ঢাকা, মঙ্গলবার, ২২ ফাল্গুন ১৪৩০, ০৫ মার্চ ২০২৪, ২৩ শাবান ১৪৪৫

আইন ও আদালত

কিশোরীকে অপহরণ-ধর্ষণের দায়ে দুইজনের যাবজ্জীবন

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৯৩৫ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ১২, ২০২৪
কিশোরীকে অপহরণ-ধর্ষণের দায়ে দুইজনের যাবজ্জীবন

বরিশাল: বরিশালের বাকেরগঞ্জ উপজেলায় কিশোরীকে অপহরণ ও ধর্ষণের মামলায় দুই আসামিকে দুই ধারায় যাবজ্জীবন এবং ১৪ বছর করে কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে। এছাড়া তাদের দেড় লাখ টাকা করে জরিমানাও করা হয়েছে।



সোমবার (১২ ফেব্রুয়ারি) বরিশালের নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালের বিচারক মো. ইয়ারব হোসেন এ রায় ঘোষণা করেন।

দণ্ডিতরা হলেন, বাকেরগঞ্জ উপজেলার পূর্ব ভাতশালা গ্রামের আব্দুল খালেক রাঢ়ির ছেলে আউয়াল রাঢ়ি (৩৫) ও একই উপজেলার ভাতশালা গ্রামের বাসিন্দা আনছার সন্যামতের ছেলে তৌকির সন্যামত (৪০)।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন আদালতের বেঞ্চ সহকারী কাজী মো. হুমায়ুন কবির।

মামলার বরাতে তিনি জানান, ২০১৪ সালের ৭ জুন সন্ধ্যায় প্রেমের সম্পর্কে ১৬ বছর বয়সী এক কিশোরী তার প্রেমিকের সঙ্গে পালিয়ে লঞ্চে চড়ে বাকেরগঞ্জ ডিসি ঘাটে নামে। এরপর প্রেমিক কিশোরীকে লঞ্চঘাটে রেখে টাকা আনতে যায়। এ সময় আউয়ালসহ কয়েকজন মারধর করে কিশোরীকে অপহরণ করে। পরে পশ্চিম ভাতশালা গ্রামের শংকর সাধুর বাড়ির পুকুর পাড়ে নিয়ে তৌকির ও আউয়াল ধর্ষণ করে। এতে কিশোরী মুমুর্ষ অবস্থায় অজ্ঞান হয়ে পুকুর পাড়ে পড়ে যায়। স্থানীয়রা সেখান থেকে কিশোরীকে উদ্ধার করে। পরে তার কাছ থেকে ঘটনা শুনে অভিযুক্ত তৌকির ও আউয়ালকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করে। পরে ওই কিশোরী বাদী হয়ে দুইজনকে আসামি করে বাকেরগঞ্জ থানায় মামলা করে। বাকেরগঞ্জ থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মাছুম তালুকদার একই বছরের ৫ আগস্টে দুইজনকে অভিযুক্ত করে আদালতে চার্জশিট জমা দেন। বিচারক ১০ জনের সাক্ষ্যগ্রহণ শেষে আজ এ রায় ঘোষণা করেন।  

বাংলাদেশ সময়: ১৯২৭ ঘণ্টা, ফেব্রুয়ারি ১২, ২০২৪
এমএস/এএটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।