ঢাকা, শনিবার, ১৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৭, ২৮ নভেম্বর ২০২০, ১১ রবিউস সানি ১৪৪২

তথ্যপ্রযুক্তি

তরুন উদ্যোক্তার সেরা উদ্যোগ ‘হোস্টমাইট’

আইসিটি ডেস্ক | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৭০৫ ঘণ্টা, জুন ৮, ২০১৪
তরুন উদ্যোক্তার সেরা উদ্যোগ ‘হোস্টমাইট’ জুবায়ের আলম বিপুল

মানসম্মত সেবা প্রদান করায় দেশের সেরা ডোমেইন ও হোস্টিং প্রোভাইডার ‘হোস্টমাইট’। তথ্যপ্রযুক্তিতে কোনোরকম প্রাতিষ্ঠানিক শিক্ষা ছাড়াই কেবল ইন্টারনেট আসক্তি আর আত্নবিশ্বাস থেকে ‘হোস্টমাইট’ গড়ে তোলেন তরুণ উদ্যোক্তা জুবায়ের আলম বিপুল।

  

আজকের এই অবস্থানে আসা প্রসঙ্গে বিপুল বলেন, অন্যান্য প্রতিষ্ঠানের মতো হোস্টমাইটেরও বিনিয়োগ সমস্যা ছিল। পাশাপাশি নানা প্রতিকূলতা ও বিপত্তি অতিক্রম করতে হয়েছে।

তথ্যপ্রযুক্তিভিত্তিক এ ধরনের পরকিল্পনা সম্পর্কে বিপুল জানান, স্কুলজীবনের নিজের একটি ওয়েবসাইট তৈরির স্বপ্ন আজ পরিণত হয়েছে একটি প্রতিষ্ঠানে।

প্রথমদিকে সময় সুযোগ পেলেই সাইবার ক্যাফেতে গিয়ে ইন্টারনেট ব্রাউজিং হতো। পরবর্তিতে মাথায় ঘুরপাক খেতে থাকে ওয়েবসাইট কিভাবে তৈরি হয়। আর সেই থেকেই ইন্টারনেটে বেশিক্ষণ সময় দেওয়া হতো গুগল সার্চ, বিভিন্ন আর্টিকেল, ব্লগপোস্ট পড়ে। এছাড়াও নিয়মিত টিউটোরিয়াল দেখে অনুশীলন করতো বিপুল। ধীরেধীরে ডোমেইন ও হোস্টিং’এ ধারণা আসতে থাকে। কিন্তু বাধা হয়ে দাঁড়ায় অর্থ।

তবে কলেজ জীবনে পড়াশোনার খরচ বাঁচিয়ে নিজের একটি ওয়েবসাইট তৈরি হয়। এবার মনে ভাবনা আসে ডোমেইন ও হোস্টিং ব্যবসায়।

২০১০ সাল তরুণ উদ্যোক্তা বিপুলের স্বপ্ন যাত্রার শুরু। এসময় অন্য একটি প্রতিষ্ঠান থেকে রিসেলারশিপ নিয়ে ‘ওয়ান আইটি বিডি’ নামে সীমিত আকারে ডোমেইন ও হোস্টিং ব্যবসা শুরু করে। আত্নবিশ্বাস আর মানসম্মত সেবার কল্যাণে আশানুরুপ সাড়া আসতে থাকে। ২০১১ সালের প্রথমদিকে আন্তর্জাতিক বাজারে কাজ করার লক্ষ্যে ‘হোস্ট মাইট’ নাম নিয়ে ব্যবসা শুরু করেন। প্রচারণার জন্য বিভিন্ন ব্লগ, ফেসবুক এবং ওয়েবসাইটে বিজ্ঞাপন দেওয়ায় দেশ এবং দেশের বাহিরে দ্রুত গ্রাহক বাড়তে থাকে।

বিপুল বলেন, দেশে পেপ্যাল এবং আন্তর্জাতিক ক্রেডিট কার্ড সহজলভ্য না হওয়ায় প্রতিমাসে সার্ভার বিল দিতে ভোগান্তিতে পড়তে হতো। অন্যের সাহায্যে কয়েকবার পেমেন্ট দেয়া হয়েছিল। পরে অবশ্য ক্রেডিট কার্ড করে নেওয়া হয়।

“ডোমেইন, হোস্টিং, ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্ট মূলত অনলাইননির্ভর। তাই অনলাইন প্রচারণায় বেশি গুরুত্ব দেয় ‘হোস্ট মাইট’। এ ক্ষেত্রে বাংলা ব্লগ সাইট, ফেইসবুক বিজ্ঞাপন, ফেইসবুক গ্রুপকে প্রাধান্য দেওয়া হয়” বলে জানান তরুণ এই উদ্যোক্তা।

নিকুঞ্জ’তে বিপুলের এখন নিজস্ব অফিস। বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষাজীবন এখনও শেষ হয়নি এরমধ্যেই তার প্রতিষ্ঠান দেশে সেরা হয়ে উঠেছে। ওয়েব ডিজাইন ও ডেভেলপমেন্টের কাজও করছেন সফলতার সঙ্গে। ভবিষ্যতে অনলাইননির্ভর বিভিন্ন ব্যবসায় মন দিতে চান  বিপুল।

বাংলাদেশ সময়: ১৭১০ ঘণ্টা, জুন ০৮, ২০১৪

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa