bangla news

বাংলাদেশ-ভারত সীমান্তে বেড়া নির্মাণ করেছে নয়াদিল্লি

| বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১০-১২-০১ ৮:৫৬:১৯ এএম

বাংলাদেশ-ভারত সীমান্তে চলতি বছরের নভেম্বরে ১৭ কিলোমিটার দীর্ঘ বেড়া ও ২০ কিলোমিটার রাস্তা নির্মাণকাজ সম্পন্ন করেছে নয়াদিল্লির সরকার। ভারতের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী পি চিদাম্বরম এ তথ্য জানান।

নয়াদিল্লি: বাংলাদেশ-ভারত সীমান্তে চলতি বছরের নভেম্বরে ১৭ কিলোমিটার দীর্ঘ বেড়া ও ২০ কিলোমিটার রাস্তা নির্মাণকাজ সম্পূর্ণ করেছে নয়াদিল্লির সরকার। ভারতের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী পি চিদাম্বরম এ তথ্য জানান।

প্রকল্পের দ্বিতীয় পর্যায়ের আওতায় কাজটি শেষ করা হয়েছে। তবে এরই মধ্যে তৃতীয় পর্যায়ে ২৫ কিলোমিটার বেড়া তৈরির কাজ শুরু হয়েছে।

এছাড়া সীমান্তের ৬০ কিলোমিটার এলাকায় বিদ্যুতের খুঁটি পোঁতা হয়েছে। বিদ্যুতের তার লাগানো হয়েছে ১৫ কিলোমিটার এলাকায়। ভারতের স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী এসব তথ্য জানান।

প্রতিবেশী বাংলাদেশ, পাকিস্তান ও মিয়ানমারের সীমান্তে বিদ্যুতের খুঁটি স্থাপন ও বেড়া নির্মাণের অংশ হিসেবে এ কাজ সম্পন্ন করেছে ভারত। ২০১২ সালের মধ্যে বাংলাদেশের সীমান্তে এই কাজ শেষ করার কথা রয়েছে ভারতের।

উল্লেখ্য, ভারতীয় সরকার বাংলাদেশের সঙ্গে সীমান্ত ইস্যুটি একটি সুষ্ঠু সমঝোতার দিকে নিয়ে যেতে চায়।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী এসএম কৃষ্ণার রাজ্যসভায় পাঠানো একটি চিঠি অনুযায়ী, বাংলাদেশের অভ্যন্তরে ভারতের ১১১টি ছিটমহল রয়েছে। ভারতের অভ্যন্তরে বাংলাদেশের ছিটমহল রয়েছে ৫১টি। তিনি আরও বলেন, ১৯৭৪ সালে প্রণীত ভূমি সীমান্ত চুক্তি অনুযায়ী বাংলাদেশ ও ভারত এই ছিটমহলগুলো বিনিময় করতে পারবে। এই লক্ষ্যে দুই দেশই যৌথ সীমান্ত কর্ম গ্রুপ (জেবিডব্লিউজি) প্রতিষ্ঠা করেছে। গত চার বছরে তারা চারবার বৈঠকে বসেছে।

চলতি বছরের জানুয়ারিতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ভারত সফরকালে দুই দেশই সীমান্ত ইস্যুটি নিয়ে আলোচনার জন্য সম্মত হয়।

বাংলাদেশ সময়: ১৯৪৭ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ০১, ২০১০

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2010-12-01 08:56:19