ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৩ কার্তিক ১৪২৭, ২৯ অক্টোবর ২০২০, ১১ রবিউল আউয়াল ১৪৪২

তথ্যপ্রযুক্তি

এক বছরে ১০ লাখের বেশি গ্রুপ মুছে দিয়েছে ফেসবুক

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১২০৩ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ২৪, ২০২০
এক বছরে ১০ লাখের বেশি গ্রুপ মুছে দিয়েছে ফেসবুক

ঢাকা: গত প্রায় এক বছরে ১০ লাখের বেশি কমিউনিটি গ্রুপ মুছে (ডাউন) দিয়েছে বৃহত্তম সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুক। ফেসবুক কমিউনিটি নীতিমালা অনুসরণ না করে বিভিন্ন ধরনের পোস্ট প্রকাশ করায় এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছে বলে জানিয়েছে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমটি।

সম্প্রতি এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে ফেসবুকের পক্ষে প্রতিষ্ঠানটির প্রকৌশল বিভাগের ভাইস প্রেসিডেন্ট টম এলিসন এ তথ্য জানান। ১০ লাখের বেশি গ্রুপের পাশাপাশি বিভিন্ন গ্রুপে প্রকাশিত প্রায় সাড়ে ১৩ মিলিয়ন কনটেন্টও মুছে দিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি।

টম এলিসন জানান, ফেসবুকের নীতিমালা ভঙ্গ করে কোনো ব্যবহারকারী বা গোষ্ঠী ‘গ্রুপ’ ফিচারের সুবিধা ব্যবহার করে কোনো পোস্ট বা কনটেন্ট শেয়ার করছে কি না সে বিষয়ে কড়া নজর রাখা হচ্ছে। এর জন্য ফেসবুক ব্যবহারকারীদের দায়ের করা ‘রিপোর্ট’ এর পাশাপাশি নিজস্ব আর্টিফিসিয়াল ইন্টেলিজেন্স বা কৃত্তিম বুদ্ধিমত্তা (এআই) প্রযুক্তিও ব্যবহারের আহ্বান করছে। আর নীতিমালা ভঙ্গ করে দেওয়া পোস্টের কারণে গ্রুপ এবং কনটেন্ট মুছে দেওয়ার মতো বিষয়টি ফেসবুক ব্যবহারকারীদের জন্য এক ধরনের সতর্কবার্তা বলেও মনে করা হচ্ছে।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, গত প্রায় এক বছরে বিভিন্ন গ্রুপে প্রকাশিত প্রায় দেড় মিলিয়ন কনটেন্ট মুছে দেওয়া হয়েছে। বিভিন্ন সংগঠনের পক্ষ থেকে এসব কনটেন্ট প্রকাশ করা হয়েছিল। মুছে ফেলা কনটেন্টের মধ্যে প্রায় ৯১ শতাংশ কনটেন্ট ফেসবুক নিজস্ব এআই প্রযুক্তির মাধ্যমে শনাক্ত করেছে।

একই সঙ্গে প্রায় ১২ মিলিয়ন কনটেন্ট ফেসবুক মুছে দিয়েছে ‘হিংসাত্মক বার্তা’ প্রকাশ করার অভিযোগে। এগুলোর মধ্যে প্রায় ৮৭ শতাংশ কনটেন্ট শনাক্ত করেছে ফেসবুকের এআই প্রযুক্তি।

ফেসবুকের পক্ষ থেকে আরও জানানো হয়, প্রাথমিকভাবে কনটেন্ট মুছে ফেলার পরেও গ্রুপগুলো থেকে যদি নীতিমালা ভঙ্গ করে কোনো কনটেন্ট শেয়ার করা বন্ধ না হয় তাহলে পুরো গ্রুপই মুছে দেওয়া হয়। এ অভিযোগে বিশ্বজুড়ে প্রায় ১০ লক্ষাধিক গ্রুপ মুছে দেওয়া হয়েছে।

টম এলিসন বলেন, ফেসবুককে আমরা ব্যবহারকারীদের জন্য নিরাপদ রাখতে চাই। একইসঙ্গে গ্রুপ সদস্যদেরও আমরা নিরাপদ রাখতে চাই। আমরা চাই এটাকে নিরাপদ রাখতে, এ জন্য আমাদের আরও কিছু করার আছে এবং সেগুলো করবো। এর জন্য আমরা আমাদের প্রযুক্তি এবং নীতিমালাগুলোতে আরও উন্নয়ন সাধন করার চেষ্টা করছি।

বাংলাদেশ সময়: ১২০০ ঘণ্টা, সেপ্টেম্বর ২৪, ২০২০
এসএইচএস/ওএইচ/

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa