ঢাকা, রবিবার, ৮ কার্তিক ১৪২৮, ২৪ অক্টোবর ২০২১, ১৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪৩

আইন ও আদালত

অভিনেত্রী আশার মৃত্যু: শামীমের অব্যাহতি চেয়ে চূড়ান্ত প্রতিবেদন

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৭১৭ ঘণ্টা, জুলাই ১৩, ২০২১
অভিনেত্রী আশার মৃত্যু: শামীমের অব্যাহতি চেয়ে চূড়ান্ত প্রতিবেদন

ঢাকা: রাজধানীর টেকনিক্যাল মোড়ে ট্রাকের ধাক্কায় অভিনেত্রী আয়েশা আক্তার আশার মৃত্যুর ঘটনায় হওয়া মামলার একমাত্র আসামি শামীম আহমেদের অব্যাহতি চেয়ে চূড়ান্ত প্রতিবেদন (ফাইনাল রিপোর্ট) দাখিল করেছে পুলিশ।  

মঙ্গলবার (১৩ জুলাই) সিএমএম আদালতে দারুস সালাম থানার সাধারণ নিবন্ধন কর্মকর্তা পুলিশের উপ-পরিদর্শক (এসআই) আসাদুজ্জামান আসাদ এ তথ্য জানান।

তিনি বলেন, গত ৬ জুলাই ঢাকার মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে এ প্রতিবেদন দাখিল করেন মামলার তদন্ত কর্মকর্তা দারুস সালাম থানার এসআই সোহান আহমেদ।

প্রতিবেদনে বলা হয়, শামীম আহমেদের মোটরসাইকেলের পেছনে বসা আশাকে ধাক্কা দেওয়া ট্রাকচালককে খুঁজে পাওয়া যায়নি। আর ঘটনার সঙ্গে শামীম যে জড়িত সেই প্রমাণ পাওয়া যায়নি। তাই তাকে অব্যাহতির আবেদন করে আদালতে চূড়ান্ত প্রতিবেদন দাখিল করা হলো।

গত ৪ জানুয়ারি রাত পৌনে ২টার দিকে দারুস সালাম থানার টেকনিক্যাল মোড়ে একটি ট্রাকের ধাক্কায় রাস্তায় ছিটকে পড়ে ঘটনাস্থলেই মারা যান আয়েশা।

পর দিন আশার বাবা আবু কালাম বাদী হয়ে মোটরসাইকেলচালক শামীম আহমেদকে আসামি করে দারুস সালাম থানায় মামলা করেন।

মামলার অভিযোগ থেকে জানা যায়, ছয়-সাত বছর ধরে আসামি শামীম আহমেদের সঙ্গে আশার পরিচয়। সেই সূত্র ধরে শামীম প্রায়ই আশাদের বাসায় যাতায়াত করতেন। আশার পরিবারের কাছেও সে ছিল বিশ্বস্ত। মাঝে মধ্যে শামীমের মোটরসাইকেলে অফিস ও অভিনয়ের কাজে আসা-যাওয়া করতো আশা।

গত ৪ জানুয়ারি রাত ১১টার দিকে বনানী অফিস থেকে বের হয়ে আশা তার বাবাকে ফোন করে কিছুক্ষণের মধ্যে বাসায় ফিরছেন বলে জানান। এর মধ্যে আশা বাড়ি না ফিরলে রাত পৌনে ২টার দিকে শামীম ফোনে আশার মৃত্যুর কথা জানান। তিনি বলেন, টেকনিক্যাল মোড়ে একটি ট্রাকের নিচে চাপা পড়ে সে মারা গেছে।

মামলার এজাহারে বলা হয়, বেপরোয়া গতিতে মোটরসাইকেল চালানোর সময় দুই ট্রাকের মাঝখান দিয়ে যাওয়ার সময় সামনের ট্রাকের সঙ্গে ধাক্কা লাগে। এতে আশা মোটরসাইকেলের পেছন থেকে ছিটকে পড়ে যান। এরপর পেছন থেকে দ্রুতগতিতে আসা একটি অজ্ঞাত ট্রাক তাকে চাপা দিলে মাথায় জখম হয়ে ঘটনাস্থলেই আশা মারা যান।

মামলা দায়েরের পর গত ৬ জানুয়ারি আসামি মোটরসাইকেলচালক শামীম আহমেদকে গ্রেফতার করে কারাগারে পাঠানো হয়। পরে অবশ্য তিনি আদালতের আদেশে জামিনে মুক্তি পান।

আশা বাংলাদেশ ইউনিভার্সিটি অব বিজনেস অ্যান্ড টেকনোলজির (বিইউবিটি) আইন বিভাগের ষষ্ঠ সেমিস্টারের ছাত্রী ছিলেন।

বাংলাদেশ সময়: ১৭১৬ ঘণ্টা, জুলাই ১৩, ২০২১
কেআই/আরবি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa