ঢাকা, বুধবার, ১৪ আশ্বিন ১৪২৭, ৩০ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১১ সফর ১৪৪২

লাইফস্টাইল

করোনা দূর করতে বিটাডিনই যথেষ্ট! 

লাইফস্টাইল ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১১২২ ঘণ্টা, আগস্ট ৬, ২০২০
করোনা দূর করতে বিটাডিনই যথেষ্ট!  মাউথওয়াশ 

কোভিড-১৯' বা মহামারি করোনা থেকে বাঁচার উপায় খুঁজতে ব্যস্ত পুরো পৃথিবীর গবেষকরা। যার ফলে টিকা না বের হলেও কিছু কার্যকর উপায় আমরা পেয়ে গেছি করোনাকে কাবু করার।

এমনই একটি উপাদান বিটাডিন।  

সম্প্রতি এক গবেষণায় দাবি করা হয়েছে, বিটাডিন মাত্র কয়েক সেকেন্ডে করোনাভাইরাসের হাত থেকে নিস্তার মিলতে পারে। বিটাডিন কী? 

'ইনফেকশাস ডিজিজ অ্যান্ড থেরাপি' জার্নালে প্রকাশিত জানানো হয়, সিঙ্গাপুরের ডিউক-এনএসএস মেডিক্যাল স্কুলের গবেষণায় উঠে এসেছে, সামান্য পরিমাণ বিটাডিন সমৃদ্ধ মাউথওয়াশ পানিতে মিশিয়ে গার্গল করতে পারলে, কোভিড নিরাময় সম্ভব।  

বিটাডিন অ্যান্টিসেপটিক কোভিড-১৯ -এর সংক্রমণ রুখতে কার্যকর। বিটাডিনের মতো অ্যান্টিসেপটিক মাত্র ৩০ সেকেন্ডের মধ্যে ৯৯.৯ শতাংশ করোনভাইরাস ধ্বংস করতে পারে। বিটাডিনের এই পণ্যগুলোর মধ্যে রয়েছে সলিউশন (১০ শতাংশ PVP-I), স্কিন ক্লিনজার (৭.৫ শতাংশ PVP-I), গার্গেল এবং মাউথওয়াশ (১.০ শতাংশ PVP-I) এবং গলার স্প্রে (০.৪৫ শতাংশ PVP-I)।

সিঙ্গাপুরের গবেষকেরা জানিয়েছেন, জীবাণু সংক্রমণের বিরুদ্ধে চিকিৎসায় টপিক্যাল অ্যান্টিসেপটিক পণ্য হিসেবে মূলত বিটাডিন ব্যবহার করা হয়। এর মধ্যে পোভিডোন-আয়োডিন উপাদান রয়েছে।  সংক্রমণের ঝুঁকি যাদের মধ্যে প্রবল বিশেষ করে চিকিৎসক ও স্বাস্থ্যকর্মীদের ব্যবহার করতে বলা হচ্ছে।  

যে কারণে বিশ্বের বিভিন্ন হাসপাতালেও এখন এই ওষুধটির ব্যবহার শুরু হয়েছে । বিশেষত চিকিত্সক-সহ সামনের সারিতে থাকাদের পিপিই-সহ অন্যান্য প্রতিরোধমূলক চিকিত্সা বিকল্পগুলোর সঙ্গে বিটাডিন অ্যান্টিসেপটিক পণ্যও কোভিড-১৯ সংক্রমণের ঝুঁকি কমাতে পারে।

তবে, বিটাডিন নিয়ে কোভিড নিরাময়ের এই গবেষণা এখনও প্রাথমিক পর্যায়ে রয়েছে। করোনায় আক্রান্ত হলে, যে কোনো কিছু ব্যবহার করার আগে অবশ্যই চিকিৎসকের পরামর্শ নিতে হবে।

বাংলাদেশ সময়: ১১২১ ঘণ্টা, আগস্ট ০৬, ২০১৮
এসআইএস 
 

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa