ঢাকা, রবিবার, ১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬, ২৬ মে ২০১৯
bangla news

দৈনিক পূর্বদেশ: নতুন চ্যালেঞ্জে যাত্রা শুরু বুধবার

| বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১২-১২-১০ ১:৩৬:২৪ এএম

হাজার বছরের প্রাচীন জনপদ চট্টগ্রামের শেকড়সংলগ্ন মানুষের মুখপত্র হিসেবে বুধবার নতুন চ্যালেঞ্জ নিয়ে যাত্রা শুরু করছে ‘দৈনিক পূর্বদেশ।’

চট্টগ্রাম: হাজার বছরের প্রাচীন জনপদ চট্টগ্রামের শেকড়সংলগ্ন মানুষের মুখপত্র হিসেবে বুধবার নতুন চ্যালেঞ্জ নিয়ে যাত্রা শুরু করছে ‘দৈনিক পূর্বদেশ।’

পূর্বদেশ কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, নিয়মিত খবরের পাশাপাশি গুরুত্ব পাবে অনুসন্ধানী প্রতিবেদন, ফলোআপ, খবরের ভেতরের খবর, ইতিহাস-ঐতিহ্য-সংস্কৃতি নির্ভর ফিচার, কার্টুন এবং পাঠক-প্রত্যাশা।

ইতিমধ্যে নানা পরীক্ষা-নিরীক্ষা শেষে দাঁড় করানো হয়েছে পূর্বদেশ’র কাঠামো। রেখা-লেখায় সমৃদ্ধ আর দৃষ্টিনন্দনভাবে পাঠকের কাছে উপস্থাপনার বিষয়টি চূড়ান্ত করা হয়েছে। নিরপেক্ষ-নির্ভুল সংবাদ পরিবেশন, ছবির ব্যবহার, বাংলা একাডেমীর প্রমিত বানানরীতি অনুসরণ ইত্যাদি বিষয়ে সর্বোচ্চ গুরুত্ব দিচ্ছে পূর্বদেশ।

স্মার্ট মিডিয়া লিমিটেডের সংবাদভিত্তিক ৮ পৃষ্ঠার ঝকঝকে দৈনিকটির দাম রাখা হবে মাত্র ৩ টাকা। বৃহস্পতিবার থাকবে ফিচার-বিনোদন নিয়ে ৪ পৃষ্ঠার বাড়তি আয়োজন। পর্যায়ক্রমে বাড়ানো হবে কলেবর।

দায়িত্বে আছেন প্রাজ্ঞজনেরা

দৈনিক পূর্বদেশ’র প্রধান সম্পাদকের দায়িত্ব নিয়েছেন বিশিষ্ট কলামলেখক ও প্রবীণ সাংবাদিক কামাল লোহানী। সম্পাদক ওসমান গণি মনসুর। ব্যবস্থাপনা সম্পাদক মুজিবুর রহমান সিআইপি। এ ছাড়া নির্বাহী সম্পাদক হিসেবে আছেন আবু সাঈদ জুবেরী, যুগ্ম সম্পাদক কবি আবু তাহের মুহাম্মদ ও চিফ রিপোর্টার মো. শামসুল ইসলাম। ‘পূর্বদেশ’ পরিবারে ইতিমধ্যে যুক্ত হয়েছেন একঝাঁক তরুণ, উদ্যমী সংবাদকর্মী।

তুন পাঠক সৃষ্টিই আমাদের লক্ষ্য: সম্পাদক

চট্টগ্রামের সংবাদপত্রগুলোর ইতিবাচক নানা ভূমিকার কথা তুলে ধরে ‘পূর্বদেশ’ সম্পাদক ওসমান গণি মনসুর বলেন, ‘চট্টগ্রামে সংবাদভিত্তিক পত্রিকার অভাব প্রকট। আমরা ব্যতিক্রমী কিছু করতে চাই, নতুন পাঠক সৃষ্টিই আমাদের লক্ষ্য। বর্তমান সময়ের পাঠকের প্রত্যাশা পূরণ করার জন্য আমরা প্রস্তুত। ‍শুধু ব্যবসা নয়, আমরা সামাজিক দায়বদ্ধতা থেকে কাজ করতে চাই।’

তিনি বলেন, ‘বাংলাদেশে সংবাদপত্র নিয়ে অনেক পরীক্ষা-নিরীক্ষা হয়েছে, সবই ঢাকা কেন্দ্রিক। বিভাগীয় শহর থেকে একযোগে মুদ্রণ, দৈনিকের সঙ্গে বিভিন্ন ধরনের ম্যাগাজিন দেওয়া এবং স্বল্পমূল্যে পূর্ণাঙ্গ কাগজ পাঠকের কাছে পৌঁছানো এ তিনটি বিষয় সবার চোখে পড়েছে। এটাও ঠিক পাঠকের নতুন নতুন চাহিদার সঙ্গে তাল মেলাতে না পেরে অনেক প্রতিষ্ঠিত পত্রিকাও প্রতিযোগিতার দৌড়ে পেছনে পড়ে গেছে, দু-একটি হারিয়েও গেছে।’

ওসমান গণি মনসুর বলেন, ‘দৈনিক ইত্তেফাকে ২৬ বছর সাংবাদিকতা করেছি। বরাবরের মতোই এখনো বৃহত্তর চট্টগ্রাম অবহেলিত। বন্দর, ব্যবসা-বাণিজ্য, পর্যটন, ঐতিহ্যগত অনেক বিষয়ে উন্নয়নের অফুরান সম্ভাবনা থাকলেও যথাযথ ফোকাস, পরিকল্পনা ও আন্তরিকতার অভাবে কাঙ্ক্ষিত উন্নয়নের ছিঁটেফোঁটাও লাগেনি। পাশাপাশি এ জনপদের কীর্তিমানদের নানা অর্জন, সাফল্যগাথা, সৃজন ও মননশীলতার চর্চা, সাহিত্য-সংস্কৃতি-ঐতিহ্য, স্বাস্থ্য, শিক্ষা, মানবাধিকার, গণমানুষের চাওয়া-পাওয়া, হতাশা, লাঞ্ছনা ইত্যাদিও চরমভাবে বঞ্চিত। পূর্বদেশ হবে গণমানুষের সত্যিকার মুখপত্র।’

আগামী দিনের পরিকল্পনা প্রসঙ্গে সম্পাদক বলেন, ‘আপাতত আমরা সপ্তাহে ৬ দিন ৮পৃষ্ঠা, বাকি ১ দিন ১২ পৃষ্ঠা ছাপাব। পাঠকের প্রত্যাশা অনুযায়ী নিয়মিত ১২ পৃষ্ঠা করার পরিকল্পনা আছে। অন্যদিকে বৃহত্তর চট্টগ্রামের কাগজ হিসেবে ঢাকাসহ সারাদেশে বাজার সৃষ্টি করতে চাই আমরা। চট্টগ্রামের অনেক মানুষ ঢাকায় বসবাস করেন, তাদের কাছে নিয়মিত কাগজ পৌঁছে দেব আমরা।’

অবহেলিত-বঞ্চিত মানুষের মুখপত্র হবে ‘পূর্বদেশ’: জুবেরী

পূর্বদেশ’র নির্বাহী সম্পাদক আবু সাঈদ জুবেরী বাংলানিউজকে বলেন, ‘চট্টগ্রাম বন্দর পৃথিবীর সঙ্গে বাংলাদেশের যোগাযোগ ঘটিয়েছে। ১২০টি দেশের মানুষ এসে কাজ করতেন চট্টগ্রামে। ইতিহাস পর্যালোচনা করলে দেখা যাবে, চট্টগ্রাম ঢাকা ও কলকাতার চেয়েও প্রাচীন জনপদ-শহর। হাজার বছরের ঐতিহ্যে সমৃদ্ধ চট্টগ্রাম যুগ যুগ ধরে নানা ভাবে অবহেলিত, হয়নি কাঙ্ক্ষিত উন্নয়ন। ‘পূর্বদেশ’ চট্টগ্রামের অবহেলিত বঞ্চিত মানুষের মুখপত্র হিসেবে কাজ করবে।’

চট্টগ্রামের দৈনিক পূর্বকোণ ও দৈনিক ঈশানে কাজের অভিজ্ঞতার কথা ‍তুলে ধরে এ অভিজ্ঞ সাংবাদিক বলেন, ‘মূলত চট্টগ্রামবাসী যা চায়, যা আশা করে পত্রিকার পাতায় তা কিন্তু তারা খুঁজে পায় না। চট্টগ্রামের দৈনিকগুলোতে সাহিত্য-সংস্কৃতি-ইতিহাস-ঐতিহ্যের মতো মূল্যবান বিষয়, সৃজন ও মননশীল মানুষগুলো চরমভাবে অবহেলিত। এসব ক্ষেত্রে চট্টগ্রামের রয়েছে কালজয়ী অর্জন, হাজারো তারকা সমান মহীয়ান ব্যক্তিত্ব-মনীষা। উপেক্ষিত মেধা ও মেধাবীমুখগুলো হাইলাইটস করতে চাই আমরা।’

অপর এক প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, ‘কবি বিষ্ণু দে বলেছেন, সংবাদ মূলত কাব্য। এখন আমরা দেখছি সংবাদ মূলত পণ্য। সাধারণ মানুষের, বঞ্চিতদের কাব্যগাথাই তুলে ধরব আমরা।’

চট্টগ্রামের আঞ্চলিক ভাষায় থাকবে একটি সংবাদ

পূর্বদেশ’র যুগ্ম সম্পাদক কবি আবু তাহের মুহাম্মদ বাংলানিউজকে জানান, নতুন ধারার এ দৈনিকে প্রতিদিন একটি সংবাদ থাকবে চট্টগ্রামের আঞ্চলিক ভাষায়। একস্লিপের সংবাদটি পাঠকদের অন্যরকম আনন্দ দেবে। এ ছাড়া ঘুম থেকে জেগে ওঠার পর পাঠককে স্বাগত জানাতে থাকবে ‘শুভ সংবাদ’ নামের নতুন একটি বিষয়। পাশাপাশি থাকবে সমাজের অসংগতি তুলে ধরতে ‘বক্র চোখে’ নামের আরেকটি আয়োজন।

প্রতিদিন থাকবে ‘পকেট কার্টুন’

দৈনিক পূর্বদেশ গুরুত্ব সহকারে প্রতিদিন ছাপাবে ‘পকেট কার্টুন’। ‍জানালেন স্মার্ট মিডিয়া লিমিটেডের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা (সিইও) চিত্রশিল্পী জিয়াউল হক জিয়া।

তিনি বলেন, ‘চট্টগ্রামের দৈনিকে কার্টুন এতদিন উপেক্ষিত ছিল। আমরা পাঠকের সেই অভাব পূরণ করব।’

প্রকাশনা অনুষ্ঠান বুধবার

দৈনিক পূর্বদেশ’র প্রকাশনা উপলক্ষে সুধী সমাবেশ অনুষ্ঠিত হবে বুধবার বিকেল ৩টায় নগরীর মুসলিম ইনস্টিটিউট মিলনায়তনে। প্রধান অতিথি থাকবেন প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রী ডা. আফছারুল আমীন।

অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন পার্বত্য চট্টগ্রামবিষয়ক প্রতিমন্ত্রী দীপংকর তালুকদার, চট্টগ্রাম-৮ আসনের সংসদ সদস্য নুরুল ইসলাম বিএসসি, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য অধ্যাপক আনোয়ারুল আজিম আরিফ, তথ্যসচিব হেদায়েতুল্লাহ আল মামুন, সাংবাদিক মঞ্জুরুল আহসান বুলবুল, চট্টগ্রাম চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির সভাপতি মোরশেদ মুরাদ ইব্রাহিম, বাংলাদেশ তৈরি পোশাক প্রস্তুত ও রপ্তানিকারক সমিতির প্রথম সহ-সভাপতি নাসির উদ্দিন চৌধুরী, চিটাগাং উইম্যান চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রির সভাপতি মনোয়ারা হাকিম আলী, বাংলাদেশ ইনল্যান্ড কনটেইনার ডিপো অ্যাসোসিয়েশনের সভাপতি নুরুল কাইয়ুম খান।

বাংলাদেশ সময়: ১২০০ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ১০, ২০১২
এআরএম, সম্পাদনা: তপন চক্রবর্তী, ব্যুরো এডিটর

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2012-12-10 01:36:24