ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৭ মাঘ ১৪২৯, ৩১ জানুয়ারি ২০২৩, ০৮ রজব ১৪৪৪

আইন ও আদালত

ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত, যুবকের ৭ বছর কারাদণ্ড

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১২৪৩ ঘণ্টা, নভেম্বর ১০, ২০২২
ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাত, যুবকের ৭ বছর কারাদণ্ড

রাজশাহী: ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাতের অভিযোগ প্রমাণিত হওয়ায় সুজন মোহন্ত নামের এক যুবককে সাত বছরের সশ্রম কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে। জরিমানা করা হয়েছে এক লাখ টাকা।

অনাদায়ে আরও ৩ মাসের কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে।  

বৃহস্পতিবার (১০ নভেম্বর) দুপুর ১২টার দিকে রাজশাহী বিভাগীয় সাইবার ট্রাইব্যুনালের বিচারক মো. জিয়াউর রহমান এই রায় ঘোষণা করেন। রায় ঘোষণার সময় অভিযুক্ত আসামি আদালতের কাঠগড়ায় উপস্থিত ছিলেন। রায় ঘোষণার পর তাকে রাজশাহী কেন্দ্রীয় কারাগারে পাঠায় পুলিশ।

দণ্ডপ্রাপ্ত আসামি সুজন মোহন্তের গ্রামের বাড়ি জয়পুরহাট জেলায়। তিনি ওই জেলার পাঁচবিবি থানার পশ্চিম বালিয়াঘাটা কাদেরপাড়া গ্রামের তারাপদ মোহন্তের ছেলে।

রায় ঘোষণার পর রাজশাহী বিভাগীয় সাইবার ট্রাইবুনালের পাবলিক প্রসিকিউটর (পিপি) অ্যাডভোকেট ইসমত আরা বেগম এ তথ্য নিশ্চিত করেন। তিনি বলেন, ২০১৭ সালের ফেব্রুয়ারি মাসে সুজন তার ফেসবুক আইডি থেকে পবিত্র কাবাশরীফের ওপরে হিন্দু ধর্মাবলম্বীদের দেবতা হনুমানের ছবি বসিয়ে ফেসবুকে আপলোড করেন।

সুজন মোহন্ত এর মাধ্যমে ইসলাম ধর্মাবলম্বীদের অনুভূতিতে চরম আঘাত করেছেন। এ ঘটনায় জয়পুরহাটের পাঁচবিবি থানায় তথ্য ও যোগযোগ প্রযুক্তি আইনে (২০০৬ ও সংশোধনী অধ্যাদেশ ২০১৩ এর ৫৭-১) সুজনে বিরুদ্ধে মামলা করা হয়।

অ্যাডভোকেট ইসমত আরা বলেন, সাক্ষ্য ও অন্যান্য তথ্য-প্রমাণের ভিত্তিতে সুজন মোহন্তের বিরুদ্ধে আনীত অভিযোগ সন্দেহাতীতভাবে প্রমাণিত হওয়ায় আদালত আজ তাকে দোষী সাব্যস্ত করেন। তাকে সাত বছরের সশ্রম কারাদণ্ড দিয়েছেন। জরিমানা করেছে এক লাখ টাকা। জরিমানা অনাদায়ে আরও তিন মাস বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে।  

বাংলাদেশ সময়: ১২৪৩ ঘণ্টা, নভেম্বর ১০, ২০২২
এসএস/এসআইএস

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa