ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৯ ফাল্গুন ১৪৩০, ২২ ফেব্রুয়ারি ২০২৪, ১১ শাবান ১৪৪৫

লাইফস্টাইল

বাম পাশ ফিরে কেন ঘুমাবেন

লাইফস্টাইল ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৭০৬ ঘণ্টা, নভেম্বর ২৯, ২০১৭
বাম পাশ ফিরে কেন ঘুমাবেন ...

ঘুম বেঁচে থাকার জন্য অপরিহার্য। কিন্তু আমরা কীভাবে শুয়ে ঘুমাচ্ছি সেদিকে খেয়াল রাখা বিশেষভাবে দরকার। কেননা আমাদের শরীরের ডান ও বাম পাশ ভিন্নভাবে আচরণ করে। সেজন্য শোবার অভ্যাসে ত্রুটি থাকলে ঘটতে পারে বিপত্তি।

গবেষণা বলছে বাঁপাশ ফিরে শোয়ার অনেকগুলো ভালো দিক আছে। অন্যদিকে ডান পাশ ফিরে শুলে শরীরে মারাত্মক ক্ষতিকারক প্রভাব পড়ে।

আসুন জেনে নেই কী সেই প্রভাব।

হার্টের সমস্যা
ডান দিকে ফিরে ঘুমালে হার্টের কর্মক্ষমতা কমতে শুরু করে। এর কারণ হলো ডান পাশ ফিরে শুলে হার্টে ঠিকমতো রক্ত পৌঁছাতে পারে না। ফলে হার্ট দুর্বল হতে শুরু করে। অন্যদিকে বাম দিকে ফিরে শুলে মাধ্যাকর্ষণ শক্তির কারণে হার্টে রক্তের প্রবাহ বেড়ে যায়। ফলে হার্টের স্বাস্থ্যের উন্নতি ঘটতে শুরু করে।

রক্ত প্রবাহ
বিছানায় সোজা হয়ে শুলে শরীরে স্বাভাবিকভাবে রক্ত প্রবাহ হয়। কিন্তু ডান কাত হয়ে শুলে সঠিকভাবে রক্ত প্রবাহে বাধা পায়। বিশেষত হাত ও কাঁধে যথেষ্ট পরিমাণ রক্ত পৌঁছাতে না পারার ফলে অসারতা, যন্ত্রণাসহ নানাবিধ সমস্যা হওয়ার আশঙ্কা বৃদ্ধি পায়।

গ্যাসের সমস্যা
বিভিন্ন গবেষণা অনুযায়ী রাতের বেশিরভাগ সময় ডান দিক ফিরে ঘু্মালে গ্যাসের সমস্যা বেড়ে যাওয়ার আশঙ্কা থাকে। অন্যদিকে বাঁপাশ ফিরে শুলে বদ-হজমের মতো রোগ সেরে যায়। ঝাল মশলা দেওয়া খাবার খাওয়ার কারণে বুক জ্বালা বা পেটে গুরু গুর করার মতো সমস্যা যাদের আছে, তারা বাঁদিক ফিরে ঘুমনোর চেষ্টা করুন।

ক্যান্সারের ঝুঁকি
চিকিৎসকদের তথ্য মতে ডান দিক ফিরে শুলে গ্যাস্ট্রো ইসোফেগাল রিফ্লাক্স বা জিইআরডি’র মতো রোগে আক্রান্ত হওয়ার আশঙ্কা বৃদ্ধি পায়। আর এই রোগ শরীরে এসে বাসা বাঁধলে ইসোফেগাসের উপর চাপ বেড়ে যায়, যা থেকে শরীরের এই অংশে ক্যান্সার হতে পারে।

গর্ভাবস্থায়
প্রেগন্যান্সিতে ডান কাত হয়ে ঘুমালে বাচ্চার শরীরে রক্তের প্রবাহ কমে যায়। সেই সঙ্গে বাচ্চার শরীরে পুষ্টির ঘাটতি দেখা দেওয়া, মায়ের লিভারের কর্মক্ষমতা কমে যাওয়ার মতো একাধিক সমস্যা হওয়ার আশঙ্কা বৃদ্ধি পায়। কাজেই সম্ভাব্য মায়েরা বাম পাশ ফিরে শোবার অভ্যাস করুন।

নাক ডাকা
বিশ্বাস করুন অথবা না করুন বাঁদিক হয়ে শুলে আপনার নাক ডাকা কমে যাবে। কারণ বাঁপাশ ফিরে শোয়াতে নাক ও গলা স্বাভাবিক অবস্থায় থাকে ফলে শ্বাস নিতে কোনো সমস্যা হয় না।

বাংলাদেশ সময়: ১৩০০ ঘণ্টা, নভেম্বর ২৯, ২০১৭
এমএসএ/এমজেএফ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।