ঢাকা, মঙ্গলবার, ১১ আষাঢ় ১৪২৬, ২৫ জুন ২০১৯
bangla news

মোবাইল নামাজ ঘর!

1067 |
আপডেট: ২০১৫-০২-২১ ৭:২৩:০০ এএম

বিশ্বের অন্যতম পরাশক্তি রাশিয়ার রাজধানী মস্কোয় মুসলমানদের চাহিদা অনুযায়ী যথেষ্ট পরিমাণ মসজিদ ও নামাজের স্থান না থাকার ফলে সেদেশের মুসলমানেরা মোবাইল বা ভ্রাম্যমাণ নামাজ ঘর নির্মাণের পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে।

বিশ্বের অন্যতম পরাশক্তি রাশিয়ার রাজধানী মস্কোয় মুসলমানদের চাহিদা অনুযায়ী যথেষ্ট পরিমাণ মসজিদ ও নামাজের স্থান না থাকার ফলে সেদেশের মুসলমানেরা মোবাইল বা ভ্রাম্যমাণ নামাজ ঘর নির্মাণের পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে।

পরিকল্পনা বাস্তবায়নের লক্ষ্যে মস্কোর মুসলমানরা বর্তমানে চাকা সিস্টেম রুম ক্রয় করার জন্য অনুদান সংগ্রহ করছে। চাকা সিস্টেম রুমগুলো গাড়ী দিয়ে টেনে শহরের বিভিন্ন স্থানে স্থানান্তরিত করা যাবে। অচিরেই মস্কোর বিভিন্ন রাস্তায় দেখা যাবে, এসব ভ্রাম্যমান নামাজ ঘর।

ভ্রাম্যসান এসব নামাজ ঘরগুলোর মধ্যে অজু করারও ব্যবস্থা থাকবে এবং এগুলো শহরের বিভিন্ন স্থানে ভ্রাম্যমাণ নামাজ ঘর হিসেবে ব্যবহার করা হবে। প্রতিটি নামাজ ঘরের সঙ্গে থাকবেন একজন করে ইমামও।

মস্কোর মুফতি পরিষদের প্রধান মুফতি রাভিল গাইনুদ্দিন মুসলমানদের নামাজ আদায়ের সমস্যা সমাধানের লক্ষ্যে এ আকর্ষণীয় প্রকল্পের প্রস্তাব দিয়েছেন। তবে তিনি এটাও বলেছেন যে, এসব সকল ভ্রাম্যমাণ নামাজ ঘর স্থায়ীভাবে নির্মিত মসজিদের স্থান পূরণ করতে পারবে না।

বর্তমানে মস্কোতে প্রায় ২০ লাখ মুসলমান বসবাস করছে এবং এ সব মুসলমানদের জন্য এ শহরে মাত্র চারটি মসজিদ রয়েছে।

রাশিয়ায় বিভিন্ন চরমপন্থি গ্রুপ এবং কিছু সরকারী কর্মকর্তার বিরোধিতার কারণে সেদেশে নতুন মসজিদ নির্মাণ সম্ভব হচ্ছে না। ২০১৩ সালে মস্কোর মেয়র নতুন মসজিদ নির্মাণের ক্ষেত্রে বিরোধিতা পোষণ করে বলেন, বর্তমানে মস্কোয় যথেষ্ট পরিমাণে মসজিদ রয়েছে। তখন অবশ্য তার বক্তব্য নিয়ে বেশ হইচই হয়েছিল।

বর্তমানে রাশিয়ান ফেডারেশনে মোট জনসংখ্যা ১৪ কোটি ৫০ লাখ এবং এর মধ্যে প্রায় ১৫ শতাংশ অর্থাৎ দুই কোটি ত্রিশ লাখ মুসলমান। ধারণা করা হচ্ছে, ২০৫০ সাল নাগাদ রাশিয়ার মোট জনসংখ্যার মধ্যে মুসলমানের সংখ্যা বৃদ্ধি হয়ে প্রায় ৫০ শতাংশে দাঁড়াবে।

ইসলাম ডেস্ক মেইল: bn24.islam@gmail.com

বাংলাদেশ সময়: ১৮২৪ ঘন্টা, ২১ ফেব্রুয়ারি, ২০১৫

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

ইসলাম বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত

Alexa
db 2015-02-21 07:23:00