[x]
[x]
ঢাকা, সোমবার, ৭ কার্তিক ১৪২৫, ২২ অক্টোবর ২০১৮
bangla news

উত্তর কোরিয়ার মিডিয়ায় ট্রাম্প-কিমের বৈঠক

আন্তর্জাতিক ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৮-০৬-১৩ ৩:১২:৩৮ এএম
উত্তর কোরিয়ার মিডিয়ায় ট্রাম্প-কিমের বৈঠক

উত্তর কোরিয়ার মিডিয়ায় ট্রাম্প-কিমের বৈঠক

ঢাকা: ট্রাম্প ও কিমের বহুল প্রতীক্ষিত বৈঠকটি ‘উত্তর কোরিয়ার জন্য একটি বড় বিজয়’ বলে উল্লেখ করা হয় দেশটির রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যমে এবং একইসঙ্গে তা উদযাপনও করা হয়। বলা হয়, দেশটির ওপর যুক্তরাষ্ট্রের আরোপিত বেশ কিছু নিষেধাজ্ঞা তুলে নেওয়া হতে পারে।

মঙ্গলবার (১২ জুন) সিঙ্গাপুরে অনুষ্ঠিত যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প এবং উত্তর কোরিয়ার সুপ্রিম লিডার কিম জং উনের ঐতিহাসিক বৈঠকে কোরীয় উপদ্বীপকে পারমাণবিক নিরস্ত্রীকরণ ও দুই কোরিয়ার মধ্যকার উত্তেজনা হ্রাসের জন্য একটি যৌথ ঘোষণায় স্বাক্ষর করেন তারা। 

উত্তর কোরিয়ার ওপর আরোপিত নিষেজ্ঞার বিষয়ে বৈঠকের পর ট্রাম্প জানান, নিষেধাজ্ঞা এখনই তুলে নেওয়া হচ্ছে না। তবে দক্ষিণ কোরিয়ার ও যুক্তরাষ্ট্রের যৌথ সামরিক মহরা বন্ধ করার ইঙ্গিত দেন তিনি। 

বুধবার (১৩ জুন) উত্তর কোরিয়ার পত্রপত্রিকার প্রথম পাতায় স্থান পেয়েছে সিঙ্গাপুরের বৈঠক। পাতা জুড়ে ছাপা হয়েছে কিম ও ট্রাম্পের একাধিক রঙিন ছবি।

রাষ্ট্রীয় পত্রিকা রংডং সিনমুনে এ বৈঠককে আখ্যায়িত করা হয়েছে, ‘দ্য মিটিং অব দ্য সেঞ্চুরি’ অর্থাৎ ‘শতাব্দীর সেরা সাক্ষাত’ হিসেবে। রাষ্ট্রীয় সংবাদ সংস্থা কেসিএনএ এ বৈঠকের প্রশংসা করে ইংরেজিতে একটি আর্টিকেল প্রকাশিত হয়।

উত্তর কোরিয়ার সব ধরনের মিডিয়া কঠোরভাবে সরকারি নিয়ন্ত্রণে পরিচালিত। সেখানে কেবল দেশটির জন্য ইতিবাচক সংবাদ পরিবেশন করে। খুব কম সময়ই সেখানে সুপ্রিম লিডারের প্রাত্যহিক কাজকর্ম প্রকাশিত হয়। 

মঙ্গলবারের বৈঠকে উত্তর কোরিয়া ও যুক্তরাষ্ট্রের স্বাক্ষরিত যৌথ ঘোষণায় কোরীয় উপদ্বীপকে সম্পূর্ণভাবে পারমাণবিক নিরস্ত্রীকরণের কথা বলা হয়েছে। এজন্য উভয় দেশ কাজ করবে এমনও বলা আছে ওই ঘোষণায়।

ট্রাম্প-কিমের এ বৈঠককে দুই দেশের সহযোগিতার মাধ্যমে নতুন সম্পর্ক সৃষ্টির ইঙ্গিত হিসেবে দেখছেন বিশ্লেষকরা। 

বাংলাদেশ সময়: ১৩০৬ ঘণ্টা, জুন ১৩, ২০১৮
এনএইচটি

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache