ঢাকা, বুধবার, ১১ বৈশাখ ১৪৩১, ২৪ এপ্রিল ২০২৪, ১৪ শাওয়াল ১৪৪৫

আইন ও আদালত

কুমিল্লায় পৃথক মামলায় দুইজনের মৃত্যুদণ্ড

ডিস্ট্রিক্ট করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৭৫০ ঘণ্টা, মে ২৫, ২০২৩
কুমিল্লায় পৃথক মামলায় দুইজনের মৃত্যুদণ্ড

কুমিল্লা: কুমিল্লায় ধর্ষণের পর হত্যা ও ডাকাতি করতে গিয়ে হত্যার ঘটনার মামলায় দুইজনকে মৃত্যুদণ্ডের আদেশ দিয়েছেন আদালত। সেই সঙ্গে তাদের ২০ হাজার টাকা করে জরিমানা করা হয়।

বৃহস্পতিবার (২৫ মে) দুপুরে অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ তৃতীয় আদালতের বিচারক রোজিনা খান এ রায় দেন। এই দুই মামলার রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী মো. নুরুল ইসলাম বিষয়টি বাংলানিউজকে নিশ্চিত করেছেন।

দণ্ডপ্রাপ্তরা হলেন- চান্দিনা উপজেলার জরুন্ডা গ্রামের রমিজ উদ্দিনের ছেলে মো. রবিউল ও দেবিদ্বার উপজেলার নবীয়াবাদ গ্রামের আবদুল গফুরের ছেলে আবদুল জলিল।

আইনজীবী মো. নুরুল ইসলাম জানান, ২০১৫ সালে চান্দিনার জরুন্ডা গ্রামে ১১ বছর বয়সী মাসুদকে মাহফিল থেকে ডেকে নিয়ে যায় মো. রবিউল। এরপর মাছের প্রজেক্টের পাশের আলুর খেতে নিয়ে তাকে বলৎকার করা হয়। মাসুদ এই বিষয়ে বাসায় জানাবে বললে তার পরনের লুঙ্গি গলায় পেঁচিয়ে শ্বাসরোধ করে হত্যা করে রবিউল। পরদিন রবিউলের বাবা ও স্বজনরা আলুর খেত থেকে মাসুদের মরদেহ উদ্ধার করে।

অপরদিকে, ২০০৯ সালের চান্দিনার সুহিলপুর ইউনিয়নের নূরপুর গ্রামের মুজিবুর রহমানের বাড়িতে কয়েকজন ডাকাত প্রবেশ করে। মুজিবুর রহমান ডাকাতদের দেখে চিৎকার করলে পরিবারের সদস্যরা তাদের ধাওয়া করেন। এক পর্যায়ে মুজিবুর ডাকাত দলের সদস্য জলিলকে ধাওয়া করে বাড়ির পাশের খালে গিয়ে পিছন থেকে জাপটে ধরেন। এ সময় জলিল মুজিবুরকে ছুরিকাঘাত করেন। খালের পানি থেকে তাকে উঠিয়ে বাড়ি আনলে তার মৃত্যু হয়।

রায় ঘোষণার সময় আসামি রবিউল আদালতে উপস্থিত ছিলেন। অপর আসামি জলিল রায়ের সময় অনুপস্থিত ছিলেন।

বাংলাদেশ সময়: ১৭৪৯ ঘণ্টা, মে ২৫, ২০২৩
এফআর

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।