ঢাকা, শুক্রবার, ১৬ আষাঢ় ১৪২৯, ০১ জুলাই ২০২২, ০০ জিলহজ ১৪৪৩

আগরতলা

উন্নয়নের ধারাকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়াই সরকারের প্রধান লক্ষ্য: মুখ্যমন্ত্রী

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ২১২৩ ঘণ্টা, মে ১৫, ২০২২
উন্নয়নের ধারাকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়াই সরকারের প্রধান লক্ষ্য: মুখ্যমন্ত্রী কথা বলছেন মুখ্যমন্ত্রী ডা. মানিক সাহা।

আগরতলা (ত্রিপুরা): ‘ত্রিপুরা রাজ্যের উন্নয়নের ধারাকে আরও দ্রুতগতিতে এগিয়ে নিয়ে যাওয়াই সরকারের প্রধান লক্ষ্য। রাজ্যের বর্তমান সুশৃঙ্খল আইন ব্যবস্থাকে বজায় রাখার ক্ষেত্রেও সরকার গুরুত্ব দিয়ে কাজ করবে।

’ 

রোববার (১৫ মে) মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে শপথ গ্রহণ করার পর রাজ্য অতিথিশালায় প্রথম সংবাদ সম্মেলনে ডা. মানিক সাহা এ কথা বলেন।  

নয়া মুখ্যমন্ত্রী বলেন, সাবেক মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব কুমার দেবের নেতৃত্বাধীন সরকার রাজ্যের জনগণের কল্যাণে যেসব কাজ শুরু করে গেছেন তার সুফল সমাজের অন্তিম ব্যক্তির কাছে পৌঁছে দেওয়ার লক্ষ্যে সরকার গুরুত্ব সহকারে কাজ করবে। মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে বিপ্লব কুমার দেব যেসব প্রকল্প রাজ্যবাসীর কল্যাণে চালু করেছিলেন তা রূপায়ণে আরও জোরদার প্রয়াস নেওয়া হবে। রাজ্যের উন্নয়নমূলক কর্মসূচিগুলো এগিয়ে নিয়ে যেতে এবং রাজ্যে শান্তি, শৃঙ্খলা বজায় রাখার ক্ষেত্রে বিরোধীদলের সহযোগিতাও প্রয়োজন। উন্নয়নমূলক কাজে বিরোধীদের মতামতকেও যথার্থ সম্মান দেওয়া হবে।
 
তিনি বলেন, ভিশন ডকুমেন্টের বিভিন্ন বিষয়গুলো পূরণেও সরকার প্রয়োজনীয় উদ্যোগ নেবে। আগামী ২০৪৭ সাল পর্যন্ত রাজ্যের উন্নয়নের যে রূপরেখা তৈরি করা হয়েছে তা রূপায়ণে সরকার আরও বেশি গতি আনার প্রয়াস নেবে। রাজ্যের বেকারদের কর্মসংস্থানের সুযোগ সৃষ্টির ওপরও সরকার প্রয়োজনীয় উদ্যোগ গ্রহণ করে কাজ করবে।

তিনি আরও বলেন, সংবাদমাধ্যম হলো গণতন্ত্রের চতুর্থ স্তম্ভ। সংবাদমাধ্যমের সঙ্গে যুক্ত সাংবাদিকসহ সবার সুখ ও স্বাচ্ছন্দ্যের প্রতি সরকার বিশেষ গুরুত্ব দেবে। রাজ্যের উন্নয়নের প্রশ্নে কেন্দ্রীয় নেতৃত্ব যখন যে দায়িত্ব দেবে তা রূপায়ণেও সরকার সচেষ্ট থাকবে।  

সংবাদ সম্মেলনে মুখ্যমন্ত্রী ডা. মানিক সাহা সরকারের উন্নয়নমূলক কাজকে এগিয়ে নিয়ে যেতে ও রাজ্যের আইনশৃঙ্খলাকে বজায় রাখার ক্ষেত্রে রাজ্যবাসীর সহযোগিতা কামনা করেন।

বাংলাদেশ সময়: ২১২৩ ঘণ্টা, মে ১৫, ২০২২
এসসিএন/এএটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa