ঢাকা, মঙ্গলবার, ১৭ মাঘ ১৪২৯, ৩১ জানুয়ারি ২০২৩, ০৮ রজব ১৪৪৪

ইচ্ছেঘুড়ি

সেরালি-৩

ভূত-দেবতার চালাকি | বিএম বরকতউল্লাহ্

| বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৫৫৯ ঘণ্টা, নভেম্বর ১২, ২০১৭
ভূত-দেবতার চালাকি | বিএম বরকতউল্লাহ্ ভূত-দেবতার চালাকি

[পূর্বপ্রকাশের পর]
​ভূত-দেবতার চালাকি
এই ভূত-দেবতার আছে গোটা চল্লিশেক স্ত্রী আর আছে অসংখ্য ছেলে-মেয়ে, নাতি-পুতি। তার আছে এক সন্তানসম্ভবা স্ত্রী। সে ভাবছে- আরে, আমি তো আমার ওই স্ত্রীকে দিয়েই কায়দা মতো কাজটা সেরে ফেলতে পারি। আমার স্ত্রীকে তাড়াতাড়ি পাঠিয়ে দিই না কেনো সেরালির ঘরে!

ভূত-দেবতা সেরালিকে ডেকে বললো, সেরালি, তুই আর চেঁও মেঁও করিস না তো। আমি থাকতে তোর এতো চিন্তা কীসের? আমার কাছে এসে তারাই খালি হাতে ফেরত যায়, যারা আমার দেওয়া নিয়ম মানতে পারে না, আমার কথার অমান্য করে আর প্রয়োজনে টাকা খরচ ইতঃস্তত করে, তারা।

তোকে তো দেখি এর বিপরীত। যাহ্, সন্তান তুই পাবি। ঠিকমতো তোর স্ত্রীর যতœ-আত্তি করবি। কোনো রকম অবজ্ঞা-অবহেলা আর অনিয়ম করলে তুই সন্তান পাবি না। যা, তুই এখন বাড়ি চলে যা।

সেরালি কৃতজ্ঞচিত্তে আবেগ-অভিমানে দেবতাকে বললো, হে আমার প্রাণপ্রিয় দেবতা, আমি এতদিন কেন যে তোমার সন্ধান পাইনি, তোমার মতো দয়ালু দেবতাকে চিনিনি; নিশ্চই আমি পাপী, হতভাগা। কেন আমি এভাবে ঠকে ঠকে এসেছি। আমি যদি আগে তোমার সন্ধান পেতাম তা হলে তো এতদিনে আমি সন্তান দিয়ে আমার ঘরবাড়ি সব ভরে ফেলতে পারতাম। আমাকে আজ নিঃসন্তান হয়ে পথে-ঘাটে ঘুরে মরতে হতো না।  

আর মানুষের মুখে এত অপ্রিয় কথা শুনতে হতো না। ছিঃ কত বোকা ছিলাম আমি, ছিঃ!

দেবতা বললেন, তোর আশা পূর্ণ হোক।
সেরালি অদৃশ্য দেবতার উদ্দেশ্যে উপরের দিকে মুখ তুললো। সে বারবার হাত জোড় করে কুর্নিশ করতে করতে বাড়ির দিকে রওয়ানা দিলো। সেরালির মনে বেজায় আনন্দ।  

চলবে….

***ভূতপাহাড়ের ভূত-দেবতা | বিএম বরকতউল্লাহ্
***সেরালি | বিএম বরকতউল্লাহ্

বাংলাদেশ সময়: ২১৫০ ঘণ্টা, নভেম্বর ১২, ২০১৭
এএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa