ঢাকা, রবিবার, ৮ বৈশাখ ১৪২৬, ২১ এপ্রিল ২০১৯
bangla news

বরিশালে সড়ক দুর্ঘটনায় মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৭

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৩-২২ ৮:১৩:০৮ পিএম
শেবাচিম হাসপাতাল মর্গে নিহতের নিথর দেহ। ছবি: বাংলানিউজ

শেবাচিম হাসপাতাল মর্গে নিহতের নিথর দেহ। ছবি: বাংলানিউজ

ব‌রিশাল: বরিশাল-বানারীপাড়া সড়কের গরিয়ারপাড়ের তেঁতুলতলায় সড়ক দুর্ঘটনায় নিহতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে সাতজনে।

শুক্রবার (২২ মার্চ) গুরুতর আহত অবস্থায় সাত বছরের শিশু সন্তান তাঈমকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকা নেওয়ার পথে বিকেলে তার মৃত্যু হয়।

এর আগে দুপুর ১টার দিকে বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যায় একই সড়ক দুর্ঘটনায় গুরুতর আহত তাইয়ুমের মা পারভীন (৩৫)।হাসপাতালে স্বজন হরানোর আহজারী। ছবি: বাংলানিউজশিশু তাঈম বাবুগঞ্জের মাধবপাশা এলাকার মোখলেস হাওলাদারের ছেলে বলে জানিয়েছেন বরিশাল মেট্রোপলিটন এয়ারপোর্ট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুর রহমান মুকুল।

সকালে বরিশাল-বানারীপাড়া সড়কের গরিয়ারপাড়ের তেঁতুলতলায় যাত্রীবাহী একটি মাহিন্দ্রাকে(থ্রি-হুইলার আলফা) বিপরীতমুখী একটি বাস ধাক্কা দেয়। এতে দুর্ঘটনা ঘটনাস্থলে একজন ও হাসপাতালে নেওয়ার পরে আরো পাঁচজনের মৃত্যু হয়। এছাড়া হাসপাতালে আহত পাঁচজনকে ভর্তি করা হয়। এদের মধ্যে দুপুরে শিশু তাঈমসহ তিনজনকে উন্নত চিকিৎসার জন্য ঢাকার পাঠানো হয়।

নিহতেরা হলেন-ঝালকাঠি সদরের বাসিন্দা সুশান্ত হালদারের মেয়ে ও বরিশাল সরকারি ব্রজমোহন কলেজের (বিএম) মাস্টার্সের গণিত প্রথম বর্ষের ছাত্রী শীলা হালদার(২৪), বাকেরগঞ্জের ইউনুস সিকদারের ছেলে ও নগরীর নথুল্লাবাদ এলাকার বাসিন্দা রংমিস্ত্রি মানিক সিকদার (৪০), নগরীর ২৯ নম্বর ওয়ার্ডস্থ কাশিপুর এলাকার ইছাহাক আলীর ছেলে অটোরিকশাচালক খোকন হাওলাদার (৩৫), বরিশালের কাশিপুরের গণপাড়া এলাকার ইদ্রিস খানের ছেলে দুর্ঘটনা কবলিত মাহিন্দ্রাচালক সোহেল খান (২৫), বাবুগঞ্জ উপজেলার মাধবপাশার সাগরপার এলাকার মোখলেস হাওলাদারের স্ত্রী পারভীন(৩৫) ও পিরোজপুর সদরের শাখায়েত সরদারের স্ত্রী মেহেরুন্নেছা (৫০)।হাসপাতালে স্বজন হরানোর আহজারী। ছবি: বাংলানিউজহতাহতদের উদ্ধারকারী ফায়ার সার্ভিস অ্যান্ড সিভিল ডিফেন্সের স্টেশন অফিসার ইউনুস আলী জানান, মাহিন্দ্রাটি যাত্রী নিয়ে বানারীপাড়া থেকে বরিশালের উদ্দেশে যাচ্ছিলো। পথিমধ্যে গরিয়ারপাড় এলাকাধীন তেঁতুলতলা এলাকায় বানারীপাড়াগামী ‘দুর্জয় পরিবহন’নামের যাত্রীবাহী একটি বাস মাহিন্দ্রাকে ধাক্কা দেয়। এতে মাহিন্দ্রাটি দুমড়ে-মুচড়ে রাস্তার পাশে পড়ে গেলে ঘটনাস্থলেই কলেজছাত্রী শীলার মৃত্যু হয়।

বরিশাল মেট্রোপলিটন এয়ারপোর্ট থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুর রহমান মুকুল দুর্ঘটনায় সাতজনের নিহতের বিষয়টি নিশ্চিত করে বাংলানিউজকে জানান, বাসচালককে আটক করা যায়নি। দুর্ঘটনাকবলিত বাস ও মাহিন্দ্রা পুলিশের হেফাজতে রয়েছে।

এদিকে হতাহতদের খোঁজখবর নিতে বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশের কমিশনার মোশারফ হোসেন, জেলা প্রশাসক এসএম অজিয়র রহমানসহ প্রশাসনের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা শেবাচিম হাসপাতালে যান। এসময় জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে আহতদের চিকিৎসার জন্য ১০ হাজার টাকা করে ও নিহতদের প্রত্যেক পরিবারকে ২০ হাজার টাকা করে আর্থিক সহায়তা দেওয়া হয়।

বাংলা‌দেশ সময়: ১৮৫০ ঘণ্টা, মার্চ ২২, ২০১৯
এমএস/এএটি

***বরিশালে মাহিন্দ্রাকে বাসের ধাক্কা, নিহত ৬

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   বরিশাল সড়ক দুর্ঘটনা
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14