bangla news

সতর্ক হোন, সুস্থ থাকুন

| বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১১-০৬-২৮ ৩:৩৮:২৪ এএম

নীল নব ঘনে আষাঢ় গগনে তিল ঠাঁই আর নাহিরে
ওগো আজ তোরা যাসনে ঘরের বাহিরে...

নীল নব ঘনে আষাঢ় গগনে তিল ঠাঁই আর নাহিরে
ওগো আজ তোরা যাসনে ঘরের বাহিরে...

কবিতো তার কবিতায় খুব করে বারণ করলেন, মেঘলা দিনে বাইরে যেতে। কিন্তু ঝুম বৃষ্টি মাথায় নিয়ে আজও অফিসে আসতে হয়েছে। বর্ষার বৃষ্টি কখন শুরু হবে বলা যায় না। বৃষ্টিতে ভিজতে ভালো লাগে, ভালোলাগে বৃষ্টিতে খিচুরি আর ইলিশ ভাজা খেতে।

ব্যস্ত জীবনে ঘরে বসে বৃষ্টি উপভোগ করার সময় আমাদের নেই বললেই চলে। বাইরে যেতেই হয়, আর বৃষ্টিতে ভিজে বাড়ি ফিরে জ্বর বাধানোও নতুন কিছু নয়।

প্রকৃতির খেয়াল বলে কথা, আবহাওয়ার এই পরিবর্তনে নিজেকেই মানিয়ে চলতে হবে। নিতে হবে বাড়তি কিছু সতর্কতা। যেমন:

  •    বাইরে বের হওয়ার সময় রেইন কোট ব্যাগে নিয়ে নিন।
  •    অল্প বৃষ্টিতে শহরের রাস্তায় পানি জমে যায়, ডাস্টবিনের ময়লা নোংরা পানি থেকে বিভিন্ন চর্মরোগ হতে পারে
  •    বাড়ি ফিরেই গরম পানি আর সাবান দিয়ে শরীর, বিশেষ করে পা ভালোভাবে ধুতে হবে।
  •    বৃষ্টিতে ভিজে, ঠান্ডা লাগা থেকে হয় সর্দি, কাশি, হাঁচি, জ্বর, মাথাব্যথা হতে পারে।
  •    বাড়িতে কেউ ঠাণ্ডা-জ্বরে আক্রান্ত হলে চিকিৎসকের পরামর্শ নিন
  •    পানিবাহিত রোগ যাতে না হয় এজন্য ফোটানো ও বিশুদ্ধ পানি খেতে হবে
  •    রাস্তার ধারের ফলের রস, শরবত, লাচ্ছি ইত্যাদি এড়িয়ে চলুন
  •    এ ছাড়াও রেস্টুরেন্টে এসময় যত কম খাওয়া যায়, ততো ভালো।
  •    বৃষ্টির পানি জমে এডিস মশা জন্মানোর পরিবেশ তৈরি করে
  •    এজন্য লক্ষ্য রাখতে হবে বৃষ্টির পানি যেন কোথাও জমে না থাকে।


বর্ষায় ওপরের সতর্কতাগুলো অবলম্বন করে আমরা পরিবারের সবাইকে নিয়ে সুস্থ থাকতে পারি। 

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2011-06-28 03:38:24