bangla news

হত্যা মামলায় স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতাসহ ৩ জন কারাগারে

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-১১-০৪ ৪:২৯:০৯ পিএম
খোরশেদ আলম সৈকত

খোরশেদ আলম সৈকত

জয়পুরহাট: জয়পুরহাটে বালু ব্যবসায়ী রেজওয়ান হোসেন হত্যা মামলায় জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সাধারণ সম্পাদক খোরশেদ আলম সৈকতসহ তিন জনকে কারাগারে পাঠিয়েছেন আদালত। 

সোমবার (০৪ নভেম্বর) দুপুরে জয়পুরহাট চিফ জুডিসিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে জামিনের আবেদন করলে বিচারক তৌফিকুল ইসলাম জামিন নামঞ্জুর করে এ নির্দেশ দেন।

খোরশেদ জয়পুরহাট সদর উপজেলার হেলকুন্ডা গ্রামের খাজামদ্দীন মণ্ডলের ছেলে ও পুরানাপৈল ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান। 

অন্য দুই আসামি হলেন- খোরশেদ আলম সৈকতের ছোট ভাই মহসিন আলী ও একই উপজেলার বড় তাজপুর হাজিপাড়া গ্রামের মৃত নাজির উদ্দীনের ছেলে আশরাফ আলী।

মামলা সূত্রে জানা গেছে, গত ২২ সেপ্টেম্বর দুপুরে ব্যাটারিচালিত একটি অটোরিকশায় করে পাঁচবিবি উপজেলা শহরে যাচ্ছিলেন জয়পুরহাট সদর উপজেলার বড় তাজপুর হাজিপাড়া গ্রামের বাসিন্দা সালাম মূহুরীর ছেলে বালু ব্যবসায়ী রেজওয়ান হোসেন। পথে কদমতলী জিয়ার মোড় এলাকায় বালু ব্যবসার কোন্দল নিয়ে স্বেচ্ছাসেবক নেতা খোরশেদের নেতৃত্বে ১২-১৬ জন সন্ত্রাসী দেশীয় অস্ত্র দিয়ে প্রকাশ্যে কুপিয়ে তাকে হত্যা করেন। 

এ ঘটনায় ২৪ সেপ্টেম্বর নিহতের মা রোজিনা বেগম বাদী হয়ে পাঁচবিবি থানায় খোরশেদ ও তার ছোট ভাই মহসিন এবং আশরাফসহ ১০ জনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাত আরও ৫/৬ জনকে আসামি করে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। পরে উল্লেখিত তিন আসামি ৩১ অক্টোবর উচ্চ আদালত থেকে দুই সপ্তাহের জন্য শর্ত সাপেক্ষে জামিন নিয়ে আসেন। 

অবশেষে সোমবার নিম্ন আদালতে স্থায়ী জামিনের আবেদন করলে বিচারক তাদের জামিন নামঞ্জুর করে কারাগারে পাঠানো আদেশ দেন। 

উল্লেখ্য, এজাহার নামীয় অন্য সাত আসামি এখনো পলাতক রয়েছেন।

বাংলাদেশ সময়: ১৬২৫ ঘণ্টা, নভেম্বর ০৪, ২০১৯
এসআরএস 

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   আদালত জয়পুরহাট
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

আইন ও আদালত বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত

Alexa
cache_14 2019-11-04 16:29:09