ঢাকা, সোমবার, ৯ কার্তিক ১৪২৮, ২৫ অক্টোবর ২০২১, ১৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

মনোকথা

মানসিক সমস্যা বাড়ছে ধূমপায়ী যুবকদের

মনোকথা ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৯১৫ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ৪, ২০১৬
মানসিক সমস্যা বাড়ছে ধূমপায়ী যুবকদের

ঢাকা: মার্কিন যুবকদের মধ্যে ধূমপায়ীরাই বেশি মানসিক সমস্যায় ভুগছে। ১৯৪০, ১৯৫০, ১০৬০, ১৯৭০ এবং ১৯৮০’র দশকে জন্মানো ২৫ হাজার জনের উপর গবেষণা চালিয়ে এমন তথ্য উঠে এসেছে।



সম্প্রতি একটি জার্নালে প্রকাশিত প্রতিবেদনে বলা হয়, যুক্তরাষ্ট্রে ১৯৬০’র দশকে ধূমপায়ীর সংখ্যা কমে এলেও পরোক্ষ ধূমপানের হার অনেক বেড়েছে।

গবেষকদের দাবি, ধূমপানের কারণে মূলত ধূমপায়ীদের মানসিক সমস্যা বাড়ছে। বিশেষত যুবকদের মধ্যে। পাশাপাশি যারা পরোক্ষ ধূমপানের শিকার তাদের আক্রান্ত হওয়ার হারও কম নয়।

আশির দশকের আগে ধূমপায়ীদের মানসিক সমস্যা এতো বেশি দেখা যায়নি। সম্প্রতি যুবকদের মধ্যে ‘সাবস্ট্যান্স-ইউজ ডিজঅর্ডার’ এর ঝুঁকি আশঙ্কাজনক হারে বেড়ে গেছে।

কলম্বিয়া ইউনিভার্সিটি মেডিকেল সেন্টারের ক্লিনিক্যাল নিউরোলজি বিভাগের সহকারী অধ্যাপক ও  দ্যা নিউ ইয়র্ক স্টেট সাইকায়াট্রিক ইনস্টিটিউটের গবেষক আডেসার টালাটি গবেষণায় নেতৃত্ব দেন।

তিনি বলেন, আমাদের গবেষণায় দেখা গেছে ধূমপায়ীর সংখ্যা কম হলেও বর্তমান প্রজন্ম অনেক বেশি ঝুঁকিপূর্ণ।

গবেষণা সহকারী নিউ ইয়র্কের কলোম্বিয়া’স মেইলম্যান স্কুল অব পাবলিক হেলথের সহকারী অধ্যাপক ক্যাথরিন কেয়েস বলেন, এই গবেষণা দেশে ধূমপানে নিরুৎসাহ করতে সহায়ক হতে পারে। কারণ মানসিক সমস্যা দূর করতে ধূমপান ত্যাগ করা একটি সমাধান।

এ সমস্যা কেবল যুক্তরাষ্ট্রে নয়, ধূমপায়ী সব যুবকদের ক্ষেত্রেই হতে পারে। সাবস্ট্যান্স-ইউজ ডিজঅর্ডারের সঙ্গে বায়োলজিক্যাল ও জেনেটিক ফ্যাক্টরের সম্পর্ক আছে কিনা তা নিশ্চিত হতে আরও গবেষণার দরকার, যোগ করেন গবেষকরা।

প্রিয় পাঠক, ‘মনোকথা’ আপনাদের পাতা। আপনারা জানাতে পারেন বাংলানিউজের ‘মনোকথা’ পাতায় আপনি কি ধরনের প্রতিবেদন দেখতে চান। মনোরোগ নিয়ে যে কোনো মতামত ও আপনার সমস্যার কথা জানাতে পারেন আমাদের।

আমরা পর্যায়ক্রমে অভিজ্ঞ মনোরোগ বিশেষজ্ঞের পরামর্শ নিয়ে আপনাদের প্রশ্নের জবাব জানিয়ে দেবো। আপনি চাইলে গোপন রাখা হবে আপনার নাম-পরিচয় এমনি কি ঠিকানাও।

সমস্যার কথা জানানোর সঙ্গে সমস্যার বিস্তারিত বিবরণ, আপনার নাম, বয়স, কোথায় থাকেন, পারিবারিক কাঠামো এবং এজন্য কোনো চিকিৎসা নিচ্ছেন কি না এ বিষয়ে বিস্তারিত আমাদের জানান। শুধুমাত্র সেক্ষেত্রেই সমস্যা সম্পর্কে প্রয়োজনীয় দিক নির্দেশনা জানানো সম্ভব হবে।

এছাড়া মানসিক সমস্যা সংক্রান্ত বা এ বিষয়ে বিশেষ যে কোনো লেখা যে কেউ পাঠিয়ে দিতে পারেন আমাদের।

আপনার সমস্যা, মতামত বা পরামর্শ ও লেখা পাঠানোর জন্য আমাদের ইমেইল করুন -[email protected]

বাংলাদেশ সময়: ১৯১৭ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ০৪, ২০১৬
এটি/এএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa