[x]
[x]
ঢাকা, শুক্রবার, ২ অগ্রহায়ণ ১৪২৫, ১৬ নভেম্বর ২০১৮
bangla news

রোগীমৃত্যু: মেহেরপুরের তাহের ক্লিনিক ভাঙচুর

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৮-০৯-১২ ১০:১৬:১৩ পিএম
ম্যাপ

ম্যাপ

মেহেরপুর: মেহেরপুর শহরের তাহের ক্লিনিকে পায়ের অস্ত্রপচার করাতে গিয়ে প্রাণ হারিয়েছেন আব্দুল খালেক (৪৫) নামে এক রোগী। এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে উত্তেজিত স্বজনরা ক্লিনিকে ভাঙচুর চালিয়েছেন। 

বুধবার (১২ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যার দিকে এ ঘটনা ঘটে। আব্দুল খালেক সদর উপজেলার গোভীপুর গ্রামের মৃত হারান মণ্ডলের ছেলে। 

রোগীর স্বজনরা জানান, দুপুরে মাঠে কাজ করার সময় ধারালো অস্ত্রে কৃষক আব্দুল খালেকের পায়ের রগ কেটে যায়। এ অবস্থায় প্রথমে তাকে মেহেরপুর জেনারেল হাসপাতালের জরুরি বিভাগে নিলে তাকে প্রাথমিক চিকিৎসা দেওয়া হয়। তার পায়ে অস্ত্রপচার করতে হবে এবং তা মেহেরপুর জেনারেল হাসপাতালে করা সম্ভব নয় জানিয়ে তাকে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল বা কুষ্টিয়া মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নেওয়ার পরামর্শ দেন চিকিৎসকরা। কিন্তু আশপাশের কিছু দালালের মাধ্যমে পরে তাকে তাহের ক্লিনিকে ভর্তি করা হয়। সেখানে আট হাজার টাকায় অস্ত্রপচারের চুক্তি হয়। দুপুর ২টার দিকে ক্লিনিকের মালিক ডা. আবু তাহের সিদ্দিকী নিজে আব্দুল খালেককে অ্যানেসথেশিয়ার ইঞ্জেকশন দিয়ে তার অস্ত্রপচার শেষ করেন। পরে বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে রোগীকে মৃত ঘোষণা করেন চিকিৎসক। চিকিৎসকের কোনো ভুলের কারণেই তার মৃত্যু হয়েছে।

এদিকে, তার মৃত্যুর পর রোগীর স্বজনরা উত্তেজিত হয়ে ক্লিনিকের বেশ কয়েকটি কক্ষ ভাঙচুর করেন। খবর পেয়ে পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে। 

ঘটনার পর অভিযুক্ত চিকিৎসকের সঙ্গে যোগাযোগ করা সম্ভব হয়নি। তবে, এর আগেও তার ক্লিনিকে ভুল চিকিৎসায় রোগীমৃত্যুর অভিযোগ উঠেছে। 

মেহেরপুর সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) রবিউল আলম বলেন, বর্তমানে পরিস্থিতি পুলিশের নিয়ন্ত্রণে রয়েছে। ফের অপ্রীতিকর পরিস্থিতি এড়াতে ক্লিনিকে পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। নিহতের পরিবারের পক্ষ থেকে অভিযোগ করা হলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে। 

বাংলাদেশ সময়: ২২১৩ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ১২, ২০১৮
এসআই

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
db