ঢাকা, শুক্রবার, ১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১, ২৪ মে ২০২৪, ১৫ জিলকদ ১৪৪৫

ইসলাম

আমেরিকায় মসজিদ প্রাঙ্গণে ভালোবাসার বার্তা ছড়িয়ে দিলো অমুসলিমরা

ইসলাম ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৫১২ ঘণ্টা, নভেম্বর ২২, ২০১৬
আমেরিকায় মসজিদ প্রাঙ্গণে ভালোবাসার বার্তা ছড়িয়ে দিলো অমুসলিমরা ছবি: সংগৃহীত

আমেরিকার পূর্বাঞ্চলীয় অঙ্গরাজ্য ভার্জিনিয়ার এক মসজিদ প্রাঙ্গণে ভালোবাসার বার্তা ছড়িয়ে দিলো অমুসলিমরা। ওইসব বার্তায় লেখা হয়েছে, ‘আমরা তোমাদের ভালোবাসি,’ ‘তোমরা আমাদের ভাই-বোন,’ ‘আমরা তোমাদের সঙ্গে আছি’।

আমেরিকার পূর্বাঞ্চলীয় অঙ্গরাজ্য ভার্জিনিয়ার এক মসজিদ প্রাঙ্গণে ভালোবাসার বার্তা ছড়িয়ে দিলো অমুসলিমরা। ওইসব বার্তায় লেখা হয়েছে, ‘আমরা তোমাদের ভালোবাসি,’ ‘তোমরা আমাদের ভাই-বোন,’ ‘আমরা তোমাদের সঙ্গে আছি’।

স্বেচ্ছায় বিভিন্ন রঙের চক দিয়ে মসজিদ প্রাঙ্গণ, মসজিদ সংলগ্ন ফুটপাত ও মসজিদের রাস্তায় এসব লিখেছেন অমুসলিমরা। লেখার ফাঁকে ফাঁকে তারা জুড়ে দিয়েছেন ভালোবাসার ‘হার্ট’ চিহ্ন।  

প্রতিবেশি অমুসলিমদের কাছ থেকে এমন প্রেম, ভালোবাসা, সহানুভূতি ও সমর্থন পেয়ে স্থানীয় মুসলমানরা বেশ খুশি। ২০ নভেম্বর ভার্জিনিয়ার শ্যানটিলি অঞ্চলের মোবারক মসজিদ প্রাঙ্গণে এ চিত্র দেখা যায়।  


ভালোবাসা ও সৌহার্দ্যে ভরপুর এমন অনুভূতি দেখে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে মুসলমানরা উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেছেন।  

তারিক আমজাদ নামের একজন মুসলমান প্রথমে ছবিসহ খবরটি টুইট করে জানান। তিনি টুইট বার্তায় বলেন, সকালে নামাজের জন্য মসজিদের গলিতে পৌঁছে প্রথমে বিষয়টি আঁচ করতে পারিনি। পরে মসজিদ প্রাঙ্গণের রাস্তায় কিছু লেখা দেখা যায়। সেগুলো খুব স্পষ্টভাবে বোঝা যাচ্ছিল না। পরে নামাজ শেষে খেয়াল করি। কে লিখেছে এমন কথা ভাবতে ভাবতেই দেখা যায়, এক জায়গায় লেখা রয়েছে- আমরা বিশ্বাস করি, তোমরা উত্তম প্রতিবেশি। তোমরা আমেরিকার পরিবর্তনে চিন্তা করো না। আমরা তোমাদের সঙ্গে আছি।  

হাফিংটন পোস্ট জানিয়েছে, এ এলাকায় মুসলমানদের বসবাস প্রায় ৩০ বছর ধরে। মসজিদটি তারা নির্মাণ করেছে প্রায় বছর পাঁচেক হলো। এই মসজিদের বৈশিষ্ট্য হলো, এটি সবার জন্য উন্মুক্ত। প্রচুর ভিন্নধর্মাবলম্বী মসজিদটি দেখতে আসেন।  

কাসেম হাসান নামের এক মুসলিম যুবক বিষয়টি নিয়ে টুইট করেছেন। তিনি বলেছেন, এমন ভালোবাসার মুহূর্ত বিরল। আমি তো কেঁদেই ফেলেছি। এমন ভালোবাসা ও বিস্ময়কর সহানুভূতি পেয়ে নিজেকে বেশ সুখী মনে হচ্ছে।

বাংলাদেশ সময়: ২১০৯ ঘণ্টা, নভেম্বর ২২, ২০১৬
এমএইউ/

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।