্রের ভেরিফিকেশন সনদ না থাকায় মামলা করা হয়। 

বিএসটিআই থেকে ভেরিফিকেশন সনদ গ্রহণ ব্যতীত ওজনযন্ত্র ব্যবহার করায় কুমিল্লার কোটবাড়ি আদর্শ রোড এলাকার মুরগি ও মুদি দোকানের বিরুদ্ধে ছয়টি মামলা করা হয়। 

এছাড়া রাজশাহীর সাহেব বাজার এলাকায় অস্বাস্থ্যকর পরিবেশে খাদ্যদ্রব্য পরিবেশন করায় মেসার্স নবরুপ মিষ্টান্ন ভাণ্ডারকে ২ হাজার, শিবগঞ্জ সুইটসকে ১০ হাজার, জসীমের মুরগির দোকানকে ৫ হাজার, সবুরের মাছের দোকানকে ২ হাজার ৫০০ টাকা এবং ইলিয়াসের মুরগির দোকানকে ২ হাজার ৫০০ টাকা জরিমানা করা হয়।

বাংলাদেশ সময়: ০২৫২ ঘণ্টা, মে ১৪, ২০১৯
এসএমএকে/এনটি

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-05-14 02:58:59