ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১ কার্তিক ১৪২৬, ১৭ অক্টোবর ২০১৯
bangla news

টিনএজার ডেটিং-এ!

লাইফস্টাইল ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৯-২১ ১:০৬:৫৯ পিএম
টিনএজার

টিনএজার

সুমনা, রিতা আর শ্রদ্ধা ভালো বন্ধু। তারা ক্লাস নাইনে পড়ছে। বাড়ি থেকে স্কুল বা কোচিং- যাওয়ার জন্য বের হলেও ক্লাস শেষে সুমনা ও রিতা নিয়মিত তাদের বয়ফ্রেন্ডের সঙ্গে ডেটিং-এ যায়। 

শ্রদ্ধার কারো সঙ্গে সম্পর্ক নেই বলে, এই ঘোরাঘুরিতে তার জায়গা নেই। এতে শ্রদ্ধার খুব মন খারাপ হয়। সে একদিন কথায় কথায় তার মাকে বলে দেয়, তার বন্ধুদের রিলেশনের কথা। 

মেয়ের কথা শোনার পর থেকে মায়ের চিন্তার শেষ নেই, তিনি ভাবছেন, তার মেয়েটিও এমন করতে পারে, মেয়ের বন্ধুরাও পড়তে পারে বড় কোনো দুর্ঘটনায়। এই বয়সের ছেলে-মেয়েরা না বুঝে বা শখ করে অনেক ধরনের ভুল করে, যার পরিণতি অনেক সময়ই খারাপ হয়।    

এদিকে তাদের এই সম্পর্কে জড়ানোর বিষয়ে পরিবারের কিছুই জানা থাকে না, ফলে তাদের কোনো বিপদ হলেও পরিবার জানতে বা বুঝতে অনেক সময় চলে যায়, যা আরও ভয়াবহ। 

টিনএজারদের শারীরিক, মানসিক ও ব্যক্তিত্বের বিকাশ পুরোপুরি হয়ে ওঠে না, ফলে সম্পর্কের সম্মান দেওয়া বা এই সম্পর্ক চালিয়ে নিয়ে সঙ্গে নিজের পড়াশোনা ঠিকভাবে করে যাওয়া অনেকের পক্ষেই সম্ভব হয় না। 


নিজেকে নিরাপদ রাখতে টিনএজাররা কোথাও যাওয়ার আগে অন্তত একজন বন্ধুকে জানিয়ে দেবেন, কোথায় আছেন।

আর পরিবারের বাবা মা যখন সন্তানের এমন সম্পর্কের বিষয়ে জানবেন, তাকে মানসিক বা শারীরিক নির্যাতন করবেন না। তার পাশে থাকুন, প্রয়োজনে কোনো কাউন্সিলরের পরামর্শ নিতে হবে।

মনে রাখতে হবে, মানসিকভাবে নির্যাতিত শিশুরা পরবর্তীতে বিষন্নতা, হীনমন্যতায় ভোগার পাশাপাশি আত্মহত্যাপ্রবণ হয়ে ওঠে।


বাংলাদেশ সময়: ১৩০৩ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ২১, ২০১৯
এসআইএস


 

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-09-21 13:06:59