bangla news

‘তিস্তা আমাদের অধিকার, এনআরসি ভারতের অভ্যন্তরীণ বিষয়’

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৯-১৫ ৫:১২:৪১ এএম
চিত্রকর্ম প্রদর্শনীতে তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ, ছবি: বাংলানিউজ

চিত্রকর্ম প্রদর্শনীতে তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ, ছবি: বাংলানিউজ

কলকাতা: বর্তমানে ভারত বাংলাদেশের মধ্যে যে মৈত্রী, সেটি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং ভারত সরকারের নেতৃত্বে একটি নতুন উচ্চতায় পৌঁছেছে। একইসঙ্গে অর্থনৈতিক, সামাজিক, সাংস্কৃতিক ক্ষেত্রে- অর্থাৎ সবক্ষেত্রেই দুদেশের সম্পর্ক অনেক উন্নত হয়েছে বলে জানিয়েছেন তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ।

তিনি বলেছেন, আমরা চাই তিস্তা সমস্যা দ্রুত বাস্তবায়িত হোক। তিস্তায় দুই দেশের অধিকার আছে। আমি মনে করি দুই দেশের মানুষের কল্যাণে যাতে হয়, সে ধরনের ব্যবস্থাপনা দ্রুত হোক।

তিস্তা নিয়ে পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী তার অবস্থান পরিষ্কার করে দিয়েছেন এমন প্রশ্নে তথ্যমন্ত্রী বলেন, আমার বক্তব্য হবে ভারত সরকারের বক্তব্যের পরিপ্রেক্ষিতে। যুক্তরাষ্ট্র কাঠামোতে ভারত সরকার তার রাজ্যের সঙ্গে কীভাবে বিষয়টা মোকাবিলা করবে, সেটা তাদের ব্যাপার।

এসময় এনআরসি নিয়ে হাছান মাহমুদ বলেন, এটি ভারতের অভ্যন্তরীণ ব্যাপার। এটা নিয়ে আমি এখনই কোনো মন্তব্য করতে চাই না।

শনিবার (১৪ সেপ্টম্বর) কলকাতার ইন্ডিয়ান কাউন্সিল ফর কালচার রিলেশনে (আইসিসিআর) বঙ্গবন্ধুর জন্ম শতবার্ষিকীর প্রাক্কালে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ওপর অঙ্কিত চিত্রকর্ম প্রদর্শনী উদ্বোধন করার পর সাংবাদিকদের প্রশ্নে তিনি এ কথা বলেন।

তথ্যমন্ত্রী বলেন, আগামী বছর বঙ্গবন্ধুর জন্ম শতবর্ষতে ভারতে কিছু অনুষ্ঠানের পরিকল্পনা আছে। ভারত বিশেষ করে কলকাতা আমাদের মুক্তিযুদ্ধের সঙ্গে জড়িয়ে আছে। কলকাতার মানুষ এবং ভারতের মানুষ জড়িয়ে আছে। শুধু কলকাতা নয় কলকাতা দিল্লি দু’জায়গাতেই আমাদের অনুষ্ঠান হবে বঙ্গবন্ধুর জন্ম শতবর্ষে।

আইসিসিআরের অনুষ্ঠান নিয়ে তথ্যমন্ত্রী বলেন, এটি একটি চমৎকার আয়োজন। বিশেষ করে এখানকার শিল্পীরা ছবিগুলো এঁকেছেন অর্থাৎ এখানকার শিল্পীরা বঙ্গবন্ধুকে ধারণ করেছেন। মনের আবেগ দিয়ে ছবি আঁকা, এটি সহজ নয়। এটি প্রথমে মনের গভীরে ধারণ করতে হয়, তুলি দিয়ে আঁকতে হয় বঙ্গবন্ধুকে।  এখানকার শিল্পীরা যে ধারণ করেন, সেটারই বহিঃপ্রকাশ এই চিত্র প্রদর্শনী।

বঙ্গবন্ধুর জন্ম শতবার্ষিকীর প্রাক্কালে তার ওপর অঙ্কিত চিত্রকর্ম নিয়ে ‘বঙ্গবন্ধু ও বাংলাদেশ’ শিরোনামে তিন দিনব্যাপী প্রদর্শনী শনিবার শুরু হয়। । চলবে ১৬ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত। ৪০ জন শিল্পীর ৪০টি ছবি আইসিসিআরে প্রদর্শিত হচ্ছে। সব চিত্রশিল্পী কলকাতার।

বাংলাদেশ সময়: ০৫০৯ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ১৫, ২০১৯
ভিএস/টিএ

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   কলকাতা বাংলাদেশ
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-09-15 05:12:41