ঢাকা, শনিবার, ১৪ মাঘ ১৪২৯, ২৮ জানুয়ারি ২০২৩, ০৫ রজব ১৪৪৪

আইন ও আদালত

গত বছর ১৩২৩ মামলায় লিগ্যাল এইড

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০৪৫ ঘণ্টা, মে ৪, ২০১৫
গত বছর ১৩২৩ মামলায় লিগ্যাল এইড

ঢাকা: গত বছর ১৩২৩টি মামলায় লিগ্যাল এইড দেওয়া হয়েছে। ১২৪১ জন ব্যক্তিকে আইনগত পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।

মোট ৯৮৬টি মামলার নিষ্পত্তি হয়েছে যা ছিল ২০১৩ সালের তুলনায় তিনগুণ। ৯৬টি মামলা আদালতের বাইরে পক্ষগুলোর মধ্যে মীমাংসার মাধ্যমে নিষ্পত্তি করা হয়েছে।

‘জাতীয় আইনগত সহায়তা দিবস’ উপলক্ষে দেশের আপামর জনসাধারণকে এর কার্যক্রম সম্পর্কে সচেতন করার লক্ষে স্টেকহোল্ডারদের সঙ্গে এক মতবিনিময় সভায় এসব তথ্য জানিয়েছে ঢাকা জেলা লিগ্যাল এইড কমিটি।  

২৮ এপ্রিল জাতীয় আইনগত সহায়তা দিবসে ঢাকার সিটি নির্বাচন থাকায় সোমবার (৪ মে) ঢাকা মহানগর দায়রা জজ আদালতের চতুর্থ তলায় জগন্নাথ-সোহেল স্মৃতি মিলনায়তনে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

ঢাকা জেলা জজ এস এম কুদ্দুস জামানের সভাপতিত্বে সভায় মহানগর দায়রা জজ আদালতের বিচারক মো. কামরুল হোসেন মোল্লা, চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট মাহবুবার রহমান, ঢাকা জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি মাসুদ আহমেদ তালুকদার, জেলার সকল নিম্ন আদালতের বিচারক, জেলা ম্যাজিস্ট্রেট ও জেলা পুলিশ সুপারের প্রতিনিধি, জেলা লিগ্যাল এইড কমিটির সদস্য, কোর্ট রিপোর্টার্স অ্যাসোসিয়েশনের সদস্য, লিগ্যাল এইড কমিটির আইনজীবী, বিভিন্ন এনজিও প্রতিনিধি ও লিগ্যাল এইডের সহায়তাভোগকারীরা উপস্থিত ছিলেন।

সভায় ২০১৪ সালের পরিসংখ্যান তুলে ধরে জেলা লিগ্যাল এইড অফিসার সাব্বির মাহমুদ চৌধুরী বলেন, সরকারি খরচে আইনগত সহায়তার মাধ্যমে বর্তমানে দেশের সুবিধাবঞ্চিত জনগোষ্ঠির ন্যায়বিচার প্রাপ্তির পথ সুগম হয়েছে।

লিগ্যাল এইড কমিটির বর্তমান সভাপতি জেলা ও দায়রা জজ কুদ্দুস জামান বলেন, দেশের জনগণের বিচার প্রাপ্তিতে সমান অধিকার নিশ্চিত করা রাষ্ট্রের অপরিহার্য দায়িত্ব। তাই আইনগত সহায়তা কারও অনুকম্পা নয়, এটি তাদের অধিকার।

তিনি বলেন, সরকারি লিগ্যাল এইডের বার্তা দেশের প্রান্তিক জনগণের কাছে পৌঁছে দিতে হলে প্রচারণার বিকল্প নেই।
তিনি সকলকে লিগ্যাল এইডের প্রচারণায় সহায়তা করার অনুরোধ জানান।

বাংলাদেশ সময়: ২০৪৫ ঘণ্টা, মে ০৪, ২০১৫
এমআই/এএসআর

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa