bangla news

প্রবাসে শিশুদের ভিন্নধর্মী ঈদুল আজহা

|
আপডেট: ২০১০-১১-২২ ৮:৩২:৪৮ এএম

ঈদের সকালে গ্রামের পাশ দিয়ে বয়ে যাওয়া নদীতে গোসল করে সবার সঙ্গে ঈদের নামাজ আদায় করার আনন্দটাই অন্যরকম। যুক্তরাষ্ট্রে বসবাসকারীরা এ আনন্দ উপভোগ করতে না পারলেও সব বাঙালিদের সঙ্গে ঈদ কাটানোর আনন্দ তাদের এ কষ্টটা ভুলিয়ে দেয়।

নিউইয়ার্ক থেকে: ঈদের সকালে গ্রামের পাশ দিয়ে বয়ে যাওয়া নদীতে গোসল করে সবার সঙ্গে ঈদের নামাজ আদায় করার আনন্দটাই অন্যরকম। যুক্তরাষ্ট্রে বসবাসকারীরা এ আনন্দ উপভোগ করতে না পারলেও সব বাঙালিদের সঙ্গে ঈদ কাটানোর আনন্দ তাদের এ কষ্টটা ভুলিয়ে দেয়। আর বড়দের সঙ্গে ভিনদেশে শিশুদের ঈদ আনন্দটাও বিচিত্র। যুক্তরাষ্ট্র হলে কী হবে? ঈদের দিনে বাবা আর অভিভাবকদের সঙ্গে ঈদের নামাজ আদায় করে এই সব শিশুরা।

উল্লেখ্য, গত ১৬ নভেম্বর যুক্তরাষ্ট্রে উদযাপিত হয় ঈদুল আযহা। তবে অনেক জায়গায় ১৭ নভেম্বরও ঈদ উদযাপিত হয়েছে। আত্মীয়-স্বজনের মাধ্যমে দেশে কোরবানি দিলেও যুক্তরাষ্ট্রে কোরবানি দিয়েছেন অনেকেই। তবে দেশের সবাই মিলে একসঙ্গে কোরবানি দেওয়া জন্য শিশুরা যে আনন্দ করার সুযোগ পেতো যুক্তরাষ্টে তার পুরো উল্টো। নতুন প্রজন্মের অনেক শিশুই জানে না ‘কেন কোরবানি দিতে হয়?’ তারপরও পশু কোরবানি দেখতে ওদের কাছে খুবই মজা লাগে। এমনটাই জানালো নিউজার্সিতে বসবাসকারী ৮ বছরের শিশু সারোয়ার মাহমুদ।

তবে বাংলাদেশের টিভি চ্যানেলগুলোতে ঈদ আয়োজনগুলো কোনোভাবেই মিস করে না যুক্তরাষ্ট্রের শিশুরা। বড়দের সঙ্গে তারাও উপভোগ করে মজার মজার সব বিনোদনমূলক অনুষ্ঠান। ঈদের নামাজ, সুস্বাদু সব খাবার আর টিভি অনুষ্ঠানের ফাঁকে অনেকে চলে যান দূরের ভ্রমণে।

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

ইচ্ছেঘুড়ি বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত

Alexa
db 2010-11-22 08:32:48