ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ১৩ আষাঢ় ১৪২৬, ২৭ জুন ২০১৯
bangla news

বিটিসিএলের গ্রাহকসেবার অটোমেশন করার নির্দেশ

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২০১৯-০৪-০৪ ৮:৪৩:৪৮ পিএম
বিটিসিএল সদর দপ্তরে সংস্থার কর্মকর্তাদের সঙ্গে তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বারের মতবিনিময়

বিটিসিএল সদর দপ্তরে সংস্থার কর্মকর্তাদের সঙ্গে তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বারের মতবিনিময়

ঢাকা: নির্বিঘ্ন গ্রাহকসেবা নিশ্চিত, বিদ্যমান জনবলকে আধুনিক প্রযুক্তি উপযোগী করে তৈরি, বিদ্যমান গ্রাহকসেবা রঅটোমেশন করে বিটিসিএলকে জনবান্ধব-লাভজনক প্রতিষ্ঠান হিসেবে গড়ে তোলার জন্য যুতসই কর্মসূচি গ্রহণ এবং বাস্তবায়নের জন্য সংশ্লিষ্টদের নির্দেশ দিয়েছেন ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার। 

বিডি ডোমেইন নিবন্ধন ফি ও টেলিফোন সংযোগের ডিমান্ড নোট পদ্ধতি পরিবর্তনেরও তাগাদা দিয়েছেন মন্ত্রী। ডিমান্ড নোট পদ্ধতির পরিবর্তন ঘটিয়ে অটোমেশন পদ্ধতিতে ঘরে বসেই যাতে গ্রাহকরা সেবা পেতে পারেন এ বিষয়েও তিনি করণীয় বিষয়ে দিক নির্দেশনা দেন।

মন্ত্রী বৃহস্পতিবার (৪ এপ্রিল) ঢাকায় বিটিসিএল সদর দপ্তরে সংস্থার কর্মকর্তাদের সঙ্গে মতবিনিময়কালে এ নির্দেশনা দেন। 

জনবান্ধব ও লাভজনক প্রতিষ্ঠান হিসেবে গড়ে তুলতে সংশ্লিষ্টদের আরো আন্তরিকতা, নিষ্ঠা এবং সর্বোচ্চ সেবার মানসিকতা নিয়ে কাজ করতে হবে বলে জানান মন্ত্রী।

অনুষ্ঠানে বিটিসিএল পরিচালিত বিভিন্ন কর্মকাণ্ড টেলিযোগাযোগ মন্ত্রীকে অবহিত করা হয়। মন্ত্রী প্রতিটি কর্মকাণ্ডের ওপর সুচিন্তিত মতামত ও পরামর্শ দেন।

মোস্তাফা জব্বার বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার গতিশীল নেতৃত্বে বাংলাদেশ বিশ্ব ব্যাংকের হিসাব অনুযায়ী আজ বিশ্বের শীর্ষ পাঁচ ক্রমবর্ধমান অর্থনৈতির দেশের মর্যাদায় অধিষ্ঠিত হয়েছে। অগ্রগতির অগ্রযাত্রা আরও বেগবান করতে ২০২১ সাল থেকে ২০২৩ সালের মধ্যে তারই দিক নির্দেশনায় বাংলাদেশ ৫জি প্রযুক্তির যুগে প্রবেশ করার প্রস্তুতি সম্পন্ন করছে। 

শহর ও গ্রামের মধ্যে ডিজিটাল বৈষম্য যাতে না হয় সেই লক্ষ্যে দেশের ইউনিয়ন পরিষদ পর্যন্ত বিদ্যমান ব্রডব্যান্ড নেটওয়ার্ক ৫জি উপযোগী করার প্রয়োজনীয়তার ওপর গুরুত্বারোপ করেন মন্ত্রী। 

তিনি বিটিসিএলের টেলিফোনভিত্তিক ইন্টারনেট ব্রডব্যান্ড সেবা কীভাবে আরো গ্রাহক আকৃষ্ট করা যায় সে বিষয়ে করণীয় সম্পর্কে সংশ্লিষ্টদের নির্দেশনা দেন। পরিবর্তিত পরিস্থিতিতে সরকারি এ প্রতিষ্ঠানটির আয় বৃদ্ধির বিষয়টির ওপরও তিনি আলোকপাত করেন।

অনুষ্ঠানে ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগের সচিব অশোক কুমার বিশ্বাস এবং বিটিসিএলের ব্যবস্থাপনা পরিচালক হারুন অর রশীদ ও উপ-মহাব্যবস্থাপক খান আতাউর রহমান বক্তব্য রাখেন। 

ডাক ও টেলিযোগাযোগ সচিব যে কোনো অন্যায়ের কাছে মাথা নত না করে প্রতিষ্ঠানটির কর্মকর্তাদের নতুন উদ্যোমে কাজ করার আহ্বান জানান। 

বাংলাদেশ সময়: ২০৩৮ ঘণ্টা, এপ্রিল ০৪, ২০১৯
এমআইএইচ/এএ

        ইউটিউব সাবস্ক্রাইব করুন  

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।

Alexa
cache_14 2019-04-04 20:43:48