ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ০৯ ডিসেম্বর ২০২১, ০৪ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৩

জাতীয়

নাটোরে হত্যা মামলা রায়ে একজনের ফাঁসি

জেলা প্রতিনিধি | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৭০৪ ঘণ্টা, জুলাই ২৬, ২০১০

নাটোর: নাটোরের চাঞ্চল্যকর চাল ব্যবসায়ী জামাউল রব্বানী স্বাধীন হত্যা মামলায় একজনের ফাঁসি এবং দু’জনের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত।
 
সোমবার দুপুরে নাটোরের অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ দিলীপ কুমার দেবনাথ এ রায় ঘোষণা করেন।



মামলার রায়ে বলা হয়, ব্যবসার পাওনা এক লাখ পাঁচ হাজার টাকার কারণে সাজাপ্রাপ্ত আসামি সৈলেন্দ্র নাথ কালু, মীর মাহবুবুর রহমান রনিক ও শহিদুল ইসলাম ২০০১ সালের ২৩ সেপ্টেম্বর শহরের দণি বড়গাছা চালকলের ভিতরে স্বাধীনকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করে। পরে গর্ত করে লাশ পুতে রেখে মিলের মেঝে পাঁকা করে দেয়।

এদিকে স্বাধীনের পরিবারের তথ্যের ভিত্তিতে নাটোর থানা পুলিশ রনিকে আটক করে জিজ্ঞাসা করলে তিনি সব ঘটনার কথা স্বীকার করেন। গত এক অক্টোবর মিলের মেঝে গর্ত করে স্বাধীনের লাশ উদ্ধার করা হয়।

এ ব্যপারে নিহতের চাচা দণি বড়গাছার আব্দুস সালাম তালুকদার বাদী হয়ে নাটোর থানায় হত্যা মামলা করেন। পুলিশ তদন্ত শেষে ২০০২ সালের ৯ জুলাই আসামিদের বিরুদ্ধে  চার্জশিট দাখিল করে।

সোমবার মামলার রায়ে পলাতক আসামি সৈলেন্দ্র নাথ কালুকে মৃত্যুদণ্ড এবং মীর মাহবুবুর রহমান রনিক ও শহিদুলকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দেন আদালত। এছাড়া লাশ গোপন করার দায়ে প্রত্যেককে পাঁচ বছরের সশ্রম কারাদণ্ড ও ৫ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরো ছয় মাসের কারাদণ্ড দেওয়া হয়। মামলার অপর আসামি উজ্জলকে খালাস দেওয়া হয়েছে।

বাংলাদেশ সময়: ১৪২০ ঘণ্টা, জুলাই ২৬, ২০১০

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa