ঢাকা, রবিবার, ১৪ মাঘ ১৪২৯, ২৯ জানুয়ারি ২০২৩, ০৬ রজব ১৪৪৪

জাতীয়

জুনিয়র ইন্সস্ট্রাক্টরকে মারধর করলেন প্রকৌশলী

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০৩৮ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ২, ২০২২
জুনিয়র ইন্সস্ট্রাক্টরকে মারধর করলেন প্রকৌশলী

বরিশাল: বরিশাল সরকারি পলিটেকনিক ইন্সটিটিউটের ইলেক্ট্রিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগে নজরুল ইসলাম নামে এক জুনিয়র ইন্সস্ট্রাক্টরকে মারধরের অভিযোগ উঠেছে প্রতিষ্ঠানটির অধ্যক্ষ প্রকৌশলী রুহুল আমিনের বিরুদ্ধে।

শুক্রবার (২ ডিসেম্বর) দুপু‌রে বিষয়‌টি সাংবাদিকদের জা‌নান ভুক্তভোগী।

তিনি জানান, গতকাল বৃহস্পতিবার (১ ডিসেম্বর) দুপুরে ইন্সটিটিউটের নিচ তলায় এসি শপের সামনে অধ্যক্ষ রুহুল আমিন তাকে মারধর করেন।

এ ঘটনার পর কোতোয়ালি মডেল থানায় লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন ইন্সস্ট্রাক্টর নজরুল ইসলাম।

অভিযোগে তিনি উল্লেখ করেন, গত বুধবার (৩০ নভেম্বর) নজরুল ইসলামকে একটি কারণ দর্শানোর নোটিশ দেন বরিশাল সরকারি পলিটেকনিক ইন্সটিটিউটের অধ্যক্ষ প্রকৌশলী রুহুল আমিন। নজরুল নোটিশের জবাব গতকাল বৃহস্পতিবার। নোটিশের জবাবে নজরুল যা লিখেছেন, তা পছন্দ হয়নি রুহুল আমিনের। যে কারণে তিনি জুনিয়র ইন্সস্ট্রাক্টরকে মারধর করেন। এমনকি তার চাকরির ক্ষতি করা হবে বলেও হুমকি দেন।

নজরুল ইসলাম বলেন, আমাকে অন্ধকারাচ্ছন্ন ও সিসি ক্যামেরার আওতার বাইরে দ্বিতীয় তলার সিঁড়ির নিচে নিয়ে মারধর করা হয়। পরে আমি বরিশাল মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি হই।

বিষয়টি নিয়ে কথা হলে ব‌রিশাল পলিটেকনিক ইন্সটিটিউটের অধ্যক্ষ প্রকৌশলী রুহুল আমিন বলেন, মারধরের বিষয়টি ভিত্তিহীন। সে কথায় কথায় মিথ্যা বলে। তাকে শোকজ করা হয়েছিল। কিন্তু তিনি যে ভাষা ব্যবহার করেছেন তাতে তার ক্ষতি হবে বলে তাকে জানিয়েছি। আবার অন্য শিক্ষকের ডকুমেন্ট নজরুল তার মোবাইলে তুলে নেন। এ কারণে তার মোবাইল নেওয়া হয়। কিন্তু মোবাইল লক থাকায় তাকে খুলে দিতে বললে সে ডকুমেন্টটি ডিলিট করে দেয়। এর বাহিরে কিছু হয়নি।

ব‌রিশাল কোতোয়ালি মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আজিমুল করিম বলেন, কোনো অভিযোগ এলে বিষয়টি তদন্ত করা হবে।

বাংলাদেশ সময়: ২০৩৮ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ২, ২০২২
এসএম/এমজে

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa