ঢাকা, শুক্রবার, ১৫ শ্রাবণ ১৪২৮, ৩০ জুলাই ২০২১, ১৯ জিলহজ ১৪৪২

আইন ও আদালত

বরিশালে হত্যার দায়ে মাদ্রাসা ছাত্রের মৃত্যুদণ্ড

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৯২২ ঘণ্টা, জানুয়ারি ২৫, ২০১৭
বরিশালে হত্যার দায়ে মাদ্রাসা ছাত্রের মৃত্যুদণ্ড

বরিশাল:  বোনকে উত্ত্যক্ত করার প্রতিবাদ করায় আল-আমিন নামে এক যুবককে হত্যার দায়ে বরিশালে মাহমুদ হাসান হাফিজ নামে এক মাদ্রাসা ছাত্রকে মৃত্যুদণ্ডাদেশ দিয়েছেন আদালত।

বুধবার (২৫ জানুয়ারি) বরিশালের দ্বিতীয় অতিরিক্ত দায়রা জজ আদালতের বিচারক রকিবুল ইসলাম ফাঁসিতে ঝুলিয়ে মৃত্যুদণ্ড কার্যকরের আদেশ দেন।

দণ্ডপ্রাপ্ত মাহমুদ হাসান হাফিজ ঝালকাঠি জেলার গুয়াটন এলাকার বাসিন্দা মাওলানা আব্দুস সোবাহানের ছেলে।

ঘটনার সময় তিনি বরিশাল নগরীর কাশিপুর দীঘিরপাড় এলাকার এতিমখানা ও হাফেজি মাদ্রাসায় অধ্যয়নরত ছিলেন। রায় ঘোষণার সময় মাহমুদ হাসান হাফিজ অনুপস্থিত থাকলেও সোলায়মান, নাজমুল ও মাইদুল আদালতে উপস্থিত ছিলেন।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, মাদ্রাসা সংলগ্ন এলাকায় হানিফ হাওলাদার তার স্ত্রী-সন্তানদের নিয়ে বসবাস করতেন। স্কুলে যাওয়া-আসার পথে হানিফের দুই মেয়েকে প্রায়ই উত্ত্যক্ত করতেন মাহমুদ হাসান ও তার সহপাঠীরা।

২০০৬ সালের ৩০ ডিসেম্বর সকালে স্কুলে যাওয়ার পথে হানিফের দুই মেয়েকে উত্ত্যক্ত করে মাহমুদ হাসান ও তার সহপাঠীরা। এসময় হানিফ তার ছেলে আল-আমিনকে নিয়ে প্রতিবাদ করতে মাদ্রাসায় যান। এতে আসামিরা ক্ষিপ্ত হয়ে আল আমিনকে গলা কেটে হত্যা করে।

ওই দিনই সন্ধ্যায় বরিশাল কোতোয়ালি মডেল থানায় এ ঘটনায় হাফিজসহ ৬ সহপাঠীর বিরুদ্ধে হানিফ হাওলাদারের স্ত্রী আকলিমা বেগম বাদী হয়ে মামলা দায়ের করেন।

মামলা দায়েরের সাড়ে ৫ মাস পর কোতোয়ালি মডেল থানার উপ পরিদর্শক (এসআই) মোশারেফ হোসেন আসামিদের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র দাখিল করেন। রাষ্ট্রপক্ষ ২৬ জনের মধ্যে ১২ জনের সাক্ষ্যগ্রহণ শেষে এ রায় দেন।

এদিকে, অভিযোগ প্রমাণিত না হওয়ায় অপর আসামি সোলায়মান, নাজমুল, মাইদুল, সাহিদুল ও জাহিদুলকে বেকসুর খালাস দেওয়া হয়।

দণ্ডপ্রাপ্ত আসামি পলাতক থাকায় তার বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করা হয়েছে।

মামলায় রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন অতিরিক্ত পাবলিক প্রসিকিউটর অ্যাডভোকেট দেলোয়ার হোসেন দিলু এবং আসামিপক্ষে ছিলেন অ্যাডভোকেট শেখ টিপু সুলতান ও মজিবুর রহমান সবুজ।

বাংলাদেশ সময়: ১৫১৮ ঘণ্টা, জানুয়ারি ২৫, ২০১৭

এমএস/আরএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa