ঢাকা, শনিবার, ৮ মাঘ ১৪২৭, ২৩ জানুয়ারি ২০২১, ০৯ জমাদিউস সানি ১৪৪২

লন্ডন

প্রধানমন্ত্রীর হাতে তুলে দেওয়া হলো ‘বিজয়ের মহানায়ক’

স্পেশাল করেসপেন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৬২৯ ঘণ্টা, অক্টোবর ৩, ২০১৫
প্রধানমন্ত্রীর হাতে তুলে দেওয়া হলো ‘বিজয়ের মহানায়ক’ প্রধানমন্ত্রীর হাতে তুলে দেওয়া হচ্ছে ‘বিজয়ের মহানায়ক’

লন্ডন: ইংরেজি সাব-টাইটেলে ব্রিটিশ মূলধারায় যাচ্ছে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে নিয়ে তৈরি প্রামাণ্যচিত্র ‘বিজয়ের মহানায়ক’। প্রামাণ্যচিত্রটির একটি ডিভিডি কপি আনুষ্ঠানিকভাবে তুলে দেওয়া হয়েছে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাতে।



‘বিজয়ের মহানায়ক’র পরিচালক মঈনুল হোসেন মুকুল, স্ক্রিপ্ট রাইটার ও গবেষক সৈয়দ আনাস পাশা ও যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আনোয়ারুজ্জামান চৌধুরী শুক্রবার (০২ অক্টোবর) লন্ডনে অনুষ্ঠিত একটি সমাবেশে প্রামাণ্যচিত্রের ডিভিডি কপি প্রধানমন্ত্রীর হাতে তুলে দেন।

সমাবেশের মঞ্চে উপস্থিত ছিলেন যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগের সভাপতি সুলতান শরীফ, সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ ফারুক ও যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক নঈমুদ্দিন রিয়াজ। দর্শক সারিতে উপস্থিত ছিলেন স্পিকার ড. শিরীন শারমিন চৌধুরী, পররাষ্ট্রমন্ত্রী এএইচ মাহমুদ আলী, যুক্তরাজ্যে নিযুক্ত বাংলাদেশের হাইকমিশনার আব্দুল হান্নান, ডেপুটি হাইকমিশনার খোন্দকার মোহাম্মদ তালহা, প্রেস মিনিস্টার নাদিম কাদির, যুক্তরাজ্য আওয়ামী লীগের উপদেষ্টামণ্ডলীর চেয়ারম্যান আলহাজ শামসুদ্দিন খান ও ইউরোপীয় আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এম এ গণি প্রমুখ।

ডিভিডি কপি তুলে দেওয়ার সময় সৈয়দ আনাস পাশা প্রধানমন্ত্রীকে জানান, ব্রিটেনে জন্ম ও বেড়ে ওঠা বাংলাদেশি ছাত্রদের একটি দল ‘বিজয়ের মহানায়ক’র ইংরেজি সাব-টাইটেলের কাজ এরই মধ্যে শেষ করে এনেছে। এ প্রক্রিয়া শেষ হলেই নতুন প্রজন্মের কাছে বঙ্গবন্ধুকে পৌঁছে দিতে শুরু হবে এর প্রদর্শনী।

                                                              ‘বিজয়ের মহানায়ক’র ডিভিডি কপি উঁচিয়ে দেখাচ্ছেন প্রধানমন্ত্রী

প্রধানমন্ত্রী অত্যন্ত আগ্রহ নিয়ে ‘বিজয়ের মহানায়ক’ তৈরির সংক্ষিপ্ত গল্প শোনেন ও ডিভিডি কপিটি উঁচিয়ে সমাবেশে উপস্থিত সবাইকে দেখান।

গত মাসে বঙ্গবন্ধুকে নিয়ে প্রামাণ্যচিত্র ‘বিজয়ের মহানায়ক’ তৈরির কাজ সম্পন্ন হয়। বঙ্গবন্ধুকে  দেখা বা তার সান্নিধ্য পাওয়ার সৌভাগ্য যাদের হয়েছে তাদের চোখে কেমন ছিলেন তিনি? এমন পরিকল্পনা থেকেই প্রামাণ্যচিত্রটি নির্মাণ করা হয়। এতে বঙ্গবন্ধুর সাহস, ব্যক্তিত্ব, কঠিন কোমলে মিশ্রিত তার হৃদয়, মানুষের জন্য অপার ভালোবাসা ও দুরদর্শী নেতৃত্বসহ বিভিন্ন দিক উঠে এসেছে।

‘জয় বাংলা’ টিভি প্রযোজিত ও ‘ইনার আই’ নির্মিত এ প্রামাণ্যচিত্রে স্মৃতিচারণ ছাড়াও রয়েছে বাঙালির হাজার বছরের কাঙ্খিত এই পুরুষের দীর্ঘ সংগ্রামী জীবনের দুর্লভ ছবি, দুনিয়া কাঁপানো ভাষণ ও বিশ্বের খ্যতিমান সাংবাদিকদের সঙ্গে তার সাহসী সাক্ষাৎকারগুলোর কিছু দৃশ্য।

বিশিষ্ট চিত্রনির্মাতা মঈনুল হোসেন মুকুলের পরিচালনায় নির্মিত ৫৩ মিনিটের এ প্রামাণ্যচিত্র গবেষণা, স্ক্রিপ্ট ও সমন্বয়ে ছিলেন বাংলানিউজের স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট সৈয়দ আনাস পাশা। জয়বাংলা টিভি’র কর্ণধার সালিমা শারমিন হোসেনের প্রযোজনায় নির্মিত ডকুমেন্টারিটির ক্রেডিট লাইনে সহযোগিতায় বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম এবং প্রিয়অস্ট্রেলিয়া.কম’র নাম রয়েছে।

বাংলাদেশ সময়: ১৬২৮ ঘণ্টা, অক্টোবর ০৩, ২০১৫
এসএপি/আরএইচ/এএসআর

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa