ঢাকা, শুক্রবার, ১৯ ফাল্গুন ১৪২৭, ০৫ মার্চ ২০২১, ২০ রজব ১৪৪২

আইন ও আদালত

ফেনীতে হত্যা মামলায় একজনের ফাঁসি

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১২৫৬ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১৭, ২০২১
ফেনীতে হত্যা মামলায় একজনের ফাঁসি

ফেনী: ফেনী সরকারি বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের নৈশপ্রহরী সফি উল্যাহ (৬০) হত্যা মামলার আসামি সোহেল হাওলাদারকে ফাঁসি দিয়েছেন আদালত। এছাড়াও ৫০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।

 

রোববার (১৭ জানুয়ারি) জেলা ও দায়রা জজ ড. বেগম জেবুন্নেছা এ রায় দেন।

ফেনী জজ কোর্টের পাবলিক প্রসিকিউটর (পিপি) হাফেজ আহম্মদ জানান, গত বুধবার একই আদালতে যুক্তিতর্ক শুনানি শেষ হয়েছে। সফিউল্যাহ হত্যা মামলার অভিযুক্ত আসামি সোহেল, রাব্বি, রনি ও সাকিব। রাব্বি, রনি ও সাকিবকে শিশু আদালতে অভিযুক্ত রয়েছে।

মামলার কাগজপত্রের তথ্য অনুযায়ী, ২০১৯ সালের ২৯ মে বৃহস্পতিবার রাতে শহরের বারাহীপুর গাজীক্রস রোডের হাসান আলী ভূঁঞা বাড়ির পাশে হক ম্যানশন থেকে সফিউল্যাহর মরদেহ উদ্ধার করে পুলিশ। ঘটনার দিন দেড় ভরি স্বর্ণ ও নগদ এক লাখ টাকা লুট করে আসামিরা। তার গ্রামের বাড়ি সোনাগাজী উপজেলার বগাদানা ইউনিয়নের আলমপুরে। এ ঘটনায় তার ছেলে আবদুল মোতালেব বাদি হয়ে অজ্ঞাত আসামি করে ফেনী মডেল থানায় মামলা করেছিলেন।  

ঘটনায় গ্রেফতারের পর জড়িত থাকার কথা স্বীকার করে রাব্বি, রনি ও সাকিব অতিরিক্ত চিফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট তৌহিদুল হক ও সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট জাকির হোসাইনের আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেন।

চলতি বছরের ২৯ এপ্রিল মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই হাবিবুর রহমান চৌধুরী অভিযোগপত্র জমা দেন। অভিযোগপত্রে জেলা ও দায়রা জজ আদালতে এক আসামি সোহেল ও শিশু আদালতে অপর তিন আসামিকে অভিযুক্ত করা হয়েছে। গত ৩০ সেপ্টেম্বর অভিযোগ গঠন করেন সিনিয়র জেলা ও দায়রা জজ ড. বেগম জেবুন্নেছা। গত ১৩ অক্টোবর মামলার বাদি আবদুল মোতালেবের প্রথম সাক্ষ্য নেওয়া হয়। এ মামলায় ১৮ জন আদালতে সাক্ষ্য দিয়েছেন।

বাংলাদেশ সময়: ১২৫৫ ঘণ্টা, জানুয়ারি ১৭, ২০২১
এসএইচডি/এনটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa