ঢাকা, সোমবার, ২১ অগ্রহায়ণ ১৪২৮, ০৬ ডিসেম্বর ২০২১, ০১ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৩

আন্তর্জাতিক

মায়ের রক্তে ভাসছে ঘর, ছেলেকে খুঁজছে পুলিশ! 

আন্তর্জাতিক ডেস্ক  | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৫২৪ ঘণ্টা, অক্টোবর ১৬, ২০২১
মায়ের রক্তে ভাসছে ঘর, ছেলেকে খুঁজছে পুলিশ!  প্রতীকী ছবি

স্বপ্না চন্দ। পেশায় নার্স।

তার স্বামী পরকীয়া সম্পর্কে জড়িয়ে অন্য নারীর সঙ্গে থাকেন। তাই শাশুড়িকে নিয়ে জীবন কাটছিল স্বপ্নার।  

বৃহস্পতিবার স্বপ্নাকে একাধিকবার ফোন করেন তার ভাই। কিন্তু কেউ ফোন ধরছিল না। পরে প্রতিবেশীদের বিষয়টি জানান তিনি। তারা গিয়ে ডাকাডাকি করেও কোনো সাড়া পায়নি। খবর পেয়ে পুলিশ গিয়ে দরজা ভেঙে দেখে, রক্তে ভেসে যাচ্ছে গোটা ঘর।  

হিন্দুস্তান টাইমসের প্রতিবেদনে বলা হয়, ঘটনাটি ভারতের পশ্চিমবঙ্গের হাওড়া জেলার উলুবেড়িয়ায়। স্বপ্না নিহত হলেও তার শাশুড়ি মীরা চন্দ বেঁচে আছেন। তবে আশঙ্কাজনক অবস্থায় তাকে উলুবেড়িয়া হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

মীরা চন্দ জানিয়েছেন, তাদের বাড়িতে কয়েকজন অপিরিচিত লোক ঢুকেছিল। এরপর হামলার ঘটনা ঘটে।  

স্বপ্না চন্দের ভাই জানান, তিনি এসে দেখেন, ঘরের মধ্যে ফ্যান-লাইট সবই চলছিল। কিন্তু কারও কোনো সাড়া মেলেনি। তাই পুলিশে খবর দেওয়া হয়। দরজা ভেঙে দেখা যায়, রক্তাক্ত অবস্থায় বোন ও তার শাশুড়ি পড়ে আছেন। সম্ভবত ধারালো কিছু দিয়ে তাদের কোপ দেওয়া হয়েছে।  

জানা গেছে, স্বপ্না চন্দের এক ছেলে ও এক মেয়ে। বাজারে প্রচুর দেনা রয়েছে ছেলের। অনেকদিন ধরেই বাড়িতে থাকতেন না তিনি। মেয়ে আগেই মারা গেছে। পুলিশ এবার সেই ছেলের খোঁজে তল্লাশি চালাচ্ছে।

বাংলাদেশ সময়: ১৫২৪ ঘণ্টা, অক্টোবর ১৬, ২০২১
জেএইচটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa