ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ৬ মাঘ ১৪২৭, ২১ জানুয়ারি ২০২১, ০৭ জমাদিউস সানি ১৪৪২

তথ্যপ্রযুক্তি

জিয়াউর রহমান ফাউন্ডেশন বিজ্ঞান মেলায় জয়ী প্রজেক্ট ৯টি

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০২২১ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ২, ২০২০
জিয়াউর রহমান ফাউন্ডেশন বিজ্ঞান মেলায় জয়ী প্রজেক্ট ৯টি

ঢাকা: জিয়াউর রহমান ফাউন্ডেশনের ভার্চুয়াল বিজ্ঞানমেলায় তিনটি শাখায় ৯টি প্রজেক্টের জন্য ১০ জনকে বিজয়ী ঘোষণা করা হয়েছে।

মঙ্গলবার (১ ডিসেম্বর) যাচাই বাছাই শেষে তিনটি ভার্চুয়াল অনুষ্ঠানের মাধ্যমে তিন শাখার বিজয়ীদের নাম ঘোষণা করা হয়।

‘ক’ শাখায় ‘বায়োমেট্রিক তালা’র জন্য প্রথম এএম মাহদী মাহিন, ‘পলুশন অ্যাবজর্বার’ প্রজেক্টের জন্য দ্বিতীয় জুনাইরাহ আফসিন আলভীর এবং ‘ক্ষুদে মোটর’ প্রজেক্টের জন্য তৃতীয় হন মিফতাহুল জান্নাত।

‘খ’ শাখায় ‘ঢাকার জীবনযাপনের মান উন্নয়ন’ প্রকল্পের জন্য প্রথম স্থান অধিকার করেন তাসনিমা জামান, দ্বিতীয় হন জেরিন তাসনিমের ‘এলপিজি এলার্মিং সিগনাল’ প্রকল্প এবং তৃতীয় নাহিয়ান আলমের ‘স্মার্ট সিটি’ প্রকল্প।

‘গ’ শাখায় প্রথম স্থান অধিকার করেন রকিন হাসান প্রত্যয়ের ‘বন্যা দুর্গত মানুষের পানি সমস্যা সমাধান’ প্রকল্প। দ্বিতীয় হয় শাবাব তাসরিফ জামানের ‘কৃষিকাজে ব্যবহারের জন্য সৌরবিদ্যুৎ চালিত অ্যাগ্রোরোবট’ এবং তৃতীয় হয় সুমাইয়া আক্তার ও সোহাগ সরকারের প্রকল্প ‘খাদ্য নিরাপত্তায় কৃষির ভূমিকা’।

বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমান ও তার সহধর্মিনী ডা. জোবাইদা রহমান, বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য সেলিমা রহমান এবং ড. আব্দুল মঈন খান বিজয়ীদের নাম ঘোষণা করেন ।

জিয়াউর রহমান ফাউন্ডেশনের নির্বাহী পরিচালক প্রফেসর ডা. ফরহাদ হালিম ডোনার জানান, করোনাসহ সকল মহামারী থেকে বাঁচার সমাধান দিতে পারে একমাত্র বিজ্ঞান। এই প্রেক্ষাপটে শিশু-কিশোর ও তরুণ সমাজকে বিজ্ঞানচর্চায় উদ্বুদ্ধ করে ভবিষ্যৎ বিজ্ঞানীর খোঁজে এই বিজ্ঞানমেলা আয়োজন করা হয়। প্রতিযোগীতায় অংশগ্রহণকারী ক্ষুদে বিজ্ঞানীদের প্রজেক্টগুলো ছিল অত্যন্ত বিজ্ঞানসম্মত। প্রজেক্টগুলোতে তাদের সর্বোচ্চ মেধা ও পরিশ্রমের স্বাক্ষর আছে। এই বয়সে তারা যা করেছে তা দেখে সকলে অভিভুত।

বিএনপি চেয়ারপারসনের প্রেস উইংয়ের সদস্য শায়রুল কবির খান বাংলানিউজকে বলেন, প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির উন্নয়নে অত্যন্ত আগ্রহী ছিলেন। ডিজিটাল যুগে বিশ্বের সঙ্গে তাল মিলিয়ে বাংলাদেশকে এগিয়ে নিতে নিয়মিত বিজ্ঞান মেলা আয়োজনের বিকল্প নেই।

এর আগে তিনটি শাখায় গত সেপ্টেম্বর মাসে প্রজেক্ট জমা দেওয়ার আহবান জানিয়ে বিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করা হয়। প্রথমে ৩০ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত সময় দেওয়া হলেও পরে তা বাড়িয়ে ৩১ অক্টোবর পর্যন্ত করা হয়। নভেম্বর মাসে যাচাই বাছাই শেষে তিনটি ভার্চুয়াল অনুষ্ঠানের মাধ্যমে তিন শাখার বিজয়ীদের নাম ঘোষণা করা হয়। দেশের নামকরা বিশ্ববিদ্যালয়ের স্বনামধন্য শিক্ষকরা এ বিজ্ঞানমেলায় অংশগ্রহণকারী প্রতিযোগীদের প্রজেক্টগুলো বিচারের দায়িত্ব পালন করেন।

** জিয়াউর রহমান ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে ভার্চ্যুয়াল বিজ্ঞানমেলা

বাংলাদেশ সময়: ০২০৯ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ০২, ২০২০
এমএইচ/এইচএমএস

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
welcome-ad
Alexa