ঢাকা, শুক্রবার, ৬ বৈশাখ ১৪৩১, ১৯ এপ্রিল ২০২৪, ০৯ শাওয়াল ১৪৪৫

আগরতলা

সাংবাদিক সুদীপের পরিবারের পাশে পশ্চিমবঙ্গ সরকার

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম
আপডেট: ০৬৩৭ ঘণ্টা, নভেম্বর ২৮, ২০১৭
সাংবাদিক সুদীপের পরিবারের পাশে পশ্চিমবঙ্গ সরকার সাংবাদিক সুদীপের বাসায় উত্তরপূর্ব রাজ্যের বিধায়ক সব্যসাচী দত্ত

আগরতলা: গুলিতে নিহত সাংবাদিক সুদীপের পারিবারের পাশে দাঁড়িয়েছে পশ্চিমবঙ্গ সরকার। 

মঙ্গলবার (২৮ নভেম্বর) সকালে ত্রিপুরা সফরে এলেন তৃণমূল কংগ্রেস দলের বিধায়ক তথা পশ্চিমবঙ্গ রাজ্যের বিধাননগর'র মেয়র ও দলের ত্রিপুরাসহ উত্তরপূর্ব রাজ্যের বিধায়ক সব্যসাচী দত্ত।

আগরতলা বিমানবন্দর থেকে সুজা চলে যান রাজধানীর ইরনগর এলাকার টি এস আর জওয়ানের হাতে নিহত সাংবাদিক সুদীপ দত্ত ভৌমিকের বাড়িতে।

কথা বলেন, নিহত সাংবাদিকের মা, স্ত্রী, পুত্র-কন্যাসহ পরিবারের সদস্যদের সঙ্গে। পরিবারের সদস্যদের মুখে মৃত্যুর করুন কাহিনী শুনে সব্যসাচী দত্ত'র চোখ দিয়ে পানি গড়িয়ে আসে।  

তিনি তৃণমূল কংগ্রেসের পক্ষ থেকে পরিবারের সদস্যদের হাতে নগদ এক লাখ  রুপি তোলে দেন। সেই সঙ্গে তিনি নিহত সাংবাদিক সুদীপের কলেজ পড়ুয়া ছেলের চাকরির ব্যবস্থা করেন। মেয়ে আইন বিষয়ে পড়তে চায় বলায় তিনি মাধ্যমিক পাস করার পর পশ্চিমবঙ্গে আইন বিষয়ে পড়ার ব্যবস্থার আশ্বাস দেন।  

সব্যসাচী আরো জানান, পশ্চিমবঙ্গের মূখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জির আশার কথা ছিলো। কিন্তু ওইদিন আগরতলায় ভারতের রাষ্ট্রপতি আসছেন তাই আসতে পারেননি।  

আসতে না পারায় তিনি মৃত সাংবাদিক সুদীপের মা'র সঙ্গে ফোনে কথা বলেন পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা ব্যানার্জি।

তিন দিনের সফরে ত্রিপুরায় এসেছেন সব্যসাচী দত্ত। তিনি কর্মী সম্মেলনে যোগ দেবেন এছাড়াও রাজ্যের বিভিন্ন জনপদে দলের কর্মী সমর্থকদের নিয়ে সভা করার কথা রয়েছে।

মঙ্গলবার (২১ নভেম্বর) দুপুরে রাজধানী আগরতলার পার্শ্ববর্তী আর কে নগরে টিএসআর’র দ্বিতীয় বাহিনীর প্রধান কার্যালয়ে সংবাদ সংগ্রহ করতে গেলে সাংবাদিক সুদীপ দত্ত ভৌমিককে গুলি করে হত্যা করা হয়। এ সময় টিএসআর জওয়ানরা তাকে হত্যা করেছে বলে অভিযোগ ওঠে।  

বাংলাদেশ সময়: ১২২৮ ঘণ্টা, নভেম্বর ২৮, ২০১৭
এসসিএন/বিএস 
 

বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম'র প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।