ঢাকা, বুধবার, ৮ শ্রাবণ ১৪৩১, ২৪ জুলাই ২০২৪, ১৭ মহররম ১৪৪৬

তথ্যপ্রযুক্তি

উইচ‌্যাট-ক‌্যাকোটকের মতো ‘আলাপ’কে দেখতে চান পলক

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১৫১৪ ঘণ্টা, জুন ৬, ২০২৪
উইচ‌্যাট-ক‌্যাকোটকের মতো ‘আলাপ’কে দেখতে চান পলক

ঢাকা: চীনের উইচ‌্যাট, দক্ষিণ কোরিয়ার ক‌্যাকোটকের মতো বিটিসিএলের কলিং অ্যাপ ‘আলাপ’কে বাংলাদেশের নিজস্ব একটি সামাজিক যোগাযোগ প্লাটফর্ম গড়ে তোলার প্রয়োজনীয়তার ওপর গুরুত্বারোপ করেছেন ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক।

বৃহস্পতিবার (০৬ জুন) ঢাকায় টেলিযোগাযোগ ভবন মিলনায়তনে বিটিসিএলের কার্যক্রম পর্যালোচনা সভায় এই নির্দেশনা দেন তিনি।

চীনের নিজস্ব সোশ্যাল মিডিয়া উইচ‌্যাট, দক্ষিণ কোরিয়ার ক‌্যাকোটক ইত্যাদির মতো বাংলাদেশের নিজস্ব একটি সামাজিক যোগাযোগ প্লাটফর্ম গড়ে তোলার প্রয়োজনীয়তার ওপর গুরুত্বারোপ করে পলক বলেন, কলিং অ‌্যাপ আলাপকে জনপ্রিয় করার পাশাপাশি জাতীয় সোশ্যাল প্লাটফর্ম তৈরি করার যথেষ্ট সুযোগ আমাদের রয়েছে।

তিনি বলেন, স্মার্ট ব্যবস্থাপনার মাধ্যমে বিটিসিএলের সম্পদের লাভজনক ব্যবহার নিশ্চিত করতে হবে। এই লক্ষ্যে সারা দেশে বিটিসিএলের অব্যবহৃত জমির সুষ্ঠু ব্যবহার, কলিং অ‌্যাপ আলাপের সেবার মান বাড়ানোর মাধ্যমে গ্রাহক বাড়ানো, ব্রডব্যান্ড ইন্টারনেট ‘জীবন’র সেবার আওতা বাড়ানো এবং অন্যান্য অবকাঠামোর পরিকল্পিত ব্যবহার নিশ্চিত করতে হবে।

বিটিসিএলের আলাপ, জীবন এবং অব্যবহৃত ভূমি ও অবকাঠামো কাজে লাগাতে পারলে জাতীয় অর্থনীতিতে অবদান রাখা সম্ভব উল্লেখ করে তিনি বলেন, আলাপের অগ্রগতিতে আমি খুশি, কিন্তু সন্তুষ্ট নই। তিনি আলাপের গ্রাহক সংখ্যা বাড়ানোর জন্য মার্কেটিং ও সার্ভিসিং এ দুটির ঘাটতি রয়েছে বলে উল্লেখ করেন।

তিনি দক্ষতার সঙ্গে স্মার্ট ব্যবস্থাপনার মাধ্যমে বিটিসিএলকে লাভজনক প্রতিষ্ঠানে রূপান্তরের সুযোগ কাজে লাগানোর জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষকে নির্দেশনা দেন।

পরে টেলিটক বাংলাদেশ লিমিটেডের অগ্রগতি পর্যালোচনা সভায় টেলিটককে লাভজনক প্রতিষ্ঠানে রূপান্তরের লক্ষ্যে প্রতিষ্ঠানটি হালনাগাদ বিভিন্ন উন্নয়ন কার্যক্রম প্রতিমন্ত্রীকে অবহিত করা হয়।

অনুষ্ঠানে বিটিসিএলের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. আনোয়ার হোসেন এবং টেলিটকের ব্যবস্থাপনা পরিচালক নূরুল মাবুদ চৌধুরী নিজ নিজ প্রতিষ্ঠানের কার্যক্রমের অগ্রগতি তুলে ধরেন।

বাংলাদেশ সময়: ১৫১২ ঘণ্টা, জুন ০৬, ২০২৪
এমআইএইচ/এসআইএ

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।