ঢাকা, শুক্রবার, ২৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৯, ০৯ ডিসেম্বর ২০২২, ১৪ জমাদিউল আউয়াল ১৪৪৪

আগরতলা

ত্রিপুরার প্যাকেটজাত আনারস গেল জার্মানিতে

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ১০০২ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ১৯, ২০২১
ত্রিপুরার প্যাকেটজাত আনারস গেল জার্মানিতে সবুজ পতাকা নেড়ে আনারস বিদেশে রপ্তানির সূচনা করেছেন মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব কুমার দেবসহ অন্যরা। ছবি: বাংলানিউজ

আগরতলা, (ত্রিপুরা): এবার ত্রিপুরা থেকে প্যাকেটজাত আনারস জার্মানিতে রপ্তানি শুরু হয়েছে।

শনিবার (১৮ ডিসেম্বর) বিকেলে ত্রিপুরার ঊনকোটি জেলা কুমার ঘাট থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে প্রক্রিয়াজাত আনারস বিদেশের উদ্দেশে যাত্রা শুরু করে।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব কুমার দেব, তপসিলি জাতি কল্যাণ দপ্তরের মন্ত্রী ভগবান চন্দ্র দাস, বিধায়ক শুধাংশু দাস, বিধায়ক শম্ভুলাল চাকমা প্রমুখ।  

উপস্থিত অতিথিরা সবুজ পতাকা নেড়ে এই রপ্তানির সূচনা করেন। এদিন কুমার ঘাট ইন্ডাস্ট্রিয়াল এস্টেট কমপ্লেক্স থেকে ৪০ মেট্রিক টন প্রক্রিয়াজাত আনারস জার্মানির হামবার্গের উদ্দেশে ট্রাক ছেড়ে যায়। এ সময় মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব কুমার দেব বলেন, সঠিক ব্যবস্থাপনার ফলে ন্যায্যমূল্যের অনিশ্চয়তা ও নানাবিধ কারণে উৎসাহ হারিয়ে ফেলা উদ্যোগীরা বর্তমানে নয়া উদ্যামে আত্মনির্ভর হওয়ার জন্য চেষ্টা করছেন। সঠিক ব্যবস্থাপনার ফলে আনারসসহ অন্যান্য কৃষিজ উৎপাদিত পণ্যের চাহিদার পাশাপাশি বেড়েছে লাভের পরিমাণ। জলপথকে কাজে লাগিয়ে জাতীয় এবং আন্তর্জাতিক বাজারে বাণিজ্যিক পণ্য পরিবহনের সুযোগ সম্প্রসারন ও এর খরচ লাঘবের লক্ষ্যে কাজ করছে রাজ্য সরকার। পরিবহন ব্যয় সংকোচিত করা গেলে উৎপাদকরা লাভের মুখ দেখবেন। রাজ্যের উৎপাদিত সামগ্রী প্রথমে সড়ক পথ তারপর জলপথে জাতীয় এবং আন্তর্জাতিক বাজারে রপ্তানিতে অনেকটা সময় এবং অর্থ ব্যয় হয়। সেজন্য জলপথে জাতীয় এবং আন্তর্জাতিক বিভিন্ন জল বন্দরের সঙ্গে যোগাযোগের সুযোগ তৈরির লক্ষ্যে পরিকল্পনা রূপায়িত হচ্ছে।
 
মুখ্যমন্ত্রী এদিন কুমার ঘাট এলাকার চাষিদের আনারস বাগান ঘুরে দেখেন এবং চাষিদের সঙ্গে কথা বলেন।

বাংলাদেশ সময়: ১০০২ ঘণ্টা, ডিসেম্বর ১৯, ২০২১
এসসিএন/এএটি

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।
Alexa