[x]
[x]
ঢাকা, শুক্রবার, ৪ কার্তিক ১৪২৫, ১৯ অক্টোবর ২০১৮
bangla news

বড়পুকুরিয়া খনি কর্মকর্তা-কর্মচারীরা ৪ দিন ধরে অবরুদ্ধ

উপজেলা করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৮-০৫-১৬ ৫:১৫:৪৯ পিএম
শ্রমিকদের অবস্থান ও বিক্ষোভ

শ্রমিকদের অবস্থান ও বিক্ষোভ

পার্বতীপুর(দিনাজপুর): দিনাজপুরের পার্বতীপুরে বড়পুকুরিয়া কয়লা খনি শ্রমিকদের ডাকা অনির্দিষ্টকালের ধর্মঘটের চতুর্থ দিন অতিবাহিত হয়েছে বুধবার (১৬ মে)।

শ্রমিকরা খনির ভিতরে কাউকে প্রবেশ ও বের হতে না দেওয়ায় সেখানে প্রায় দেড় শতাধিক কর্মকর্তা-কর্মচারী পরিবার-পরিজন নিয়ে ৪ দিন ধরে কার্যত অবরুদ্ধ হয়ে রয়েছেন।

বুধবার বিকেল থেকে রাত পর্যন্ত উদ্ভুত পরিস্থিতি নিরসনে পার্বতীপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) রেহানুল হক, সহকারী পুলিশ সুপার (ফুলবাড়ী সার্কেল) রফিকুল ইসলাম ধর্মঘট পালনকারী শ্রমিক ও ক্ষতিগ্রস্ত ২০ গ্রাম সমন্বয় কমিটির নেতাদের সঙ্গে দ্বিতীয় দফা বৈঠক করেছেন।

পার্বতীপুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) রেহানুল হক বাংলানিউজকে জানান-  পেট্রোবাংলার চেয়ারম্যানের সঙ্গে ২১ মে আলোচনায় বসতে শ্রমিকরা যেহেতু রাজি হয়েছেন সেহেতু, খনি গেটের সামনের রাস্তা থেকে সরে গিয়ে রাস্তার দুইপাশে অবস্থান নিতে শ্রমিকদের বলা হয়। তবে শ্রমিকরা এতে রাজি হননি।

বড়পুকুরিয়া কয়লা খনির ব্যবস্থাপনা পরিচালক (এমডি) প্রকৌশলী হাবিব উদ্দিন আহমদ বাংলানিউজকে জানান- পেট্রোবাংলার চেয়ারম্যান দেশের বাইরে রয়েছেন। তিনি আগামী ২০ মে ফিরবেন এবং ২১ মে শ্রমিকদের সঙ্গে আলোচনায় বসবেন। বিষয়টি ১২ মে শ্রমিকদের জানানো হয়। স্থানীয় সংসদ সদস্য, প্রাথমিক ও গণশিক্ষামন্ত্রী মোস্তাফিজুর রহমানও শ্রমিকদের ২১ মে পর্যন্ত অপেক্ষা করতে বলেন। কিন্তু শ্রমিকরা কতিপয় স্বার্থান্বেষী মহলের যোগসাজশে কর্মসূচি প্রত্যাহার করেনি। উপরন্তু কর্মবিরতির কথা জানিয়ে চারদিন ধরে গেটে অবস্থান নিয়ে খনি অবরোধ করে রেখেছেন।

উল্লেখ্য, ১৩ দফা দাবিতে গত রোববার (১৩ মে) সকাল থেকে খনি গেটের সামনে অবস্থান নিয়ে খনি শ্রমিকরা অনির্দিষ্টকালের ধর্মঘট পালন করে আসছেন।

এছাড়া মঙ্গলবার (১৫ মে) সকাল ৯টার দিকে দিনাজপুর ও ফুলবাড়ীতে বসবাসকারী খনির কয়েকজন কর্মকর্তা খনিতে প্রবেশ করতে গেলে শ্রমিকরা বাধা দেয়। এতে উভয়পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষে খনির ৯ কর্মকর্তা, ৪ শ্রমিক, ১ পুলিশ সদস্যসহ ১৫ জন আহত হয়।

বাংলাদেশ সময়: ০৩১৩ ঘণ্টা, মে ১৭, ২০১৮
জেডএস

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
db