bangla news

প্রযুক্তিভিত্তিক নগরীর নেতৃত্ব দেবে রুয়েট: ড. সাজ্জাদ হোসেন

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-১২-২০ ১:৪১:২১ এএম
অনুষ্ঠানে বক্তব্য দেন ইউজিসি সদস্য অধ্যাপক ড. সাজ্জাদ হোসেন। ছবি: বাংলানিউজ

অনুষ্ঠানে বক্তব্য দেন ইউজিসি সদস্য অধ্যাপক ড. সাজ্জাদ হোসেন। ছবি: বাংলানিউজ

রাজশাহী: বাংলাদেশ বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশনের (ইউজিসি) সদস্য ও তথ্যপ্রযুক্তিবিদ অধ্যাপক ড. মো. সাজ্জাদ হোসেন বলেছেন, নানা উদ্যোগে রাজশাহী ভবিষ্যতে প্রযুক্তিভিত্তিক নগরী হিসেবে প্রতিষ্ঠা পাবে। আর এর নেতৃত্ব দেবে রাজশাহী প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয় (রুয়েট)। এখান থেকেই তাদের কাজ ছড়িয়ে পড়বে বিশ্বজুড়ে। 

বৃহস্পতিবার (১৯ ডিসেম্বর) বিকেলে রুয়েট মিলনায়তনে আয়োজিত ‘সত্য-মিথ্যা যাচাই আগে, ইন্টানেটে শেয়ার পরে’ শীর্ষক এক কর্মশালায় বিশেষ অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। 

অধ্যাপক ড. সাজ্জাদ হোসেন বলেন, রাজশাহীতে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব হাইটেক পার্ক স্থাপন করা হচ্ছে। রুয়েটে ইন্টারনেট অব থিংস (আইওটি) ল্যাব ও মোবাইল গেইমস অ্যান্ড অ্যাপস ডেভেলপমেন্ট সেন্টার ল্যাব স্থাপন করা হয়েছে। ডিজিটাল বাংলাদেশ বাস্তবায়নে এটি আরেকটি ধাপ। 

অনুষ্ঠানে উপস্থিত অতিথিরা।

‘চতুর্থ শিল্পবিপ্লব হবে আইওটি’র মতো প্রযুক্তিকে কেন্দ্র করে। বিশ্বের অগ্রবর্তী দেশগুলোর মতো আমাদের তরুণরাও ক্রমবর্ধমান প্রযুক্তিকে কাজে লাগিয়ে নানা প্রযুক্তিপণ্য উদ্ভাবন করবে। যা দেশ-বিদেশের মানুষের কল্যাণে কাজে দেবে। আর তা অবশ্যই সম্ভব।’

তিনি বলেন, আমাদের রয়েছে বিপুল তরুণ জনগোষ্ঠী। এই তরুণদের বিজ্ঞান ও প্রযুক্তিতে দক্ষ করে তুলতে হবে। তাদের মোটিভেশন করতে হবে। তবেই দেশে-বিদেশে নেতৃত্ব দিতে পারবে তারা। 

‘বঙ্গবন্ধু সোনার বাংলা প্রতিষ্ঠার স্বপ্ন দেখেছিলেন। তার কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ডিজিটাল বাংলাদেশ উপহার দিয়ে এক নবদিগন্তের উন্মোচন করেছেন। ডিজিটাল রূপান্তরের মূল কারিগর হিসেবে কাজ করছেন সজীব ওয়াজেদ জয়। তাদের প্রচেষ্টায় গত ১০-১১ বছরে ডিজিটাল সেবার সুফল ভোগ করছে দেশের মানুষ।’

অনুষ্ঠানে অতিথিরা। ছবি: বাংলানিউজ

তথ্যপ্রযুক্তিবিদ ড. সাজ্জাদ হোসেন বলেন, আমাদের শিক্ষার্থীরা যাতে তাদের উদ্ভাবনী ভাবনা ও শক্তি দিয়ে নিজেদের উদ্যোক্তা হিসেবে প্রতিষ্ঠা করতে পারে সেজন্য বিশ্ববিদ্যালয়গুলোকে ভূমিকা রাখতে হবে।  বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষকদেরও গবেষণা বাড়াতে হবে। তা অবশ্যই আন্তর্জাতিকমানের। গবেষকদের প্রণোদনা ও তাদের উদ্ভাবনের প্যাটেন্ট নিয়েও কাজ করা হচ্ছে। 

অনুষ্ঠানের এক পর্যায়ে রুয়েটে স্থাপিত ‘ইন্টারনেট অব থিংস (আইওটি) ল্যাব ও মোবাইল গেইমস অ্যান্ড অ্যাপস ডেভেলপমেন্ট সেন্টার ল্যাবের উদ্বোধন করা হয়। তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের অর্থায়নে প্রায় পাঁচ কোটি টাকা ব্যয়ে এ ল্যাব দু’টি নির্মিত হয়েছে।

রুয়েটের উপাচার্য অধ্যাপক মো. রফিকুল ইসলাম শেখের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন আইসিটি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক। এতে স্বাগত বক্তব্য দেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব হাইটেক পার্ক প্রকল্পের পরিচালক এ কে এ এম ফজলুল হক।  

বাংলাদেশ সময়: ০১৪২ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ১৯, ২০১৯
এসএস/এমএ

ক্লিক করুন, আরো পড়ুন :   রুয়েট তথ্যপ্রযুক্তি
        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

তথ্যপ্রযুক্তি বিভাগের সর্বোচ্চ পঠিত

Alexa
cache_14 2019-12-20 01:41:21