ঢাকা, শনিবার, ১১ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ২৫ মে ২০২৪, ১৬ জিলকদ ১৪৪৫

জাতীয়

কালকিনিতে পুলিশের ভয়ে পালাতে গিয়ে আসামির মৃত্যু

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৪০৩ ঘণ্টা, এপ্রিল ১৮, ২০২৪
কালকিনিতে পুলিশের ভয়ে পালাতে গিয়ে আসামির মৃত্যু

মাদারীপুর: মাদারীপুর জেলার কালকিনিতে পুলিশের ভয়ে পালাতে গিয়ে ওয়ারেন্টভুক্ত মোতালেব ঘরামী(৬২) নামে এক আসামির মৃত্যু হয়েছে। নিহত মোতালেব ঘরামী কালকিনি পৌরসভার ৯নং ওয়ার্ডের পশ্চিম মিনাজদী গ্রামের বাসিন্দা।

জানা গেছে, ডাসার উপজেলার কাজীবাকাই ইউনিয়নের উত্তর ভাউতলী গ্রামের মৃত সোরপান সরদারের মেয়ে জেসমিন আক্তার মাদারীপুর আদালতে একটি যৌতুক মামলা করেন। মামলায় জেসমিনের স্বামী কালকিনি পৌরসভার পশ্চিম মিনাজদী গ্রামের জুলহাস ঘরামী, তার ভাই, বাবাসহ বেশ কয়েকজনকে আসামি করা হয়। সেই মামলায় তাদের নামে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেন আদালত।  

ওয়ারেন্টভুক্ত আসামিদের ধরতে বুধবার(১৭ এপ্রিল) রাতে অভিযানে যায় কালকিনি থানা পুলিশের একটি দল। পরে নিজবাড়ি থেকে জুলহাস ঘরামী ও তার দুইভাইকে গ্রেফতার করে পুলিশ। এ সময় পুলিশের ভয়ে ওয়ারেন্টভুক্ত আসামি জুলহাসের বাবা মোতালেব ঘরামী দৌঁড়ে পালানোর চেষ্টা করে। চারপাশ অন্ধকার থাকায় ভয়ে অসুস্থ হয়ে পড়েন।

স্থানীয়রা জানায়, পারিবারিকভাবে জুলহাসের সঙ্গে বিয়ে হয় জেসমিনের। বিয়ের পর থেকে নানা কারণে জেসমিনকে মারধর করে যৌতুক দাবি করেন শ্বশুরবাড়ির লোকজন। একপর্যায়ে অত্যাচার সইতে না পেরে জেসমিন বাধ্য হয়ে আদালতে মামলা করেন। বর্তমানে জেসমিন বাবার বাড়ি রয়েছেন।

মাদারীপুরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. আলাউল হাসান বলেন, গ্রেফতার আতঙ্কে পালাতে গিয়ে ভয়ে অসুস্থ হয়ে মোতালেব ঘরামী মারা গেছেন বলে ধারণা করা হচ্ছে। পুলিশ তার তিনছেলেকে গ্রেফতার করলেও মোতালেবকে গ্রেফতার করেনি। অভিযানের সময় পুলিশের সঙ্গে মোতালেবের দেখাও হয়নি। হাসপাতালে নেয়ার পরে পুলিশ জানতে পারে, ৬২ বছরের বৃদ্ধ ওয়ারেন্টভুক্ত আসামি মোতালেব মারা গেছেন।

বাংলাদেশ সময়: ১৪০২ঘণ্টা, এপ্রিল ১৮,২০২৪
এমএম

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।